২২ আষাঢ়  ১৪২৭  মঙ্গলবার ৭ জুলাই ২০২০ 

Advertisement

নতুন করে মাইনে কাটা নিয়ে ফুটবলারদের মধ্যে ক্ষোভ বাড়ছে বার্সেলোনা ক্লাবে

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: June 4, 2020 9:55 pm|    Updated: June 4, 2020 9:55 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: একে তো টিমের পাঁচ ফুটবলারের করোনা ধরা পড়া নিয়ে তীব্র জল্পনা। তার পর আবার নতুন করে বার্সা ফুটবলারদের মাইনে কাটার সিদ্ধান্ত। যা নিয়ে কিছুটা অসন্তোষ তৈরি হয়েছে বার্সার ফুটবলারমহলে।

গত মার্চে বার্সেলোনা (FC Barcelona) ফুটবলারদের সবার প্রায় সত্তর শতাংশ বেতন কেটে নেওয়া হয়েছিল। তখনকার মতো ফুটবলাররা নিমরাজি হয়েছিলেন করোনা প্রকোপে বিশ্বজুড়ে লকডাউনের কথা ভেবে। কিন্তু বার্সেলোনা প্রেসিডেন্ট জোসেপ মারিয়া বার্তেমেউ নতুন করে বেতন কাটার কথা ঘোষণা করেছেন বলে খবর হয়েছে স্পেনীয় মিডিয়ায়। এক কাতালান রেডিওর খবর বিশ্বাস করলে গত ২৩ মে নতুন নির্দেশিকা জারি করেছেন বার্তেমেউ। তিনি নাকি ক্লাবের ফুটবলারদের জানিয়ে দিয়েছেন যে, চারদিকের যা আর্থিক অবস্থা তাতে সত্তর শতাংশ বেতন কাটার পরেও সামলানো সম্ভব হচ্ছে না। বরং ফুটবলারদের কাছে আরও বেশি উদারতা দেখতে চাইছেন ক্লাব প্রেসিডেন্ট।

[আরও পড়ুন: বিশ্বে সংক্রমণে দুইয়ে ব্রাজিল, তবু অর্থনীতি বাঁচাতে ফুটবল শুরু করতে চান প্রেসিডেন্ট]

ফুটবলাররা এখনও সরকারি উত্তর দেননি। কিন্তু খবর অনুযায়ী, ক্লাব প্রেসিডেন্টের এ হেন নতুন ফরমানে তাঁরা নাকি বেশ বিরক্ত। এঁদের বক্তব্য হল, লা লিগা শুরু হয়ে যাচ্ছে। করোনা আতঙ্ককে সঙ্গে নিয়েই মাঠে নামতে হবে ফুটবলারদের। অথচ তাঁদের মাইনে কেটে নেওয়া হচ্ছে। একবার নয়, এ নিয়ে দু’বার। এমনও নয় যে, ক্লাবের কোনও কিছু বন্ধ। অফিস রিক্রুটমেন্ট থেকে শুরু করে সব কিছু চলছে। তা হলে নতুন এ হেন ফতোয়া কেন? এটাও শোনা যাচ্ছে যে, বেতন কাটার প্রভাব দ্বিতীয় পর্বে সাপোর্ট স্টাফদের উপরেও পড়তে চলেছে। বলা হচ্ছে, প্লেয়ারদের বেতন কাটা নিয়ে সবচেয়ে অখুশি ছিলেন লিওনেল মেসি স্বয়ং। নতুন উদ্ভুত পরিস্থিতিতে তিনি কী করেন, সেটাই এখন দেখার।

এদিকে, আগামী ১৩ জুন আবার মাঠে নামছে বার্সেলোনা। প্রতিপক্ষের নাম মায়োরকা (Rela Mallorca)। তবে শীর্ষে টিকে থাকার লড়াইয়ের আগে বার্সা শিবির জুড়ে শুধুই টেনশনের চোরাস্রোত। চিন্তার কারণ দলের ফুটবল-ঈশ্বর লিওনেল মেসি (Lionel Messi)। যিনি লা লিগার প্রত্যাবর্তনের আগে চোটের সমস্যায় ভুগছেন। শোনা যাচ্ছে, গত মঙ্গলবারের ট্রেনিং সেশনের পর হঠাৎই ডান পায়ের পেশিতে ব্যথা অনুভব করেন মেসি। এমআরআই করার পরে জানা যায় মেসির পেশিতে সামান্য চিড় ধরেছে। অন্তত দশ দিন লাগবে মেসির সুস্থ হতে। ফলে প্রশ্ন উঠে গিয়েছে মায়োরকার বিরুদ্ধে বার্সার হয়ে মাঠে নামতে পারবেন‌ তো দলের সেরা প্রতিভা? বুধবার মেসিকে গ্রুপের সঙ্গে অনুশীলন করতে দেওয়া হয়নি যাতে চোট আরও গুরুতর দিকে না যায়।

[আরও পড়ুন: ১৭ জুন মাঠে গড়াবে বল, একাধিক নির্দেশিকা মানতে হবে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলিকে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement