BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

অবৈধভাবে নাম ও ছবি ব্যবহার! শচীনের কাছে ক্ষমা চাইল অস্ট্রেলিয়ার সংস্থা

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: May 15, 2020 1:50 pm|    Updated: May 15, 2020 1:50 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  অবশেষে শচীনের কাছে ক্ষমা চাইল অস্ট্রেলিয়ার ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারক সংস্থা স্পার্টান স্পোর্টস। চুক্তিভঙ্গের অভিযোগে ওই সংস্থার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছিলেন মাস্টার ব্লাস্টার। সংস্থাটি ক্ষমা চেয়ে নেওয়ায়, সেই মামলা প্রত্যাহার করলেন শচীন (Sachin Tendulkar )।

ঘটনাটা কী? ২০১৬ সালে স্পার্টান-এর (Spartan) সঙ্গে চুক্তি সই করেন মাস্টার ব্লাস্টার। চুক্তি অনুযায়ী নিজেদের প্রতিটা প্রোডাক্টে শচীনের ছবি, নাম ও লোগো ব্যবহার করতে পারবে স্পার্টান। তার উপর আবার স্পার্টানের প্রচারের জন্য বিভিন্ন অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকতে হবে ক্রিকেট-ঈশ্বরকে। তবে ক্রীড়া সরঞ্জামের বিক্রি বাড়লেও সেখান থেকে প্রাপ্য রয়্যালটি পাননি শচীন। আর সেটা নিয়েই শুরু হয় বিতর্ক।

[আরও পড়ুন: আইপিএল বাতিল হলে কাটা যাবে কোহলি-রোহিতদের বেতন, ইঙ্গিত সৌরভের]

বকেয়া মেটানোর জন্য বারবার অনুরোধ করেন শচীন। কিন্তু তাতে আমল দেয়নি ওই ক্রীড়া সরঞ্জাম প্রস্তুতকারী সংস্থা। বাধ্য হয়ে চুক্তি বাতিল করার সিদ্ধান্ত নেন ভারতীয় ক্রিকেটের মহাতারকা। তবে ২০১৮-র সেপ্টেম্বরে চুক্তি শেষ করার পরেও শচীনের নাম ও ছবি ব্যবহার করতে থাকে স্পার্টান। শেষমেশ সিডনির এক আদালতে স্পার্টানের বিরুদ্ধে মামলা করেন শচীন। যা নিয়ে শুরু হয় জোর বিতর্ক।

[আরও পড়ুন: ‘কোচ অন্য খেলা খেলতেন’, ‘গুরু গ্রেগ’কে তীব্র আক্রমণ হরভজন-যুবরাজের]

অবশেষে সেই বিতর্ক শেষ হল। বৃহস্পতিবার সরকারি বিবৃতি দিয়ে শচীনের কাছে ক্ষমা চাইল স্পার্টান। সঙ্গে এটাও জানিয়ে দিল ভবিষ্যতে তাঁদের আর কোনও সরঞ্জামে অবৈধভাবে শচীনের নাম ও ছবি ব্যবহার করা হবে না। পাশাপাশি সংস্থাটি স্বীকার করে নেয়, শচীন চুক্তিমতো তাঁদের বহু স্পনসরশিপ ইভেন্টে অংশ নিয়েছেন। মুম্বই, লন্ডন সর্বত্র গিয়েছেন। স্পার্টান নিজেই শচীনের সঙ্গে হওয়া চুক্তির সম্মান রাখতে পারেনি। এর ফলে মাস্টার ব্লাস্টারকে আর্থিক ক্ষতির মুখেও পড়তে হয়। কারণ, ওই সংস্থার সঙ্গে চুক্তি থাকায় আর কোনও স্পনসরশিপ চুক্তি সই করতে পারেননি তিনি। তা সত্বেও অজি সংস্থাটি ক্ষমা চেয়ে নেওয়ায় মামল‌া খারিজ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন মাস্টার ব্লাস্টার।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement