BREAKING NEWS

১ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

চেতন চৌহানের মৃত্যুতে CBI তদন্ত দাবি শিব সেনার, চাপে যোগী সরকার

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: August 25, 2020 10:50 am|    Updated: August 25, 2020 12:49 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রাক্তন ক্রিকেটার তথা মন্ত্রী চেতন চৌহানের মৃত্যু নিয়ে সরগরম উত্তরপ্রদেশের রাজনীতি। ঠিক কীভাবে প্রাক্তন ক্রিকেটারের মৃত্যু হয়েছে? সত্যিই সঞ্জয় গান্ধী পিজিআই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কোনও গাফিলতি ছিল কিনা, এই প্রশ্নে এখন রীতিমতো অস্বস্তিতে উত্তরপ্রদেশ সরকার। পুরো ঘটনার সিবিআই তদন্ত দাবি করেছে শিব সেনা (Shiv Sena)। আপ নেতা সঞ্জয় সিং ঘটনায় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করার হুমকি দিয়েছেন।

গত মাসে যেদিন অমিতাভ বচ্চনের (Amitabh Bachchan) করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবর সামনে আসে, সেদিনই জানা যায়, এই মারণ ভাইরাস থাবা বসিয়েছে প্রাক্তন ভারতীয় ওপেনার তথা উত্তরপ্রদেশের মন্ত্রী চেতন চৌহানের (Chetan Chauhan) শরীরেও। করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর লখনউয়ের সঞ্জয় গান্ধী পিজিআই হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল তাঁকে। সমাজবাদী পার্টির বিধান পরিষদের সদস্য সুনীল সিং সাজানের অভিযোগ, ওই হাসপাতালেই তাঁর সঙ্গে দুর্ব্যবহার করা হয়। তাঁর দাবি, চেতন চৌহানের মৃত্যু করোনায় হয়নি। বরং, চিকিৎসার অভাবে হয়েছে। লখনউয়ের সঞ্জয় গান্ধী মেমোরিয়াল হাসপাতালে তাঁর সঙ্গে দুর্ব্যবহার করা হয়েছে। এবং তিনি নিজে তা দেখেছেন।

[আরও পড়ুন: করোনায় নয়! চিকিৎসার অভাবে প্রাণ গিয়েছে চেতন চৌহানের, দাবি সমাজবাদী পার্টির]

সপা নেতার ওই অভিযোগের পর থেকেই সরগরম উত্তরপ্রদেশের রাজনীতি। শিব সেনার এক প্রতিনিধিদল গতকাল উত্তরপ্রদেশের রাজ্যপাল আনন্দীবেন প্যাটেলের সঙ্গে দেখা করে। তাঁদের দাবি, “চেতন চৌহানকে চিকিৎসকরা অপমান করেছে। এখনও পর্যন্ত মোট দুজনের মৃত্যু হয়েছে চিকিৎসার অভাবে। অথচ সরকার ঘুমোচ্ছে। চেতন চৌহানের মৃত্যু কীভাবে হল? তাঁকে কী অবস্থায় সঞ্জয় গান্ধী পিজিআই হাসপাতাল থেকে হরিয়ানায় নিয়ে যাওয়া হল? এসব আমরা জানতে চাই। এই ঘটনার সিবিআই তদন্ত প্রয়োজন। সরকারের কি সঞ্জয় গান্ধী পিজিআই হাসপাতালের মতো সরকারি হাসপাতালের উপর আস্থা নেই?” চেতন চৌহানের মৃত্যু নিয়ে সুর চড়িয়েছে আম আদমি পার্টিও (AAP)। আপ নেতা সঞ্জয় সিং জানিয়েছেন, তিনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করবেন। 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement