BREAKING NEWS

১৫ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

বিশ্বকাপেও ফিক্সিংয়ের কালো ছায়া! প্রকাশ্যে ‘ঘুষ’ নিতে দেখা গেল রেফারিকে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 8, 2018 5:47 pm|    Updated: June 8, 2018 5:47 pm

FIFA football WC 2018: Russia referee filmed accepting bribe

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এবার ফিফা বিশ্বকাপেও ফিক্সিংয়ের কালো ছায়া৷ একটি আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের স্টিং অপারেশন প্রকাশ্যে ঘুষ নিতে দেখা গেল বিশ্বকাপের জন্য তালিকাভুক্ত রেফারিকে৷ ফিফা বিশ্বকাপে তালিকাভুক্ত রেফারির পাশাপাশি আরও কয়েকজন রেফারিকেও ভিডিওতে দেখা গিয়েছে৷  শুধু একা রেফারি নন, আফ্রিকান ফুটবল ফেডারেশনের বেশ কয়েকজন কর্তাকেও দেখা গেল উপহার হিসেবে টাকার তোড়া তুলে নিতে৷

[প্রথমবার বিশ্বকাপে ‘ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি’, কতটা উপকৃত হবেন ফুটবলাররা?]

বিশ্বকাপের আগে আফ্রিকান ফুটবল কনফেডারেশন কর্তা এবং স্বীকৃত রেফারিদের মধ্যে একটি গোপন স্টিং অপারেশন করে বিবিসি৷ বিবিসি-র দাবি অধিকাংশ রেফারিই টাকার পরিবর্তে ম্যাচে পক্ষপাতিত্বে রাজি হয়ে যান৷ যে রেফারিদের মধ্যে স্টিং করা হয়েছিল তাঁদের মধ্যে রয়েছেন কেনিয়ার রেফারি আদিল মারোয়া৷ রাশিয়ায় ফিফা বিশ্বকাপে বেশ কয়েকটি ম্যাচ খেলানোর কথা ছিল তাঁর৷ আফ্রিকান ফুটবল কনফেডারেশনের তরফেই তাঁর নাম প্রস্তাব করা হয়েছিল৷ মারোয়ার এই স্টিং-প্রকাশ হওয়ার পরই ফুটবল-জগতে হুলস্থুল পড়ে যায়৷ প্রশ্ন উঠতে থাকে রাশিয়া বিশ্বকাপের স্বচ্ছতা নিয়ে৷ তদন্তের নির্দেশ দেয় ফিফা৷ মারোয়া অবশ্য ফুটেজ প্রকাশ্যে আসার পর নিজে থেকেই ফিফার রেফারি পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন ৷

[জানেন, বিশ্বকাপে রোনাল্ডোর প্রেরণা কারা? শুনলে আপনিও খুশি হবেন]

মারোয়া ছাড়াও স্টিং অপরেশনে নাম জড়ায় ফিফা কাউন্সিলের সদস্য কেশি ন্যান্টাক্যির৷ আফ্রিকান ফুটবলের প্রভাবশালীদের তালিকায় একেবারে প্রথম সারিতে উচ্চারিত হয় কেশির নাম৷ আফ্রিকান কনফেডারেশনের পাশাপাশি ফিফাতেও বেশ প্রভাব রয়েছে কেশির৷ স্টিং অপারেশনে তাঁর ছবি প্রকাশ পাওয়ার পরই ফিফার স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে৷ গতবছর মে মাসেই আগে দুর্নীতির অভিযোগে বিদ্ধ হয়ে পদ ছাড়তে হয়েছিল খোদ ফিফা প্রেসিডেন্ট শেপ ব্লাটার৷ সেই সঙ্গে দুর্নীতির অভিযোগ ৭ জন ফিফা আধিকারিককে গ্রেপ্তার করেছিল সুইস পুলিশ৷ ১৪ জন আধিকারিককে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল তাদের পদ থেকে৷ এই ঘটনার পরই প্রশ্ন উঠতে থাকে ফিফার স্বচ্ছতা নিয়ে৷ সদ্য প্রকাশিত স্টিং সেই প্রশ্ন আরও জোরালো করল৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে