৩ কার্তিক  ১৪২৬  সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সচরাচর তিনি রাজনৈতিক বিষয়ে মুখ খোলেন না। নিজেকে ক্রিকেট রাজনীতিতেই সীমাবদ্ধ রেখেছেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। এবার খানিকটা স্বভাববিরুদ্ধেভাবেই ভারত-পাক কূটনীতি নিয়ে মুখ খুললেন প্রাক্তন ভারতীয় অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। আর মুখ খুলেই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে তুলোধোনা করলেন সৌরভ।

[আরও পড়ুন: ভারত বনাম দঃ আফ্রিকা: বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচে দাপট রোহিতদের, বড় রানের লক্ষ্যে ভারত ]

উল্লেখ্য, গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রসংঘের মঞ্চে পরমাণু যুদ্ধের হুঁশিয়ারি দিয়ে বিদ্বেষমূলক ভাষণ দেন ইমরান। তারপর পাক প্রধানমন্ত্রী আমেরিকার একটি টেলিভিশন শোতে অংশ নেন। সেখানে মার্কিন টিভি চ্যানেলের সঞ্চালক ইমরানকে প্রবল ভর্ৎসনা করেন। এমনকী, পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ইমরান খানের যোগ্যতা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন ওই টিভি চ্যানেলটির সঞ্চালক। মুহূর্তে মার্কিন টিভি চ্যানেলের ওই ফুটেজ নেটদুনিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়।
সেই ফুটেজ শেয়ার করে দিন দুই আগেই বীরেন্দ্র শেহওয়াগ টুইটারে লেখেন, ইমরান খান নিজেকে অপমানিত করার নিত্যনতুন উপায় খুঁজে বের করছেন।

[আরও পড়ুন: টেস্টে প্রথম সেঞ্চুরি মায়াঙ্কের, রানের গড়ে ব্র্যাডম্যানকে টপকে গেলেন রোহিত]

শেহওয়াগের সেই টুইটের প্রক্ষিতেই এদিন মুখ খোলেন সৌরভ। তিনি বলেন, “বীরু এটা দেখে আমিও স্তম্ভিত। গোটা বিশ্বের শান্তি প্রয়োজন। আর পাকিস্তানের মতো দেশে তো সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন। সেখানে একজন নেতা এই ধরনের জঘন্য কথা কী করে বলতে পারেন! যে ক্রিকেটারকে গোটা বিশ্ব চেনে, ইনি তিনি নন।”

উল্লেখ্য, রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভায় দাঁড়িয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর স্পষ্ট হুঁশিয়ারি দেন ভারতকে। তিনি বলেন, “আমি কোনও হুমকি দিচ্ছি না। কিন্তু আন্তর্জাতিক মহলকে ভাবতে হবে তাঁরা ১৩০ কোটির বাজারকে তোষণ করবেন, না নিরীহ নিরপরাধ নাগরিকদের পাশে থাকবেন। দুটি পরমাণু শক্তিধর দেশ যদি যুদ্ধ করে তাঁর প্রভাব কিন্তু গোটা বিশ্বেই পড়বে।” মোদি বিদ্বেষে ভরা বক্তব্যে ইমরান সরাসরি আক্রমণ শানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী এবং সংঘ পরিবারকে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং