২২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  সোমবার ৯ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পিংক বল টেস্ট শেষ হয়ে গিয়েছে আড়াইদিনেই। রবিবার বেলা ২টো নাগাদই ভারতীয় দলের বিরাট পরাক্রমের কাছে নতজানু হয়েছিলেন মোমিনুল হকরা। খেলা পাঁচদিন গড়ালে আজ, মঙ্গলবার হত ইডেন টেস্টের শেষ দিন। তাই বাংলাদেশ দলের সব ক্রিকেটার এখনও কলকাতা ছাড়েননি। যেমন লিটন দাস। কলকাতা ছাড়ার আগে এদিন কালীঘাট দর্শন করে গেলেন বাংলাদেশি তারকা।

এদিন সকাল ১০টা নাগাদ কালীঘাট মন্দিরে যান লিটন। গলায় দেবী মায়ের লাল চুনরী আর মাথায় পুজোর টিপ লাগিয়ে জোর হাত করে মা কালীর আশীর্বাদ নেন। টেস্ট শেষ হওয়ার দু’দিন পর হঠাৎই বাংলাদেশি ক্রিকেটারকে কালীঘাট মন্দিরে দেখে তাঁর সঙ্গে সেলফি তোলার হিড়িকও পড়ে যায়। ভক্তদের আবদার রাখেন লিটন। পুজো দিয়ে আধ ঘণ্টা পর সেখান থেকে বেরিয়ে যান। তাঁর সঙ্গে অবশ্য দলের অন্য কোনও ক্রিকেটারকে দেখা যায়নি।

[আরও পড়ুন: ‘ইস্টবেঙ্গলের সবচেয়ে বড় সমর্থক ছিল ও’, ছোটুর মৃত্যুতে আবেগঘন পোস্ট বাইচুংয়ের]

দেশের জার্সি গায়ে প্রথমবার পিংক টেস্টে নামার অভিজ্ঞতা খুব একটা ভাল হয়নি লিটনের। মহম্মদ শামি, ইশান্ত শর্মা ও উমেশ যাদবের দাপুটে বোলিংয়ে তছনছ হয়ে গিয়েছিল বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইন আপ। বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসের ২০.৩ ওভারে শামির শর্ট বলে পুল মারতে গিয়ে বল লাগে লিটনের হেলমেটে। মাথায় চোট পান তিনি। চোট নিয়েও খেলা চালিয়ে যান। কিন্তু পরের ওভারে ইশান্ত শর্মার ডেলিভারিতে ফের মাথায় আঘাত লাগে। ক্রিজে আর দাঁড়াতে পারেননি লিটন। মাথায় চোট পেয়েছিলেন নইম হাসানও।

দু’জনকেই হাসাপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। স্ক্যানও করা হয়। চিকিৎসকরা জানান, দু’জনের স্কালে চোট লাগেনি ঠিকই, তবে তাঁদের বিশ্রাম নিতে হবে। ফলে পরের ইনিংসে আর তাঁদের দেখা যায়নি। আপাতত লিটন অনেকটাই সুস্থ। পিংক টেস্টের স্মৃতি সুখকর না হলেও কলকাতার মানুষের ভালবাসা নিয়েই ওপার বাংলায় ফিরছেন উইকেটকিপার। 

[আরও পড়ুন: হকি ম্যাচের ফাইনালে চরম বিশৃঙ্খলা, হাতাহাতিতে জড়ালেন দু’দলের খেলোয়াড়রা]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং