BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২২ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

আজুরিদের দাপটে বেসামাল গতবারের চ্যাম্পিয়নরা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 28, 2016 12:27 am|    Updated: June 28, 2016 12:27 am

An Images

ইতালি – ২ (চিয়েলিনি, পেলে)

স্পেন – ০

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সাদা জার্সিটা সত্যিই স্পেনের কাছে অপয়া৷ এই রঙের জার্সি গায়েই ১৯৯৪ বিশ্বকাপে ইতালির কাছে হারতে হয়েছিল৷ ২০০৪ ইউরোতে আবার পর্তুগাল পরাস্ত করেছিল স্পেনকে৷ তাই সোমবার ইতালির বিরুদ্ধে কিছুতেই সাদা জার্সি পরতে রাজি হচ্ছিলেন না ইনিয়েস্তারা৷ অনিচ্ছা সত্ত্বেও নির্দেশ মেনে গায়ে চাপাতেই হল৷ ব্যস, যা হওয়ার তাই হল৷ গতবারের চ্যাম্পিয়নদের হাত খালি করে এক্কেবারে ইউরোর বাইরে করে দিল আজুরিরা৷

Cl-J9GyXEAABrRG

তবে শুধুই কুসংস্কারের দোহাই দিয়ে পার পাওয়া যাবে না৷ হাইভোল্টেজ ম্যাচে ইতালি যে ফুটবল প্রদর্শন করল তাতে তারা না জিতলেই বেশি অবাক লাগত৷ কন্তের ছেলেদের দু’টো বিষয় নিয়েই চিন্তিত ছিল স্প্যানিশ শিবির৷ টাফ ডিফেন্স আর কাউন্টার অ্যাটাক৷ ইতালির রক্ষণভাগ এদিন কেমন খেলল, তা স্কোরবোর্ড দেখেই অনেকখানি আন্দাজ করে নেওয়া যায়৷ আজুরি ডিফেন্ডার চিয়েলিনির উপর দায়িত্ব ছিল মোরাতাকে ব্লক করে রাখার৷ তিনি শুধু সেই দায়িত্বই পালন করলেন না৷ নির্ধারিত সময় পর্যন্ত তাঁর গোলেই এগিয়ে থাকল দল৷ তাঁর গোলেই যে শেষ আটের টিকিট পাকা হয়ে গিয়েছিল, তা বললে একেবারেই বাড়িয়ে বলা হবে না৷ এডেরের ফ্রি-কিক শট ডি গিয়া আটকে দিলেও ক্লিয়ার করতে পারেননি৷ সেই সুযোগেই বল জালে পাঠিয়ে দেন চিয়েলিনি৷ শেষ পাতে মিষ্টির মতো এল পেলের গোলটা৷ এই গোলটা হল ইতালির চিরাচরিত বিখ্যাত প্রতি আক্রমণ থেকেই৷ বাঁ-দিক থেকে ক্রস ডিফ্লেকশনে পৌঁছল পেলের পায়ে৷ তিনি গোল করতে কোনও ভুল করেননি৷ আর তাতেই কোয়ার্টারে পৌঁছনোর আনন্দটা দ্বিগুণ হয়ে গেল৷

Cl-HoTbWEAAnS6X

সোমবার সকালে ইতিহাসের পুনরাবৃত্তি দেখেছিল ফুটবল বিশ্ব৷ কোপার ফাইনালে চিলিকে হারিয়ে বদলা নিতে পারেনি আর্জেন্টিনা৷ রাতেও ছিল আরেকটা বদলার ম্যাচ৷ গত ইউরোতে দেল বস্কের ছেলেদের কাছে হেরেই ট্রফি হাতছাড়া হয়েছিল ইতালির৷ বদলা নিয়ে বাজিমাত করল বুঁফো অ্যান্ড কোম্পানি৷ দ্বিতীয়ার্ধে পিকের গোলমুখি শট সেভ করে এক্সট্রা টাইমে খেলা গড়াতে দেননি বুঁফো৷ কোথায় পিছিয়ে পড়ল স্পেন? তিকি-তাকায় আটকে পড়া স্প্যানিশদের সমস্ত মুভ আর স্ট্র্যাটেজি যেন আগেভাগেই জেনে যাচ্ছে বিপক্ষ৷ আর সেটাই বিপদ ডেকে আনছে৷ তিকি-তাকার গণ্ডি না পেরোলে এই স্পেনকে ভবিষ্যতে পদে পদে ঠোক্কর খেতে হতে পারে৷

চলতি ইউরোয় একটা ফেভরিট দলকে হারালেন দর্শকরা৷ তবে আরও একটা হাড্ডাহাড্ডি ম্যাচ উপহার পাওয়া গেল৷ কারণ শেষ আটে ইতালিকে খেলতে হবে জার্মানির বিরুদ্ধে৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement