৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দুঃশ্চিন্তার অবসান ঘটিয়ে ভারত-পাক মহারণ শুরু হয়েছে যথাসময়েই। কিন্তু তাতে কী, ম্যাঞ্চেস্টারের আকাশে কালো মেঘ এখনও বিদায় নেয়নি। আবহাওয়া দপ্তর বলছে, যে কোনও মুহূর্তে ফের সংহারক রূপে অবতীর্ণ হতে পারেন বরুণদেব। বৃষ্টিতে যদি কোনওভাবে ম্যাচ ভেস্তে যায়, তাহলে সমর্থকরা যে হতাশ হবেন সেকথা বলাই বাহুল্য। কিন্তু, সমর্থকদের থেকেও যারা বেশি হতাশ হবেন তারা হলেন আয়োজকরা। কারণ, বিপুল পরিমাণ আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে হবে তাদের।

[আরও পড়ুন: বিশ্বকাপের মহারণে আজ আমির-বুমরাহরাই কাঁপিয়ে দেবেন, আশা সৌরভের]

ভারত-পাক ম্যাচ যে কোনও সময়, যে কোনও টুর্নামেন্টে দর্শকরা চেটেপুটে খান। আর তা যদি হয় বিশ্বকাপে, তাহলে আলাদা করে বলার কিছু থাকে না। তা ছাড়া দু’দেশের সীমান্তে যে অশান্তির আবহ সেই পরিস্থিতিতে এই ম্যাচের টিআরপি যে আরও বেশি হবে সেকথা বলাই বাহুল্য। তাই, গোটা টুর্নামেন্টের সিংহভাগ লাভ আইসিসি পায় এই একটি ম্যাচ আয়োজন করেই। টিকিট মূল্য থেকে শুরু করে স্পনসরদের টাকা সব মিলিয়ে কোটি কোটি টাকা লাভ হয় আইসিসির। ম্যাচ বাতিল হয়ে গেলে আইসিসির তো লোকসান হবেই, সেই সঙ্গে লোকসান হবে আয়োজক ইংল্যান্ড এবং সম্প্রচারকারী সংস্থা স্টার স্পোর্টসের। জানা গিয়েছে, ভারত-পাক ম্যাচ যদি বৃষ্টিতে পুরোপুরি বাতিল হয়ে যায় তাহলে খালি স্টার স্পোর্টসেরই ১৩৭ কোটি টাকা লোকসান হবে। এই ম্যাচের জন্য বিজ্ঞাপনের দাম বেশ খানিকটা বাড়িয়েছে স্টার ইন্ডিয়া। তাই, ম্যাচ বাতিল হলে সবচেয়ে বেশি ভুগতে হবে তাদেরই। এছাড়াও সরাসরি আইসিসির স্পনসর বাবদ লোকসান হবে কোটি কোটি টাকা। সব মিলিয়ে ভারত-পাক ম্যাচ বাতিল হলে আড়াইশো কোটি টাকা পর্যন্ত লোকসান হতে পারে। তবে, আশার কথা রবিবার ম্যাঞ্চেস্টারের আবহাওয়া অনেকটা পরিষ্কার। আয়োজকদের আশা বরুণদেব সহায় হবেন, এবং ম্যাচ বাতিল হবে না।

[আরও পড়ুন:‘শান্ত হন, এটা যুদ্ধ নয়’, ভারত-পাক মহারণের আগে বার্তা আক্রমের]

বৃষ্টির ভ্রুকুটি থাকলেও এই ম্যাচ নিয়ে উত্তেজনার কোনও খামতি নেই। বিশেষজ্ঞরা ধারে ভারে ভারত অনেকটা এগিয়ে থাকলেও পাক সমর্থকরা আশা ছাড়তে নারাজ। ইতিমধ্যেই পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান তাঁর দলকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। পাক কিংবদন্তি ওয়াসিম আক্রম, শোয়েব আখতারদের আশা চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি ফাইনালের মতো এবারেও ভারতকে হারাতে পারে পাকিস্তান। অন্যদিকে, শচীন, শেহওয়াগরা মনে করছেন জিতবে ভারতই। ইতিমধ্যেই, টস জিতে ভারতকে আগে ব্যাট করতে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান। এখন দেখার শেষ পর্যন্ত কী হয় খেলার ফলাফল।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং