BREAKING NEWS

৪ মাঘ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ১৮ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

ISL 2021: ‘শুরুতেই ৩ গোল পেয়ে টিম হালকা দিয়ে দিল’, ডার্বি জয়ের পর বলছেন সবুজ-মেরুন কোচ হাবাস

Published by: Sulaya Singha |    Posted: November 28, 2021 10:23 am|    Updated: November 28, 2021 10:23 am

ISL 2021 Derby: ATK Mohun Bagan coach Habas is happy with team's performance | Sangbad Pratidin

ফাইল ছবি

দুলাল দে: তিনি বরাবরই এরকম। যাবতীয় উত্তেজনা মাঠেই। ম্যাচ শেষ হওয়া মাত্র এক এক করে রয় কৃষ্ণ, প্রীতম কোটালদের জড়িয়ে ধরলেন। ব্যস, এটুকুই। ম্যাচের পর টিম বাসে কিংবা হোটেলে ফিরে ডার্বি নিয়ে ফুটবলারদের একটা কথাও বললেন না। ফুটবলারদের শুধু জানালেন, “আজ তোমরা ক্লান্ত। সবকিছুর থেকে মনকে দূরে সরিয়ে তাড়াতাড়ি রিকভারি করো। ম্যাচ নিয়ে যা ভুলভ্রান্তি হয়েছে সব রবিবার বলব।”

ডার্বি নিয়ে হাবাসের এই নিস্পৃহতার পর স্বাভাবিকভাবেই ফুটবলাররাও এরকম একপেশে ডার্বি জয়ের পরও আর নাচানাচি করেননি। যেন আইএসএলে এসসি ইস্টবেঙ্গলকে (SC East Bengal) হারানোটা জলভাত হয়ে গিয়েছে। বরং তাঁদের লক্ষ্য আরও বড়। ফুটবলাররা বলছিলেন, “আমরা কেউ ডার্বি জয় নিয়ে ভাবছি না। ভাবছি আইএসএল (ISL 2021-22) জয় নিয়ে।”

২৩ মিনিটে তিন গোল। আরও একটু সচেষ্ট হলে কি ৫-০-এর রেকর্ডটা ভেঙে ফেলা যেত না? হাবাস বললেন, “প্রথম চল্লিশ মিনিটে আক্রমণের ঝড় বইয়ে দিয়েছি আমরা। সেই সময়ের মধ্যেই তিন গোল। এরপর গোল সংখ্যা না বাড়ার কারণ বুঝতে পারছিলাম। আসলে শুরুতেই তিন গোল হয়ে যাওয়ার পর ফুটবলাররা মানসিকভাবে হয়তো কোথাও সন্তুষ্ট হয়ে পড়েছিল। তবে বিশ্বাস করুন, ম্যাচের ফল তিন গোলের বেশি না হওয়াতেও আমার কোনও দুঃখ নেই। বরং আমি খুশি। কারণ আমার কাছে বেশি গুরুত্বপূর্ণ ছিল তিন পয়েন্ট পাওয়া। দুটো ম্যাচ খেলে আমাদের হাতে ছয় পয়েন্ট। তার উপর প্রথম ম্যাচে গোল খেলেও এদিন একটাও গোল খাইনি। ফলে সবদিক থেকেই ম্যাচের পর আমি খুশি এবং আনন্দিত। ফুটবলাররা যেভাবে পুরো খেলাটা নিয়ন্ত্রণ করেছে তাতে এই দলটার কোচ হিসাবে গর্ববোধ করছি।”

[আরও পড়ুন: India vs New Zealand: চোটের গেরো, ঋদ্ধিমানের আন্তর্জাতিক কেরিয়ার কি শেষের পথে?]

হুগো বুমোস যোগ দেওয়াতেই কি পুরো দলের খেলার স্টাইলটা বদলে গিয়েছে? সঙ্গে সঙ্গে আপত্তি জানিয়ে হাবাস বললেন, “প্লিজ, আমাকে কোনও একজন ফুটবলারের পারফরম্যান্স নিয়ে কিছু বলতে বলবেন না।”

উলটোদিকে তিন গোলে বিধ্বস্ত হওয়ার পর ভেঙে পড়েছে লাল-হলুদ শিবির। দলের কোচ হোসে ম্যানুয়েল দিয়াজ স্বীকার করে নেন, প্রতিপক্ষ হিসাবে এটিকে মোহনবাগান (ATK Mohun Bagan) যথেষ্ট শক্তিশালী দল। যে কারণে তিনি মনে করছেন, নিজেদের পরিকল্পনাগুলো ঠিকঠাক কাজে লাগেনি। বলছিলেন, “লিগের এটাই শেষ ম্যাচ নয়। এমনকী, এটিকে মোহনবাগানের সঙ্গেও আবার খেলার সুযোগ পাব।”

কিন্তু তা বলে শুরুতেই তিন গোল? দিয়াজ বললেন, “আসলে ছোট ছোট ভুলগুলোর জন্য বড় খেসারত দিতে হল। ওদের ফুটবলাররা সত্যিই খুব ভাল। একটা হাফ চান্সকে ওরা ফুল চান্স করে দিয়েছে। এগুলোই তো একটা ম্যাচ বদলে যাওয়ার আসল কারণ।”

[আরও পড়ুন: Qatar World Cup: কাতার বিশ্বকাপে হয় ইটালি, নাহলে রোনাল্ডোর পর্তুগাল! দ্বিধাবিভক্ত ফুটবল দুনিয়া]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে