৭ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

OMG! বারে বিক্রি হচ্ছে সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের নামের বিয়ার!

Published by: Sulaya Singha |    Posted: April 21, 2019 11:24 am|    Updated: April 21, 2019 2:12 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন অনেকদিন। তা সত্ত্বেও বাইশ গজের সঙ্গে পরতে পরতে জড়িয়ে রয়েছেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। তাই তো দাদার জনপ্রিয়তায় এতটুকু ভাটা পড়েনি। ভারতীয় ক্রিকেটের সর্বকালের অন্যতম সেরা অধিনায়কের ভক্তের সংখ্যা এদেশে কম নয়। কিন্তু ক্রিকেট থেকে অবসরের পরও দেশের বাইরে যে তিনি এতটা চর্চায়, তা হয়তো অনেকেরই জানা ছিল না। জানা গেল একটি টুইটে। অস্ট্রেলিয়ার একটি বারে নাকি বিক্রি হচ্ছে দাদার নামের বিয়ার! হ্যাঁ, টুইটে মেনু কার্ডের ছবিতেই রয়েছে প্রমাণ।

সৌরভের ঝাঁপিতে অস্ট্রেলিয়ায় সাফল্যের নানা কাহিনি রয়েছে। সেখানকারই এক বারই এবার অনন্য সম্মান দিল দাদাকে। যদিও অস্ট্রেলিয়ার কোথায় এই বার, তা এখনও জানা যায়নি। তবে বারের মেনু কার্ডে দেখা যাচ্ছে, একটি ড্রিঙ্কের নাম ‘ফেরাল গাঙ্গুলি ম্যাঙ্গো লাসি আইপিএ’ (Feral Ganguly Mango lasi IPA)। ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট হতেই হু হু করে শেয়ার হওয়া শুরু হয়েছে। ছবি পোস্ট করে সৌরভকে ট্যাগ করে ইউজার লেখেন, “আমার সবসময় মনে হত সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়রকে অস্ট্রেলিয়া বিশেষ পছন্দ করে না। কিন্তু এখন দেখছি এই দেশ তাঁকে দারুণ সম্মান দিয়েছে। খুব ভাল লাগছে বিষয়টা।” যদিও এনিয়ে দাদার প্রতিক্রিয়া এখনও পাওয়া যায়নি।

[আরও পড়ুন: নাইট সংসারে অশান্তি! আরসিবির বিরুদ্ধে হারের পর বিস্ফোরক রাসেল]

এদিকে স্বার্থের সংঘাত ইস্যুতে সৌরভ বনাম ভারতীয় বোর্ড ওম্বুডসম্যান ম্যাচ শনিবার ‘ডিউস’ হয়ে থাকল। শনিবার নয়াদিল্লিতে বৈঠক শেষেও কোনও রফাসূত্রে পৌঁছনো গেল না। বরং সৌরভ এবং অভিযোগকারীদের বোর্ড ওম্বুডসম্যান বলে দিলেন, আগামী সোমবারের মধ্যে নিজেদের বয়ান লিখিত জমা দিতে হবে।

সৌরভ একাধারে সিএবি প্রেসিডেন্ট এবং অন্যদিকে আইপিএলে দিল্লি ফ্র্যাঞ্চাইজির উপচেষ্টা। ফলে তাঁর বিরুদ্ধে স্বার্থের সংঘাতের অভিযোগ তুলে ভারতীয় বোর্ডের ওম্বুডসম্যান ডি কে জৈনের কাছে চিঠি পাঠিয়েছিলেন শহরের তিন ক্রিকেটভক্ত। যে চিঠির জবাব দেন সৌরভও। জানিয়ে দেন, কোনওরকম স্বার্থের সংঘাতের সঙ্গে তিনি জড়িয়ে নেই। বোর্ডের যে সব কমিটিতে তিনি ছিলেন, সব ক’টা থেকে ইস্তফা দিয়ে দিয়েছেন। সিওএ পরিচালিত বোর্ড আবার চিঠি পাঠিয়ে ওম্বুডসম্যানকে জানিয়ে দেয়, কোনও কোনও ক্ষেত্রে স্বার্থের সংঘাতের ছায়া দেখা গেলেও সেটা কতটা গুরুত্ব দেওয়া হবে, তা জৈন বিচার করে দেখুন। শনিবার সৌরভ নাকি বলে দেন, দিল্লি ক্যাপিটালস থেকে একটা টাকাও তিনি নিচ্ছেন না। যতই তিনি উপদেষ্টার পদে থাকুন, যতই তাঁর নাম টিম লিস্টে থাকুক না কেন, পদটা তাঁর সাম্মানিক।

[আরও পড়ুন: টিভিতে বিতর্কিত মন্তব্যের জের, বিরাট অঙ্কের জরিমানা পাণ্ডিয়া-রাহুলের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement