BREAKING NEWS

১৯  আষাঢ়  ১৪২৯  সোমবার ৪ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মোহনবাগানের আই লিগ চ্যাম্পিয়ন হওয়া আটকাতে এএফসিকে চিঠি ইস্টবেঙ্গলের

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: March 21, 2020 9:20 am|    Updated: March 21, 2020 9:20 am

I League: East Bengal mails AFC to stop declaring Mohun Bagan Champion

দুলাল দে: শতবর্ষে এখনও পর্যন্ত কোনও ট্রফি নেই। কোয়েস বনাম কর্তা চলছেই। আর এবার মোহনবাগানের আই লিগ চ‌্যাম্পিয়ন হওয়া আটকাতে অন‌্য ‘খেলা’ শুরু করে দিল ইস্টবেঙ্গল। ক্লাব সচিব কল‌্যাণ মজুমদার এএফসিকে চিঠি লেখেন। ক’দিন আগেই এএফসি মেইল করে আই লিগ চ‌্যাম্পিয়ন মোহনবাগানকে অভিনন্দন জানায়। একইসঙ্গে আইএসএল চ‌্যাম্পিয়ন এটিকে ও আইএসএলে গ্রুপ শীর্ষে থেকে চ‌্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলার যোগ‌্যতা অর্জনের জন‌্য এফসি গোয়াকে অভিনন্দন জানায় এএফসি।

শুক্রবার ইস্টবেঙ্গলের তরফ থেকে লেখা হয়, যেহেতু এখনও আই লিগ শেষ হয়নি, তাই এখনই মোহনবাগানকে যেন চ‌্যাম্পিয়ন ঘোষণা না করা হয়। লিগ টেবিলে যা পরিস্থিতি, তাতে মোহনবাগানকে কেউ ছুঁতে পারবে না। কিন্তু ইস্টবেঙ্গল বলচে, যদি মোহনবাগান বাকি ম‌্যাচগুলোর মধ‌্যে ওয়াক-ওভার দিয়ে দেয়, তাহলে? তখন নিয়মানুযায়ী পয়েন্ট কাটা হবে। তাছাড়া কেউ যদি কোন টিম যদি পুরো ম‌্যাচ না খেলে উঠে যায়, তখন তো তাঁর সব পয়েন্ট কেটে নেওয়া হতে পারে। সেই টিমকে টুর্নামেন্ট থেকে বাতিল করে দেওয়ার নিয়মও রয়েছে। তাই যতক্ষণ না লিগ শেষ হচ্ছে, ততক্ষণ মোহনবাগানকে যেন চ‌্যাম্পিয়ন ঘোষণা না করা হয়।

[আরও পড়ুন: করোনায় বাতিলের পথে আই লিগ, এপ্রিলের গোড়াতেই মোহনবাগানকে চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা]

অবশ‌্য এসব যুক্তি নিয়ে রীতিমতো হাসাহাসি চলছে ভারতীয় ফুটবল মহলে। বলা হচ্ছে, কেন ১৫ মার্চ ইস্টবেঙ্গল ডার্বি খেলতে চায়নি সেটা এই চিঠির পর পুরো পরিষ্কার হয়ে গেল। সেদিন ইস্টবেঙ্গল কর্তা দেবব্রত সরকার বলেছিলেন, তাঁরা ফাঁকা মাঠে বড় ম‌্যাচ খেলবেন না। তাই ডার্বি পিছিয়ে দেওয়া হোক। দেবব্রতবাবুর উদ্দেশ‌্য ছিল, কোনওভাবে লিগটাকে বন্ধ করে দিয়ে মোহনবাগানকে চ‌্যাম্পিয়ন হওয়া থেকে আটকে দেওয়া। কিন্তু এএফসি মেল ধরে চ‌্যাম্পিয়ন মোহনবাগানকে অভিনন্দন জানানোর পর পুরো পরিকল্পনা ঘেঁটে যায় লাল-হলুদ কর্তাদের।

এখন আবার অন‌্য পরিকল্পনা নিয়েছেন তাঁরা। শুধু এএফসি নয়, ফেডারেশন প্রধান প্রফুল্ল প‌্যাটেলকেও চিঠি দেওয়া হয়। ইস্টবেঙ্গলের তরফ থেকে বলা হয়েছে, যতক্ষণ না বাকি আই লিগের ভবিষ‌্যত ঠিক হচ্ছে, ততক্ষণ যেন মোহনবাগানকে চ‌্যাম্পিয়ন ঘোষণা না করা হয়। ফেডারেশনের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, আই লিগের বাকি
ম‌্যাচ বাতিল করতে হলে, তারপরই মোহনবাগানকে চ‌্যাম্পিয়ন করা হবে। এর বাইরে তারা কিছু বলা হবে না। এএফসির কাছে ইস্টবেঙ্গলের চিঠি প্রসঙ্গে ফেডারেশন কর্তাদের বক্তব‌্য হল, এটা এএফসির ব‌্যাপার। এআইএফএফ এটা নিয়ে কোনও মন্তব‌্য করবে না।

কিন্তু এত সব করেও যে মোহনবাগানের চ‌্যাম্পিয়ন হওয়া আটকানো যাবে না, সেটা বলে দেওয়াই যায়। সব দেখেশুনে ইস্টবেঙ্গলের এক প্রাক্তন কর্তা বলছিলেন, ‘‘আমি তো জানতাম ইস্টবেঙ্গল ক্লাব মাঠে নেমে খেলে ট্রফি জেতে। কিন্তু মাঠের বাইরে যে ‘খেলা’ শুরু হয়েছে সেটা সত‌্যিই লজ্জার।”

[আরও পড়ুন: করোনা আতঙ্কে জেরবার ফ্রান্স, ব্রাজিলে ফিরলেন পিএসজির ফুটবলার নেইমার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে