BREAKING NEWS

১৫ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

OMG! মাত্র চার বছর বয়সেই ঋতুচক্র শুরু হয়েছে এই শিশুকন্যার!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: October 12, 2017 12:25 pm|    Updated: October 13, 2017 8:22 am

Bizarre! Australian girl started menstruating at four

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  মহিলাদের ঋতুচক্র একটি শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়া। সাধারণত ১২ বছর বয়সে নারী শরীরে ঋতুচক্র শুরু হয়। যা স্থায়ী হয় ৫০ বছর বয়স পর্যন্ত। চিকিৎসা শাস্ত্রের ভাষায় ৫০ বছর থেকে মৃত্যু পর্যন্ত নারী শরীরের ঋতুচক্রহীন অবস্থাকে মেনোপজ বলা হয়। কিন্তু, চিকিৎসা শাস্ত্রের যাবতীয় হিসেব উলটে দিয়েছে বছর চারেকের শিশুকন্যা। ইতিমধ্যেই তার ঋতুচক্র শুরু হয়ে গিয়েছে! চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, খুব তাড়াতাড়ি একরত্তি ওই শিশুর মেনোপজ দশাও শুরু হবে!

[রেস্তরাঁয় ঢুকে মহিলার ধর্ষণ, নির্যাতিতার শিরশ্ছেদ করল কঙ্গোর বিদ্রোহীরা]

অস্ট্রেলিয়ায় জন্মেছে শিশুকন্যাটি। তার নাম এমিলি ডোভার। জানা গিয়েছে, জন্মের সময়ে আর পাঁচটা শিশুর মতোই সুস্থ ও স্বাভাবিকই ছিল এমিলি। কিন্তু সপ্তাহ দুয়েক পর থেকে অস্বাভাবিক হারে বাড়তে শুরু করে সে। এমিলির যথন চার মাস, তখন তার চেহারার ছিল এক বছরে্র শিশুর মতো। এমনকী, মাত্র দুই বছর বয়সেই এমিলির শরীরের স্তনের লক্ষণ ফুটে ওঠে। এমনকী, তার গায়ে এখন ঘামের গন্ধও পাওয়া যায়। ত্বকে স্পষ্ট ব্রণর দাগ। চিকিৎসক জানিয়েছেন, অ্যাডিসন ডিজিজ, অ্যাড্রিনাল হাইপারলেসিয়া, সেন্ট্রাল প্রিকসাস পিউবার্টির মতো একাধিক রোগের শিকার এমিলি। তাই শিশু বয়সেই ‘যুবতী’  হয়ে উঠেছে সে। প্রতিনিয়ত প্রবল যন্ত্রণা সহ্য করতে হয় এক রত্তি শিশুকন্যাটিকে। নড়াচড়ার ক্ষমতাটুকু পর্যন্ত নেই এমিলির। তারওপর শরীরের হরমোনও ঠিকমতো নির্গত হয় না। প্রতি সপ্তাহে ফিজিওথেরাপি ও হরমোন রিপ্লেসমেন্ট থেরাপি করাতে হয়। কিন্তু, এত কিছুর পরও এমিলি স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে পারে, এমন কোনও নিশ্চয়তা নেই। বরং চিকিৎসক জানিয়েছেন, এত অল্প বয়সে নিয়মিত হরমোন থেরাপির কারণে খুব তাড়াতাড়ি এমিলির মেনোপজও শুরু হয়ে যাবে! সাধারণত মহিলাদের মেনোপজ শুরু হয় ৫০ বছর বয়সে।

[নগ্ন হয়েই বিশ্বভ্রমণে দম্পতি, ছবি ভাইরাল নেটদুনিয়ায়]

তার ঠিক কী হয়েছে, তা বোঝার মতো বয়স এখনও হয়নি এমিলির। তবে সে যে আর পাঁচটা শিশুর থেকে আলাদা, তা টের পেয়ে গিয়েছে বছর চারেকের একরত্তি শিশুকন্যাটি।  এমিলির মা টেম ডোভার বলেন, ‘ছোট্ট একটি মেয়ে হয়ে ওঠারও সুযোগ পেল না। অথচ এই বয়সেই ঋতুচক্রের দিনগুলিতে কীভাবে থাকতে হবে, শিখতে হচ্ছে ওকে।’  মেয়ের চিকিৎসার খরচ  চালানোর  জন্য সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পেজ খুলেছেন এমিলির বাবা-মা।

[সমুদ্রসৈকতে টপলেস হয়ে বিপাকে এই তারকা!]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে