৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বৃহস্পতিবার একদিকে যখন নির্ধারিত হয়ে যাবে ভারতীয় দলের সাপোর্ট স্টাফদের ভবিষ্যৎ, তখন অন্যদিকে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অভিযান শুরু করবে কোহলি অ্যান্ড কোং। আর সেই লড়াইয়ের জন্য নতুন চেহারায় সেজে উঠেছে গোটা দল। প্রথমবার টেস্টের জার্সিতে লেখা থাকবে ক্রিকেটারদের নাম ও নম্বর।

অনেক আলোচনা, বিতর্ক, পরিকল্পনার পর অবশেষে সিদ্ধান্ত হয়েছিল যে টেস্টের জার্সিতেও ক্রিকেটারদের নাম এবং নম্বর উল্লেখ থাকবে। সেই মতোই অ্যান্টিগায় ক্যারিবিয়ানদের বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টের আগে নতুন জার্সি গায়ে চাপিয়ে ফটোশুট করলেন কোহলি, রোহিত, কুলদীপ, ঋষভ, পূজারারা। সীমিত ওভারে যে নম্বরের জার্সিতে দেখা যায় রোহিত-কোহলিদের, তা অপরিবর্তিত রয়েছে। এদিকে চেতেশ্বর পূজারার পরেছেন ২৫ নম্বর জার্সি। আবার রাহানে পেয়েছেন ৩ নম্বর জার্সিটি। অশ্বিনের নামের নিচে লেখা ৯৯। আগামিকাল থেকে শুরু হতে চলা টেস্ট সিরিজ এখন আর পাঁচটা টেস্টের মতো নয়। কারণ এগুলি এখন বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের অংশ। যা শুরু হয়েছে এবারের অ্যাসেজ সিরিজ দিয়ে। আগামী দু’বছরের এই সফরে টেস্টের গুরুত্বও যেমন বাড়বে, তেমনই কঠিন হয়ে উঠবে প্রতিযোগিতাও।

[আরও পড়ুন: টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের চ্যালেঞ্জ নিতে প্রস্তুত দল, অনন্য রেকর্ডের সামনে কোহলি]

ইতিমধ্যেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি আর একদিনের সিরিজ জিতেছে ভারত। টেস্ট সিরিজের আগে বেশ ফুরফুরে মেজাজে রয়েছে গোটা দল। জলির সমুদ্র সৈকতে একসঙ্গে সময় কাটাল গোটা দল। ক্যারিবিয়ানদের অবশ্য ফুরফুরে থাকার মতো পরিস্থিতি নেই। দুটো সিরিজে হার। টেস্টে নামার আগেও জেসন হোল্ডারের টিম যথেষ্ট চাপে। ভারতীয় দলের চিন্তাটা অবশ্য একেবারে অন্য। অ্যান্টিগাতে কী টিম নামানো হবে সেটা নিয়েই যত ভাবনা টিম ম্যানেজমেন্টের। মিডল অর্ডারে অজিঙ্ক রাহানে না রোহিত শর্মা? উইকেটকিপার হিসাবে কে খেলবেন, ঋদ্ধিমান সাহা না ঋষভ পন্থ? ইদানীং লাল বলের ক্রিকেটে ফর্ম খুব খারাপ যাচ্ছে রাহানের। প্রস্তুতি ম্যাচেও রান পাননি। রোহিত সেখানে হাফসেঞ্চুরি করেছেন। ফলে সেদিক থেকে কিছুটা এগিয়ে রোহিত। কিন্তু তিনি যে খেলবেনই সেটাও চূড়ান্ত করে বলা সম্ভব হচ্ছে না। এমনকী মিডল অর্ডারে রাহানে, রোহিত দু’জনেই খেলতে পারেন। তবে সেটা তখনই সম্ভব, যখন ভারতীয় দল চার বোলারে নামবে। সেক্ষেত্রে তিন পেসারের সঙ্গে এক স্পিনার।

[আরও পড়ুন: শাস্তি কমল শ্রীসন্থের, আগামী বছরই বাইশ গজে ফিরছেন পেসার]

কিন্তু ওয়েস্ট ইন্ডিজের উইকেটে আগের সেই পেস নেই। সেই বাউন্স নেই। বরং স্পিনাররা অনেক বেশি সাহায্য পান। ক’দিন আগে ভারতীয় এ দলের হয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ এ দলের বিরুদ্ধে বাঁ-হাতি স্পিনার শাহবাজ নাদিম প্রচুর উইকেট নিয়েছেন। ফলে সবাই ধরেই নিচ্ছে, এই সিরিজেও স্পিনাররা ছড়ি ঘোরাবেন। তাই বিরাটরা শেষমেশ এক স্পিনারে নামবেন কি না, তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। বিরাট সবসময় পাঁচ বোলার নিয়ে খেলতে পছন্দ করেন। তাঁর কথা, ম্যাচ জিততে গেলে কুড়িটা উইকেট নিতে হবে। সেক্ষেত্রে মনে হয় না পাঁচ বোলারের থিওরি থেকে সরে আসবেন অধিনায়ক। শেষমেশ কম্বিনেশন কী দাঁড়ায় সেটাই দেখার।

 
 
 
 
 
View this post on Instagram
 
 
 
 
 
 
 
 
 

Stunning day at the beach with the boys 🇮🇳👌😎

A post shared by Virat Kohli (@virat.kohli) on

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং