BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

এক ডজন ‘অ্যাপ’ ব্যবহার করে মগজধোলাই করছে আইএস

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: July 9, 2016 1:11 pm|    Updated: July 9, 2016 1:11 pm

An Images

অর্ণব আইচ: একটি বা দু’টি নয়৷ একসঙ্গে এক ডজন ‘অ্যাপ’ ব্যবহার করে বাজিমাতের চেষ্টা আইএস-এর৷ গোয়েন্দারা জেনেছেন, অন্তত ১২টি ‘অ্যাপ’ ব্যবহার করে নিজেদের মধ্যে যোগাযোগের চেষ্টা চালাচ্ছে আইএস-এর মাথারা৷ বহু ‘অ্যাপ’-এর উপর নজরদারি রাখাও সমস্যা হচ্ছে গোয়েন্দাদের পক্ষে৷
সম্প্রতি এই রাজ্য থেকে ধৃত আইএস জঙ্গি মুসাকে জেরা করে জানা গিয়েছে, সে একটি ‘অ্যাপ’-এর মাধ্যমে সিরিয়ার আইএস নেতা সফি আরমারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখত৷ কিন্তু গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন, আরও বেশ কয়েকটি অ্যাপ ব্যবহার করছে আইএস৷ আপাতত যেগুলির সন্ধান মিলেছে, সেগুলি হচ্ছে টক রে, গ্রুপ মি, ট্রিলিয়ন, ট্যাঙ্গো, লাইভ, কেআইকে (কিক), ভক্সার, নিমবাজ, ভাইবার, কাকাও, হাইক, আইএমপ্লাস৷ আপাতনিরীহ ওই অ্যাপগুলির মাধ্যমে যেমন মেসেজ চ্যাট করা যায়, তেমনই প্রয়োজনে কথাও বলা যায়৷ সেই সুযোগ নিচ্ছে জঙ্গি সংগঠনও৷ মুসা যে অ্যাপের মাধ্যমে সফি আরমারের সঙ্গে যোগাযোগ রাখত, সেই অ্যাপ সংস্থার সঙ্গে যোগাযোগ করে গোয়েন্দারা জানতে পেরেছেন যে, তাদের সার্ভারে সাধারণত কোনও রেকর্ড রাখা হয় না৷ সেই কারণে মুসা সিরিয়ায় সফির সঙ্গে যোগাযোগ করা ছাড়াও তার নেটওয়ার্কের আরও কাদের সঙ্গে যোগযোগ করছে, তা নিয়ে এখনও ধন্দে সিআইডি৷
কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা জানিয়েছেন, আইএস নেতারা বিদেশে বসে এই দেশর কোন তরুণ বা যুবকের সঙ্গে যোগাযোগ রাখছে, তা জানতেই বিভিন্ন্ সোশ্যাল মিডিয়া ও সোশ্যাল নেটওয়ার্কের উপর নজরদারি শুরু হয়৷ তখনই গোয়েন্দাদের নজরে আসে এই বারোটি ‘অ্যাপ’৷ এতগুলি ‘অ্যাপ’ ও ফেসবুক, টুইটার ব্যবহার করে যে এই রাজ্যেরই শতাধিক তরুণ ও যুবক বিভিন্নভাবে আইএস-এর সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে শুরু করেছে, তা জানতে পারেন গোয়েন্দারা৷ কিন্তু অনেক ক্ষেত্রেই ওই ‘অ্যাপ’গুলির উপর গোয়েন্দাদের নজর কঠিন হয়ে দাঁড়ায়৷ কয়েকটি অ্যাপের ক্ষেত্রে যারা ব্যবহার করে, তাদের নিজস্ব পাসওয়ার্ড থাকে৷ এ ছাড়াও আইএস মগজধোলাই করেছে, এমন কয়েকজন ছাত্র নিজেদের মধ্যে গ্রুপ বানিয়ে জেহাদি আলোচনা চালাচ্ছে, এমন প্রমাণও পেয়েছেন গোয়েন্দারা৷ ওই ছাত্ররা আবার আইএস নেতাদের সঙ্গেও যোগাযোগ রাখছে বলে জানা গিয়েছে৷ এই ধরনের একাধিক অ্যাপ ব্যবহার করে মুসা বিভিন্ন ছদ্মনামে এই রাজ্যের তরুণ ও যুবকদের সঙ্গে যোগাযোগ করত বলে সন্দেহ গোয়েন্দাদের৷ আবার সিরিয়া থেকেও সফি আরমার বা বড়া সাজিদের মতো প্রাক্তন ইন্ডিয়ান মুজাহিদিনের জঙ্গি ও এখনকার আইএস নেতারা এই অ্যাপগুলির মাধ্যমে মগজধোলাই চালিয়ে যাচ্ছে বলে খবর গোয়েন্দাদের কাছে৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement