১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  বৃহস্পতিবার ৬ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

শৌচালয়ে রাখা খেলোয়াড়দের খাবার, বিতর্ক উত্তরপ্রদেশে

Published by: Krishanu Mazumder |    Posted: September 21, 2022 12:04 pm|    Updated: September 21, 2022 12:04 pm

Food kept on toilet floor served to players during Kabaddi tournament | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শৌচালয়ের (Toilet) মেঝেতে রাখা পাত্র থেকে খাবার দেওয়া হচ্ছে কবাডি খেলোয়াড়দের (Kabaddi Players)। উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh) সাহারানপুর ভীমরাও স্টেডিয়ামের এই ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হতেই নিন্দার ঝড় উঠেছে দেশজুড়ে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, সাহারানপুরে অনূর্ধ্ব-১৭ (Under 17) মেয়েদের রাজ‌্যস্তরের কবাডি প্রতিযোগিতা চলাকালীন ঘটনাটি ঘটেছে। দুই শতাধিক কিশোরী ওই প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়। ভিডিও-তে দেখা গিয়েছে, শৌচালয়ের মধ্যে বিভিন্ন পাত্রে ভাত-সহ অন্যান্য খাবার রাখা রয়েছে। কিছু খাবার অতি সাধারণভাবে কাগজের উপর রাখা।

[আরও পড়ুন: সেরা দলগুলির ধারেকাছে আসে না ভারত! অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে হারের পরই ফেটে পড়লেন শাস্ত্রী]

শৌচালয়ের ভেতরে মূত্রত্যাগের জন্য নির্দিষ্ট স্থানের ঠিক পাশেই রয়েছে ময়দার বস্তা, তেলের কড়াই। সেখান থেকেই খাবার নিচ্ছেন খেলোয়াড়রা। এই ঘটনায় স্থানীয় জেলা ক্রীড়া আধিকারিক অনিমেষ সাক্সেনার দিকে অভিযোগের আঙুল উঠেছে। তাঁর দাবি, বৃষ্টির জন্য তড়িঘড়ি স্টেডিয়ামের সুইমিং পুলের পাশে একটি চেঞ্জিংরুমে খাবার রাখতে বাধ্য হয়েছিলেন তাঁরা। অনিমেষ সাক্সেনা বলেছেন, ”খেলোয়াড়দের যে খাবার দেওয়া হয়েছে, তার গুণমান বেশ ভাল। জায়গার অভাব, খাবার রান্না করা হয়েছে স্টেডিয়ামের পুলের কাছে। বৃষ্টির জন্য সুইমিং পুলের কাছে আমরা খাবারের ব্যবস্থা করেছিলাম। সুইমিং পুলের পাশেই রয়েছে চেঞ্জিং রুম, সেখানেই খাবার রাখা হয়েছে। স্টেডিয়াম রক্ষণাবেক্ষণের জন্য কিছু কাজ হচ্ছিল এবং বৃষ্টির জন্য অন্য কোথাও খাবার রাখার জায়গা ছিল না।”

যদিও ভিডিও থেকে স্পষ্ট, সংশ্লিষ্ট ঘরটি কোনও সাধারণ চেঞ্জিংরুম নয়, পুরুষদের শৌচালয়। অনিমেষকে সাসপেন্ড করে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন সাহারানপুরের জেলাশাসক। 

[আরও পড়ুন: বিহারের প্রাক্তন উপমুখ্যমন্ত্রীকে খুনের হুমকি দিয়ে চিঠি, কাঠগড়ায় ‘তৃণমূল নেত্রী’]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে