৩০ আশ্বিন  ১৪২৮  রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

চোখের জলে উইম্বলডনকে বিদায় সেরেনার, ‘ভয়ে’র অভিজ্ঞতা জানালেন ফেডেরার

Published by: Sulaya Singha |    Posted: June 30, 2021 1:44 pm|    Updated: July 1, 2021 2:24 pm

Wimbledon 2021: Serena Williams retires injured from first round | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ক্রীড়াবিদদের জীবনের সবচেয়ে বড় ভয় নিঃসন্দেহে চোট-আঘাত। একটা চোট অতর্কিতে এসে নিমেষে শেষ করে দিতে পারে খেলোয়াড়ের কেরিয়ার। ভাঙতে পারে দীর্ঘদিনের স্বপ্ন। মঙ্গলবারের উইম্বলডন (Wimbledon 2021) যেন তেমনই জোড়া দৃশ্যের সাক্ষী রইল। চোট পেয়ে প্রথম রাউন্ডেই বিদায় নিতে হল সেরেনা উইলিয়ামসকে। চোখের জলে ভাসলেন মার্কিন তারকা। আবার রজার ফেডেরারের বিপক্ষে খেলতে নেমে হাঁটুতে চোট পাওয়ায় মাঝপথেই কোর্ট ছাড়লেন ফরাসি তারকা অ্যাড্রিয়ান মানারিনো। জোড়া দুর্ঘটনায় মন খারাপ টেনিসপ্রেমীদের।

তাঁর ঝুলিতে ২৩টি গ্র্যান্ড স্লাম খেতাব। যার মধ্যে সাতটিই উইম্বলডনের। অথচ চোটের কারণে সেই সেরেনাকেই (Serena Williams) প্রথম রাউন্ড থেকে ছিটকে যেতে হল। কারণ খেলার মঞ্চে কোনও রিটেক হয় না। তাই ফের এই কোর্টে নামতে অপেক্ষা করতে হবে গোটা একটা বছর। কিন্তু ৪০ বছর বয়সে ফিরে আসা তো আর মুখের কথা নয়। তাই উইম্বলডনে অষ্টম খেতাব জয়ের স্বপ্ন যেন অধরাই থেকে যাবে তাঁর। টুর্নামেন্টের যষ্ঠ বাছাই সেরেনা মঙ্গলবার মুখোমুখি হয়েছিলেন বেলারুশের আলিয়াকসান্দ্রা সাসনোভিচের। প্রথম সেটের বয়স তখন ৩-২। ঠিক তখনই পা পিছলে পড়ে গোড়ালিতে চোট পান সেরেনা। বুঝতে পারেন উঠে দাঁড়িয়ে খেলা চালিয়ে যাওয়া আর সম্ভব নয় তাঁর পক্ষে। চোখের জল ধরে রাখতে পারেননি তিনি। কাঁদতে কাঁদতে কোর্ট ছাড়েন ৩৯ বছরের তারকা।

[আরও পড়ুন: Euro 2020: ১০ জনের সুইডেনকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে শেভচেঙ্কোর ইউক্রেন]

২০১৬ সালে শেষবার উইম্বলডনে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিলেন বিশ্বের প্রাক্তন এক নম্বর সেরেনা। ২০১৮ ও ২০১৯ সালে হয়েছিলেন রানার-আপ। গতবছর তো করোনার জেরে বাতিলই হয়ে যায় টুর্নামেন্ট। এবার তাই মার্কিন তারকার পারফরম্যান্স দেখার অপেক্ষায় ছিলেন ভক্তরা। কিন্তু অদৃষ্টের পরিহাসে শুরুতেই বিদায় নিলেন তিনি।

এদিকে, একই দিনে ঘটল আরও একটি দুর্ঘটনা। হাঁটুতে চোট পেয়ে ম্যাচ শেষ হওয়ার আগেই কোর্ট ছাড়েন ফরাসি তারকা অ্যাড্রিয়ান। যিনি নেমেছিলেন ফেডেরারের (Roger Federer) বিরুদ্ধে। চারটি সেটের পরই চোট পান অ্যাড্রিয়ান। ফলে দ্বিতীয় রাউন্ডে পৌঁছে যান রজার। তবে প্রতিপক্ষের চোট দেখে ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন তিনিও। ম্যাচ শেষে বলেন, “একটা চোট খেলোয়াড়ের একটা ম্যাচ, একটা মরশুম এমনকী গোটা কেরিয়ারও শেষ করে দিতে পারে। সত্যিই খুব বেদনাদায়ক। আশা করি, ও দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবে।” এরপরই যোগ করেন, “ও খুব ভাল খেলোয়াড়। হয়তো জিতেই যেত। আমি খানিকটা সৌভাগ্যবানই বলা চলে।”

[আরও পড়ুন: পরিশ্রমের স্বীকৃতি, খেলরত্ন পুরস্কারের জন্য দ্যুতি চাঁদকে মনোনীত করল ওড়িশা সরকার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement