৭ শ্রাবণ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২৩ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৭ শ্রাবণ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২৩ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: শুক্রবার মধ্যরাতে একটি বিরল দৃশ্যের সাক্ষী থাকতে চলেছে পৃথিবী। একবিংশ শতাব্দীর দীর্ঘতম চন্দ্রগ্রহণ হতে চলেছে আজ। একটানা ১ ঘণ্টা ৪৫ মিনিট দেখা যাবে এই গ্রহণ। আকাশ পরিষ্কার থাকলে ভারতের প্রায় সব জায়গার বাসিন্দারাই এই বিরল দৃশ্য দেখতে পাবেন। উত্তর আমেরিকা মহাদেশ ছাড়া গোটা পৃথিবী থেকেই দেখা যাবে
চন্দ্রগ্রহণ। শুধু তাই নয়, আজ চাঁদের রং হতে চলেছে টকটকে লাল।

এদিন পৃথিবীর সঙ্গে সূর্যের দূরত্ব হবে সর্বোচ্চ, আর চাঁদের সঙ্গে পৃথিবীর দূরত্বও হবে সর্বোচ্চ। এবং এক্কেবারে পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে এক সারিতে চলে আসবে পৃথিবী, সূর্য এবং চাঁদ। পৃথিবী সূর্যের আলোকে পুরোপুরি আড়াল করবে। আর সেই ছায়াই পড়বে চাঁদে। সূর্য-পৃথিবী-চাঁদ পুরোপুরি এক সারিতে চলে আসার এই ঘটনা শতাব্দীতে একবারই হয়। বিজ্ঞানীরা জানাচ্ছেন, এবারের চন্দ্রগ্রহণ হতে চলেছে প্রায় ১০৫ মিনিট ধরে। এর আগে ২০১১ সালে ১৫ জুন ১০০ মিনিট ধরে চন্দ্রগ্রহণ হয়েছিল। তাই এই শতকের সেটাই ছিল দীর্ঘতম চন্দ্রগ্রহণ।

[রেস্তরাঁয় জন্ম, শিশুকন্যাকে আজীবন বিনামূল্যে খাবার দেওয়ার ঘোষণা কর্তৃপক্ষের]

শুক্রবার রাত ১১.৫৪ মিনিট থেকে গ্রহণ শুরু হবে। চলবে রাত ১টা পর্যন্ত। আবার গভীররাত ২ টো ৪৩ মিনিটে দ্বিতীয়বার আংশিক গ্রহণ লাগবে। চন্দ্রগ্রহণ নিয়ে সাধারণ মানুষের কিছু মিথ ও কুসংস্কার রয়েছে। এই সময়টা নানা আচার-রীতি মেনে চলেন অনেকেই। এই সময়কালে অনেকেই অনেক খাবারে হাত দেন না। তবে আয়ুর্বেদ বিশেষজ্ঞ রাম এন কুমার জানাচ্ছেন, এসব কুসংস্কার মাত্র। আসলে বাস্তবে এমন কোনও নিয়ম নেই। খাওয়া-দাওয়া না করা এবং বাধ্যতামূলভাবে স্নান করার ধারণা একান্তই ভ্রান্ত। কেবলমাত্র মাঙ্গলিক কোনও কাজ না করার উপদেশ দিচ্ছেন এই বিশেষজ্ঞ। কিন্তু কেন এমন কুসংস্কারে বিশ্বাস মানুষের?

এর বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা হল, গ্রহণের সময় পৃথিবীর অনেক কাছে চলে আসে চাঁদ। যাতে জলে ইলেট্রো-ম্যাগনেটিক ওয়েভ বা তড়িৎ -চুম্বকীয় তরঙ্গের সৃষ্টি হয়। আর আমাদের দেহে ৭২ শতাংশই জল। তাই শরীরেও নানা পরিবর্তন আসে। আর সেই সময় অতিরিক্ত খাবার খেলে পেট খারাপের সম্ভাবনা থাকে। তাই অনেকে খাবার খান না। তবে হালকা খাবার খেতে কোনও বাধা নেই বলেই জানাচ্ছেন গবেষকরা।

[ডোকলামে ফের তৎপর হচ্ছে চিন, মার্কিন রিপোর্টেও উদাসীন নয়াদিল্লি]

যদিও জ্যোতিষ মতে এই নিয়মগুলি মেনে চলার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে:
গ্রহণের দু’ঘণ্টা আগে থেকে খাবার খাওয়া বন্ধ।
গ্রহণের আগে এবং পরে হালকা খাবার খান। খাবারে হলুদ দেওয়া থাকলে তা জীবাণুকে দূরে রাখে। আমিষ খাবার হজমে সমস্যা হতে পারে। তাই এ সময় তা এড়িয়ে চলাই শ্রেয়।
গ্রহণের আগে রান্না করা খাবার নিয়ে কোথাও যাবেন না। কারণ গ্রহণের সময় ক্ষতিকর রশ্মি খাবারে ঢুকে তার ক্ষতি করে।
বয়স্ক এবং অন্তঃসত্ত্বারা এই সময় খেয়ে থাকেন। সেক্ষেত্রে হালকা খাবার ও ফলমূল খাওয়াই ভাল। এতে এনার্জি বাড়ে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং