BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মন্দারমণির সমুদ্র সৈকতে বেপরোয়া ড্রাইভিং, মৃত ৩ ছাত্র

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: August 21, 2016 5:33 pm|    Updated: August 21, 2016 5:39 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মন্দারমণির সমুদ্রসৈকতে ফের গাড়ি দুর্ঘটনায় পর্যটকদের মৃত্যু। রবিবার ভোরবেলায় দুই গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত কলকাতার ৩ কলেজ ছাত্র, আহত অন্তত ৫৷ তাঁদের মধ্যে একজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক, স্থানীয় হাসপাতালে তাঁর চিকিৎসা চলছে৷

দুর্ঘটনায় মৃতরা প্রত্যেকেই কলকাতার বাসিন্দা বলে জানা গিয়েছে৷ পুলিশ সূত্রে খবর, মৃত তিন ছাত্রের নাম বৈভব রজনিশ, সুরজ দাশগুপ্ত ও শিবরাজ নস্কর। এঁদের মধ্যে বৈভবের বাড়ি রাজারহাট-নিউ টাউনে। বেলেঘাটার বাসিন্দা শিবরাজ নস্কর। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সানা সি বিচের কাছে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও ভোরবেলা সমুদ্র সৈকতে একটি ফোর্ড গাড়ি নিয়ে বেরোয় ওই ছাত্ররা। তিন ছাত্রই মদ্যপ অবস্থায় ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ৷ বিচে আরেকটি বিএমডব্লিউ গাড়ি আচমকাই সামনে এসে পড়লে মুখোমুখি সংঘর্ষে মৃত্যু তাঁদের। মন্দারমণি কোস্টাল থানার পুলিশ দেহ উদ্ধার করে কাঁথি হাসপাতালে পাঠায়। মৃতদের গাড়ি থেকে মদের বোতল ও গাঁজা মিলেছে বলে সূত্রের খবর৷

নিষেধাজ্ঞাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে বারবার একই ঘটনা ঘটায় পুলিশের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। চলতি বছরের মে মাসে বিচে বেপরোয়া গাড়ি চালিয়ে প্রাণ হারান এক যুবক। আহত হয় ২ শিশু। পাশাপাশি, ২০১৫ সালে প্যারাগ্লাইডিং করতে গিয়ে মৃত্যু হয় এক পর্যটকের। তারপরেও হুঁশ ফেরেনি কোস্টাল পুলিসের। নিষেধ সত্ত্বেও গাড়ি নামছে বিচে। চলছে বেপরোয়া গাড়ি চালানোর প্রতিযোগিতা। স্বাভাবিকভাবেই কোস্টাল গার্ডের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। এমনিতেই নিম্নচাপের জেরে ভারী বৃষ্টি গোটা দক্ষিণবঙ্গে৷ সমুদ্র উপকূলেও জারি রয়েছে কড়া সর্তকতা৷ নজরদারি রয়েছে দিঘা, মন্দারমণি, শঙ্করপুরে৷ সেই অবস্থায় কীভাবে পুলিশে নজর এড়িয়ে ছাত্ররা বিচে গাড়ি নিয়ে নামল, তা নিয়েই উঠছে প্রশ্ন৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement