BREAKING NEWS

০৫ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শুক্রবার ২০ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আমেরিকায় ভারতীয় চিকিৎসককে কুপিয়ে খুন, গ্রেপ্তার ১

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 15, 2017 5:10 am|    Updated: September 15, 2017 5:10 am

Indian-origin doctor stabbed to death in USA

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মার্কিন মুলুকে কুপিয়ে খুন করা হল এক ভারতীয় চিকিৎসককে৷ মৃতের নাম অচ্যুত রেড্ডি৷ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ওমর রশিদ দত্ত নামে বছর একুশের এক তরুণকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ৷

[ফের ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ কিমের, উড়ল জাপানের উপর দিয়ে]

জানা গিয়েছে, তেলেঙ্গানার নালগোন্ডা জেলার বাসিন্দা অচ্যুত রেড্ডি৷ হায়দরাবাদের ওসমানিয়া মেডিক্যাল কলেজ থেকে ডাক্তারি পাশ করার পর মার্কিন মুলুকে পাড়ি দিয়েছিলেন তিনি৷ দুই দশকের বেশি সময়ে ধরে কানসাস শহরে প্র্যাকটিস করতেন৷ রোজকার মতোই বুধবার স্থানীয় সময় সন্ধে সাতটা নাগাদ কানসাস শহরের উইচিটা এলাকায় নিজের চেম্বারে রোগী দেখছিলেন অচ্যুত রেড্ডি৷ জানা গিয়েছে, সেই সময়ে চেম্বারে ঢুকে ওই চিকিৎসকের উপর হামলা চালায় অভিযুক্ত ওমর রশিদ দত্ত৷ ভারতীয় চিকিৎসককে বাঁচানোর চেষ্টা করেন স্থানীয় এক ব্যক্তি৷ দু’জনের মধ্যে হাতাহাতি চলাকালীন প্রাণ বাঁচাতে চেম্বার থেকে পালিয়ে যান অচ্যুত রেড্ডি৷ কিন্তু, তাতেও শেষরক্ষা হয়নি৷ কানসাস পুলিশ জানিয়েছে, ওই ভারতীয় চিকিৎসককে ধাওয়া করে অভিযুক্ত এবং রাস্তায় ফেলে কোপাতে শুরু করে৷ ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় প্রবাসী চিকিৎসকের৷

[সন্ত্রাস জর্জরিত রোহিঙ্গাদের প্রতিদিন অন্ন জোগাচ্ছে এই শিখ স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা]

ঘটনায় অভিযুক্ত ওমর রশিদ দত্তকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ৷ স্থানীয় এক পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন, অভিযুক্ত ওমর রশিদ নিহত চিকিৎসক অচ্যুত রেড্ডির রোগী ছিল৷ কেন হঠাৎ সে ওই চিকিৎসককে খুন করল, তা এখনও স্পষ্ট নয়৷ রোগীদের মধ্যে বেশ জনপ্রিয় ছিলেন মনোবিদ অচ্যুত রেড্ডি৷ তাঁর মৃত্যুতে সোশ্যাল মিডিয়ার শোক প্রকাশ করেছেন অনেকেই৷ অচ্যুত রেড্ডির স্ত্রীও পেশায় চিকিৎসক৷ প্রসঙ্গত, গত ফ্রেব্রুয়ারি এই কানসাস শহরেই জাতিবিদ্বেষমূলক হামলায় মৃত্যু হয়েছিল ভারতীয় ইঞ্জিনিয়ার শ্রীনিবাস কুঞ্চুভোতলা৷

[ভগৎ সিংয়ের জন্য সুবিচার চেয়ে মামলা পাক আইনজীবীর]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে