BREAKING NEWS

১৮ শ্রাবণ  ১৪২৭  সোমবার ৩ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

দুষ্প্রাপ্য হিমালয়ান ভায়াগ্রা খুঁজতে গিয়ে নেপালে মৃত এক শিশু-সহ ৮

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: June 7, 2019 1:48 pm|    Updated: June 7, 2019 1:48 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিরল প্রজাতির হিমালয়ান ভায়াগ্রা খুঁজতে গিয়ে মৃত্যু হল একটি শিশু-সহ আটজনের। ঘটনাটি ঘটেছে নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে ৬০০ কিলোমিটার উত্তর-পশ্চিমদিকে অবস্থিত ডোলপা জেলায়।

[আরও পড়ুন- অনাথ শিশুদের পেটপুরে খাইয়ে স্নাতক হওয়ার সাফল্য উদযাপন মার্কিন যুবতীর]

ডোলপা-র জেলা প্রশাসন সূত্রে জানানো হয়, বৃহস্পতিবার জঙ্গলের বিভিন্ন জায়গা থেকে মোট আটটি মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। সেগুলির ময়নাতদন্তের পর জানা গিয়েছে, এদের মধ্যে পাঁচজন উচ্চতাজনিত শ্বাসকষ্টের জন্য মারা গেছেন। আর দু’জনের মৃত্যু হয়েছে খাদে পড়ে। এছাড়া মায়ের সঙ্গে ভায়াগ্রা খুঁজতে গিয়ে শ্বাসকষ্টজনিত কারণে মারা গিয়েছে একটি শিশুও। এখানে জন্ম নেওয়া ইয়ার্সা গুম্বা নামে পরিচিত দুষ্প্রাপ্য হিমালয়ান ভায়াগ্রাটির বিদেশে প্রচুর চাহিদা আছে। তাই স্থানীয় বাসিন্দারা প্রায়শই উচুঁ জায়গায় থাকা জঙ্গলে ভেষজ এই ছত্রাকটির সন্ধানে ঢুকে পড়েন।

প্রাকৃতিক এই ভায়াগ্রাকে সবথেকে দামি জৈব পণ্য বলে দাবি করা হয়েছে মার্কিন জার্নাল ‘ন্যাশনাল অ্যাকাডেমি অফ সায়েন্সেস’-র প্রতিবেদনে। স্থানীয় ভাষায় ‘কিরা জরি’ নামে পরিচিত এই ছত্রাকটি গরম জল, চা, স্যুপ অথবা স্টু-এর সঙ্গে মিশিয়ে খেলে নাকি সারতে পারে ক্যানসার থেকে বন্ধ্যাত্ব। পাশাপাশি এটি যৌবন দীর্ঘস্থায়ী করে বলেও অনেকের বিশ্বাস।

[আরও পড়ুন- সভ্যতার অভিশাপ! এভারেস্টে স্বচ্ছতা অভিযানে উদ্ধার ১১ হাজার কেজি জঞ্জাল]

বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, দুর্লভ ভেষজ গুণসম্পন্ন ছত্রাকটি জন্মায় সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে অন্তত ১১,৫০০ ফুট উঁচু জায়গায় থাকা উপত্যকায়। সেখানকার তাপমাত্রা শূন্য ডিগ্রির নিচে হলেও মাটিতে বরফ থাকে না। সারা পৃথিবীতে পাওয়া যায় শুধু ভারত, চিন ও নেপালে। বিশ্বজুড়ে এই ভায়াগ্রার চাহিদা এতটাই বেশি যে এশিয়া ও আমেরিকায় ১ গ্রাম বিক্রি হয় একশো আমেরিকান ডলারে। এর জন্য গরম পড়লেই বিভিন্ন জায়গার মানুষ এসে ডোলপার পার্বত্য অঞ্চলে দুষ্প্রাপ্য এই ভায়াগ্রার সন্ধান করেন। তাঁদের স্বাস্থ্য পরিষেবা-সহ বিভিন্ন সাহায্য দিতে জেলার বিভিন্ন জায়গায় ৭০টির বেশি ক্যাম্পও খুলেছে প্রশাসন।

শুক্রবার জেলা প্রশাসনের এক আধিকারিক জানান, বাজারে চড়া দামে বিক্রি করার জন্য স্থানীয়রা হিমালয়ের দুর্গম এলাকায় ঢুকে প্রচুর পরিমাণে কিরা জরি তুলছেন। সেই কারণেই বিপত্তি ঘটেছে। মৃত্যু হয়েছে আটজনের।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement