BREAKING NEWS

২৩ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৭  শনিবার ৬ জুন ২০২০ 

Advertisement

খাবারের মেনুতে ‘নমো’ ছোঁয়া, হিউস্টনে প্রধানমন্ত্রীর জন্য এলাহি আয়োজন

Published by: Tanujit Das |    Posted: September 22, 2019 1:05 pm|    Updated: September 22, 2019 1:06 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ‘হাউডি মোদি’ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে ইতিমধ্যে হিউস্টনে পৌঁছে গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রবাসী ভারতীয়দের অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভায় অংশগ্রহণ করবেন তিনি৷ এই মুহূর্তে সাজসাজ রব হিউস্টনজুড়ে৷ মোদির জন্য আয়োজনে কোনও কমতি রাখছেন না প্রবাসীরা৷ হিউস্টনে যে হোটেলে থাকবেন প্রধানমন্ত্রী, সেখানে মোদির জন্য রয়েছে এলাহি খাওয়া দাওয়ার আয়োজন৷ হোটেলের মেনুতে বিশেষ চমক রেখেছেন সেফ কিরণ ভার্মা৷

[ আরও পড়ুন: ‘কাশ্মীরি পণ্ডিতদের রক্ষা করেছেন’, মোদিকে চুমু খেয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ প্রবাসী ভারতীয়র ]

মোদির তরফে কোনও বিশেষ দাবি না থাকলেও, বিদেশের মাটিতে প্রধানমন্ত্রীকে দেশীয় খাবারের অভাব বুঝতে দিতে চান না সেফ কিরণ৷ সেজন্য স্পেশ্যাল মেনুতে সমস্তটাই দেশীয় খাবারের বন্দোবস্ত করেছেন তিনি৷ তৈরি হয়েছে নরেন্দ্র মোদির নামাঙ্কিত দু’ধরনের ‘নমো থালি’৷ একটি ‘নমো থালি মিঠাই’, অন্যটি ‘নমো থালি সেওরি’৷ দেশী ঘি যোগে তৈরি সমস্ত খাবারই নিজের হাতে বানিয়েছেন কিরণ ভার্মা৷ মেনুতে মনে করে রেখেছেন গুজরাটের ছোঁয়া ও হরেক রকমের চাটনি৷ সেফ জনিয়েছেন, ‘নমো থালি মিঠাই’তে রয়েছে. শ্রিখণ্ড, রসমালাই, গাজরের হালুয়া ও বাদাম হালুয়া৷ ‘নমো থালি সেওরি’তে রয়েছে খিচুড়ি, কচুরি ও মেথি থেপলা৷ এছাড়া প্রধানমন্ত্রীর প্রতিনিধি দলের জন্য রয়েছে, ভারতের বিভিন্ন প্রদেশের উল্লেখ্যযোগ্য পদের সমাহার৷

[ আরও পড়ুন: নিশানায় ইরান! সৌদি আরবে আরও ফৌজ পাঠাচ্ছে আমেরিকা ]

উল্লেখ্য, শনিবার আমেরিকায় পৌঁছন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি৷ রবিবারের সকালের মধ্যেই প্রবাসী ভারতীয়দের বিভিন্ন প্রতিনিধি দলের সঙ্গে দেখা করেছেন প্রধানমন্ত্রী। তাঁদের মধ্যে কাশ্মীরি পণ্ডিতরা যেমন ছিলেন তেমনি ছিলেন শিখ সম্প্রদায় ও বোহরা সম্প্রদায়ের মানুষরাও। সবাই নরেন্দ্র মোদিকে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় আসার জন্য অভিনন্দন জানানোর পাশাপাশি বিভিন্ন বিষয়ে স্মারকলিপিও জমা দেন। সৌজন্য বিনিময় ফাঁকে তাঁর হাতে চুমু খেয়ে ৩৭০ ধারা বাতিলের জন্য মোদিকে ধন্যবাদ জানান সুরিন্দর কল নামে এক কাশ্মীরি পণ্ডিত। বলেন, ‘সাত লক্ষ কাশ্মীরির পক্ষ থেকে আপনাকে ধন্যবাদ জানাই।’ এরপর কাশ্মীরি পণ্ডিত সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিদের সঙ্গে বিভিন্ন আলোচনা করার ফাঁকে সবার সঙ্গে ‘নমস্তে শারদে দেবী’ শ্লোক পাঠও করেন নরেন্দ্র মোদি। প্রতিনিধি দলের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে বলেন, ‘আপনারা অনেক কষ্ট সহ্য করেছেন। এখন আসুন নতুন কাশ্মীর তৈরি করি।’

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement