৭ মাঘ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২১ জানুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: OMG! সাত-পাঁচ না ভেবে ফ্যাফ ডু প্লেসি ক্যামেরার সামনে এ কী বলে ফেললেন! প্রোটিয়া তারকার মুখ থেকে কথাটা শুনে ঠিক এভাবেই হতবাক হয়ে গিয়েছিলেন সঞ্চালক। ফ্যাফের মন্তব্য শুনে শুধু সঞ্চালক কেন, হকচকিয়ে গিয়েছেন দর্শকরাও।

বিষয়টা তাহলে একটু খোলসা করে বলা যাক। এমএসএলের (Mzansi Super League) চলতি মরশুমে পার্ল রকসের অধিনায়কের ভূমিকায় ফ্যাফ। রবিবার তাঁদের ঘরের মাঠে নেলসন ম্যান্ডেলা বে জায়ান্টসের বিরুদ্ধে ম্যাচ ছিল তাঁদের। সেই ম্যাচের টসের সময়ই ঘটে ঘটনাটা। বিপক্ষের কাছে টসে হারেন ফ্যাফ। তারপরই তাঁকে প্রথম একাদশ নিয়ে প্রশ্ন করা হয়। তারই উত্তরেই ঠোঁট কাটা ফ্যাফ বলে দেন, হার্ডাস আজ খেলবে না। কারণ ও এখন আমার বোনের সঙ্গে বিছানায় শুয়ে আছে। কারণ গতকালই ওদের বিয়ে হয়েছে।” সতীর্থ ও বোনের বিষয়ে কথাগুলো এমন ঝড়ের গতিতে বলে দিলেন যে সামনের মানুষটির ভ্যাবাচ্যাকা খেয়ে যাওয়ারই কথা।

[আরও পড়ুন: ম্যাচ চলাকালীন মাঠে ঢুকে পড়ল সাপ! চূড়ান্ত অব্যবস্থা রনজি ট্রফিতে]

গত এক বছর ধরে দক্ষিণ আফ্রিকান ফ্যাফের বোন রেমি রাইরার্সের সঙ্গে প্রেম পর্ব চলছিল হার্ডাসের। শনিবার সেই প্রেমেই পরিণয়ে বদলে যায়। নতুন জীবনে পা রাখেন তাঁরা। বোনের বিয়ের পরের দিনই মাঠে নেমে পড়েছেন ফ্যাফ। তবে হার্ডাস আপাতত সময় কাটাচ্ছেন স্ত্রীর সঙ্গেই। সেই কারণেই তাঁকে এদিন দলে রাখা হয়নি। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে হার্ডাস এখনও পর্যন্ত একটিই টেস্ট খেলেছেন। আগামী বছর আইপিএলে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের হয়ে খেলবেন তিনি। বোনের বিয়ের ব্যাপারটা ফ্যাফ এমনভাবে তুলে ধরেছিলেন, তাতেই খানিকটা অবাক হন সঞ্চালকরা।

রবিবার প্রথমে ব্যাট করে পাঁচ উইকেটে ১৬৮ রান করে পার্ল রকস। ১৯ বলে ২২ রানে আউট হন ফ্যাফ। বে জায়ান্টসকে ১২ রানে হারিয়ে টুর্নামেন্টের ফাইনালে পৌঁছে যায় দল।

[আরও পড়ুন: কাতার বিশ্বকাপ ও টোকিও অলিম্পিক থেকে নির্বাসন, খেলার দুনিয়ায় কলঙ্কিত রাশিয়া]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং