১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  মঙ্গলবার ৪ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ফরাসি বিদেশমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক জয়শংকরের, আলোচনার কেন্দ্রে আফগানিস্তান ও ইউক্রেন

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: February 21, 2022 12:44 pm|    Updated: February 21, 2022 12:44 pm

Jaishankar, French counterpart discuss Afghanistan, Ukraine | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আরও মজবুত ভারত-ফ্রান্স দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক। রবিবার প্যারিসে ফরাসি বিদেশমন্ত্রী জঁ-ইয়েভেস লে দ্রায়ানের সঙ্গে বৈঠকে বসেন ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শংকর। দু’জনের আলোচনায় প্রাধান্য লাভ করে আফগানিস্তান ও ইউক্রেন সমস্যা।

[আরও পড়ুন: ইউক্রেনে সরকারি বাহিনীর সঙ্গে লড়াই বিদ্রোহীদের, বৈঠকে রাজি পুতিন-বাইডেন]

জানা গিয়েছে, বৈঠক শেষে আফগানিস্তান ও ইউক্রেন সমস্যা সমাধানে আন্তর্জাতিক মঞ্চে যৌথভাবে কাজ করার বার্তা দেন জয়শংকর ও জঁ-ইয়েভেস। আন্তর্জাতিক মঞ্চে বহুত্ববাদের নীতি ও নিয়মভিত্তিক শৃঙ্খলা মেনে বিভিন্ন ইস্যু রাষ্ট্রসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে একসঙ্গে কাজ করার বিষয়ে সহমত প্রকাশ করেন দু’জনে। এক বিবৃতি জারি করে ভারতের বিদেশমন্ত্রক জানিয়েছে, করোনা কালে ভারত ও ফ্রান্স একসঙ্গে কাজ করেছে। এবার প্রতিরক্ষা, স্বাস্থ্য, শিক্ষা ও গবেষণার ক্ষেত্রে সম্পর্ক আরও মজবুত করবে দুই দেশ। শুধু তাই নয়, কৌশলগত ক্ষেত্রেও পরস্পরের পাশে থাকার বার্তা দিয়েছে নয়াদিল্লি ও প্যারিস।

তাৎপপর্যপূর্ণ ভাবে, চিনকে ঠেকাতে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে ফ্রান্স ও ইউরোপীয় ইউনিয়নকে পাশে চাইছে নয়াদিল্লি। কিন্তু, ইউক্রেন নিয়ে উভয় সংকটে রয়েছে নয়াদিল্লি বলেই মত বিশ্লেষকদের। কারণ, রাশিয়ার সঙ্গে ভারতের বন্ধুত্ব ঐতিহাসিক ও অত্যন্ত মজবুত। সোভিয়েত জমানা থেকেই প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে রুশ অস্ত্রের বড় খদ্দের ভারত। দুই দেশের কৌশলগত সম্পর্কও অত্যন্ত শক্তিশালী। সেই সম্পর্ক কিছুতেই নষ্ট করতে চায় না মোদি সরকার। তাই আমেরিকা সুর চড়ালেও এখনও ইউক্রেন নিয়ে রাশিয়ার বিরুদ্ধে কোনও মন্তব্য করেনি ভারত। অন্যদিকে, অস্ত্র আমদানি ও বাণিজ্যের ক্ষেত্রে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গেও ভারতের সম্পর্ক ভাল।

উল্লেখ্য, শনিবার মিউনিখ সিকিউরিটি কনফারেন্স ২০২২-এ বিভিন্ন দেশের প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলাপচারিতায় অংশ নেন ভারতের বিদেশমন্ত্রী। সেখানে সেখানে সরাসরি জানিয়ে দিলেন, চিনের সঙ্গে ভারতের একটি সমস্যা রয়েছে। একইসঙ্গে, ইন্দো-প্যাসিফিক, আফগানিস্তান ও ইউক্রেন নিয়েও ভারতের অবস্থান স্পষ্ট করেন তিনি। বিশ্লেষকদের মতে, আন্তর্জাতিক কূটনৈতিক মঞ্চে নিজের জায়গা আরও মজবুত করতে সচেষ্ট হয়েছে নয়াদিল্লি।

[আরও পড়ুন: তালিবানের নাকের ডগায় স্কুল চালাচ্ছেন আফগান সাহসিনী! পড়তে আসে মেয়েরাও]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে