১১ আষাঢ়  ১৪২৬  বুধবার ২৬ জুন ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

১১ আষাঢ়  ১৪২৬  বুধবার ২৬ জুন ২০১৯ 

BREAKING NEWS

দেবাশিস সেন, সাউদাম্পটন: দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে যুজবেন্দ্র চাহালের চার উইকেট তোলার নেপথ্য রহস্য কী?
ভারতীয় লেগস্পিনারের মনে হচ্ছে, কারণটা হল দাবা! ছোটবেলা থেকে যে খেলায় তিনি পারদর্শী ছিলেন। এবং বর্তমানে বাইশ গজে যা তাঁকে ব্যাটসম্যানের ভাবনাচিন্তার থেকে এগিয়ে রাখছে।

চাহালের মতে, দাবা খেলার অভিজ্ঞতা থাকায় তাঁর পক্ষে ব্যাটসম্যান কী ভাবছে না ভাবছে তাঁর পক্ষে বুঝতে সুবিধে হচ্ছে। “দাবা আমাকে শিখিয়েছে ধৈর্য রাখতে। শিখিয়েছে ঠিকঠাক প্ল্যানিং করতে। দাবা খেলার সময় আপনাকে আগাম পনেরো-ষোলোটা মুভ আগেভাগে ভেবে রাখতে হয়। ফাফ দু’প্লেসিকে বল করার সময় ব্যাপারটা একই দাঁড়ায়। আগে থেকে প্ল্যান করে রাখতে হয় আপনি গুগলি করবেন না ফ্লিপার। কোন ডেলিভারিটা ওরা খেলতে পারবে, কোনটা ওরা খেলতে পারবে না,” সাউদাম্পটনে দক্ষিণ আফ্রিকা বধের পর মিক্সড জোনে এসে বলে দিয়েছেন চাহাল।

ভারতীয় লেগস্পিনার খোলসা করে বুঝিয়েছেন, কী ভাবে দু’প্লেসিকে তিনি প্ল্যান করে আউট করেছিলেন। “যে ভাবে আমি ফাফকে আউট করেছি, তা সত্যিই তৃপ্তিদায়ক। ড্রিফট পাচ্ছি দেখে আমি ঠিক করি অফস্টাম্পে স্লাইডার করব। ও বলটা বুঝতেই পারেনি,’’ বলে দিয়েছেন চাহাল। টিমের লেগস্পিনারের সাফল্যে খুশি ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলিও। চাহালের যে জিনিসটা বিরাটের সবচেয়ে ভাল লাগে, তা হল মানসিকতা। “পরিস্থিতি যা-ই হোক, চাহালকে কখনও না বলতে শুনিনি। শুনিনি, আমি এখন বল করতে চাই না,” বলেছেন কোহলি।

তবে চাহাল পুরো কৃতিত্ব নিজে নেননি। টিমের পেসারদেরও কৃতিত্ব দিয়েছেন। “আমি আমার টিমের পেসারদের কৃতিত্ব দেব একদম সঠিক মঞ্চ আমাদের জন্য প্রস্তুত করে দেওয়ার জন্য। পেসাররা এতটাই ভাল বল করে যে, আমরা যখন বল করতে আসি কোনও চাপই ছিল না,” বলে দিয়েছেন চাহাল। কোহলি আবার মনে করেন, খেলার পরিস্থিতি অনুযায়ী কখন কী করতে হবে, সেই সম্পর্কে খুব স্বচ্ছ্ব ধারণা আছে চাহালের। “পিচ কী রকম, সেখানে কী করা উচিত, সেই সম্পর্কে খুব ভাল ধারণা আছে চাহালের। ও আজ যতটুকু যা হয়েছে, যে সব কীর্তি গড়েছে, তার পুরো কৃতিত্ব একা ওর।”

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং