৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বৃহস্পতিবার থেকেই শুরু হচ্ছে ইগর স্টিমাচের কোচিংয়ে ভারতীয় ফুটবলের আসল পরীক্ষা। কাতার বিশ্বকাপের লক্ষ্যে সুনীল ছেত্রীর অধিনায়কত্বে ভারতীয় দল গুয়াহাটিতে নামছে ওমানের বিরুদ্ধে। 

[আরও পড়ুন: বাগানের বিরুদ্ধে সম্মানের লড়াই শংকরের, ভবানীপুর ম্যাচে ৩ পয়েন্টই লক্ষ্য ভিকুনার]

 মঙ্গলবার মাঝরাত থেকে বৃষ্টি। তাতে অবশ্য মাঠের কোনও ক্ষতি হয়নি। আইএসএলের দল নর্থ ইস্ট ইউনাইটেডের সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন বলে টিম হোটেলে এসেছিলেন প্রাক্তন জাতীয় গোলকিপার সন্দীপ নন্দী। আড্ডা দেন সুনীল, সন্দেশ জিঙ্ঘানদের সঙ্গে। স্টিফেন কনস্ট্যানটাইন কোচ থাকার সময় জাতীয় দলে যে একটা দমবন্ধ করা পরিবেশ ছিল, স্টিমাচের সময়ে অবশ্য সে সব নেই। ফলে প্রাক্তন ফুটবলাররা হোটেলে এসে বর্তমান তারকাদের সঙ্গে কথা বলতে পারেন। তবে কী আশ্চর্য, ভারতীয় ফুটবলে স্টিফেনের দ্বিতীয় ইনিংস শুরুর সময়েও প্রথম ম্যাচ ছিল ওমানের বিরুদ্ধে। আর সেটাও সেই প্রাক্‌ বিশ্বকাপে। কোনও প্রস্তুতি ম্যাচ না খেলেই সোজা ওমান ম্যাচ থেকে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছিলেন স্টিফেন। সেখানে প্রাক্‌ বিশ্বকাপের ম্যাচ শুরুর আগে কিংস কাপ আর কন্টিনেন্টাল কাপ মিলিয়ে পাঁচটা ম্যাচে কোচিং করানোর সুযোগ পেয়েছেন স্টিমাচ। বৃহস্পতিবার থেকেই শুরু হচ্ছে জাতীয় দলের আসল পরীক্ষা।  

প্রতিযোগিতার নিয়ম অনুযায়ী আটটা গ্রুপের শীর্ষ দলগুলি যাবে পরের রাউন্ডে। বাকি সেরা চারটে দলও সুযোগ পাবে পরের রাউন্ডে যাওয়ার। তবে ভারতের গ্রুপে কাতার যদি শীর্ষস্থান পায়, তাহলে নিয়ম পাল্টে পাঁচটা সেরা দ্বিতীয় দলও পরের রাউন্ডে যেতে পারে। যেহেতু সংগঠক দেশ হওয়ায় কাতার এমনিতেই এবার বিশ্বকাপে খেলবে। তাই বৃহস্পতিবারের ওমান ম্যাচটাই সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভারতীয় দলের জন্য। এই ম্যাচের উপর নির্ভর করছে পরের রাউন্ডে ভারতীয় দলের যাওয়া না যাওয়া। আর ঘরের মাঠে বৃহস্পতিবার জিততে না পারলে, ওমানে গিয়ে ওমানকে হারানো প্রায় অসম্ভব। সেটাই এদিন ফুটবলারদের বারবার বুঝিয়েছেন স্টিমাচ। ওমানের বিরুদ্ধে ভারতীয় দলের ট্র‌্যাক রেকর্ডও ভাল নয়। এখনও পর্যন্ত একটাও ম্যাচ জেতেনি তারা। 

   এতদিন ভারতীয় দলকে স্টিমাচ যা প্র‌্যাকটিস করিয়েছেন, তাতে ওমানের বিরুদ্ধে তিনি সম্ভবত খেলবেন ৪-২-৩-১ সিস্টেমে। সেক্ষেত্রে তাঁর একজন স্ট্রাইকার সুনীল ছেত্রী। তিনিই বৃহস্পতিবার দলের অধিনায়ক। এদিন সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেন, “কাতার বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জনের ম্যাচে ভাল খেলার জন্য ফুটবলাররা মুখিয়ে রয়েছে।”

[আরও পড়ুন: প্রকাশ্যে কাতার বিশ্বকাপের প্রতীক, জানেন কেন এমন দেখতে লোগোটি?]

 প্রথম ম্যাচ শুরুর আগে স্টিমাচের সমস্যা অন্য জায়গায়। অনূর্ধ্ব ১৭ বিশ্বকাপে ভারতীয় দলের অধিনায়ক অমরজিৎ সিংহ এখন সিনিয়র দলেও অটোমেটিক চয়েস। কিন্তু চোটের জন্য ওমানের বিরুদ্ধে খেলতে পারবেন না তিনি। চোটের জন্য যেমন পাওয়া যাবে না আরেক অভিজ্ঞ মিডফিল্ডার প্রণয় হালদারকেও। সেই জায়গায় অনিরুদ্ধ থাপার খেলার সম্ভাবনা বেশি। আবার অবসর নিয়ে নিলেও ফের আনাসকে জাতীয় দলে ডেকে এনেছেন স্টিমাচ। অবসর  ভেঙে ওমান ম্যাচ থেকে হয়তো ফের ইনিংস শুরু করতে চলেছেন তিনি। বাদ পড়ার হালকা সম্ভাবনা রয়েছে প্রীতম কোটালের। রাইটব্যাকে প্রীতম না রাহুল ভেকে, এখনও ঠিক করে উঠতে পারেননি জাতীয় কোচ।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং