BREAKING NEWS

১০ কার্তিক  ১৪২৮  বৃহস্পতিবার ২৮ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

ছুটি কাটাতে গিয়ে বিপদে পর্যটকরা, অস্ট্রেলিয়ায় আগুনের হলকা থেকে বাঁচতে সৈকতে আশ্রয়

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: December 31, 2019 10:59 am|    Updated: December 31, 2019 11:22 am

Massive blaze engulfed Australia, tourists flee to water for shelter

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দাউদাউ করে জ্বলছে বনভূমি। দাবানলের জেরে সতর্কতা জারি অন্তত তিনটি প্রদেশে। বিপদ এড়াতে এই অবস্থায় ক্রিসমাস বা বর্ষবরণের ছুটিতে অস্ট্রেলিয়া ভ্রমণে কার্যত নিষেধাজ্ঞাই জারি করেছিল প্রশাসন। কিন্তু তা উপেক্ষা করেই ছুটি কাটাতে যাওয়া পর্যটকরা পড়লেন বিপদে। ভিক্টোরিয়া সংলগ্ন এলাকায় অগ্নিতাপ থেকে বাঁচতে তাঁরা ছুটলেন সমুদ্রের দিকে। যদিও জলে গা ভিজিয়ে কিছুটা স্বস্তি মেলে, সেই আশায়। প্রশাসন সূত্রে খবর, অন্তত হাজার খানেক পর্যটক এই পরিস্থিতির শিকার।

Aus-wildfire1

আজ সকাল থেকে পরিস্থিতি আরও খারাপ হয়েছে। জঙ্গলের আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ায় সেই তাপ টের পাচ্ছেন স্থানীয় বাসিন্দা এবং হোটেলবন্দি পর্যটকরা। কেউ কেউ বলছেন, জ্বলন্ত কাঠ-কয়লার টুকরো ছুটে আসছে। আগুনের হলকায় গোটা এলাকা প্রায় লালচে হয়ে গিয়েছে। সিডনি, মেলবোর্নের জনপ্রিয় সমুদ্র সৈকতগুলিতে আনন্দ নয়, আতঙ্ক যেন ছড়িয়ে পড়েছে। নিউ সাউথ ওয়েলসের বেটমানস থেকে ভিক্টোরিয়ার বেয়ার্নসডেল পর্যন্ত প্রায় ৫০০ কিলোমিটার দীর্ঘ সমুদ্রতটে জারি জরুরি অবস্থা।

[আরও পড়ুন: হাউডি মোদির সুফল! CAA’র সমর্থনে মিছিল আমেরিকার টাইমস স্কোয়ারে]

ভিক্টোরিয়ার প্রশাসনিক প্রধান ড্যানিয়েল অ্যান্ড্রুজ জানিয়েছেন যে ওই এলাকা থেকে অন্তত ৪ জনকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। উদ্বেগ প্রকাশ করে তিনি বলেন, ”সকলের নিরাপত্তা নিয়ে আমরা খুবই চিন্তিত। ওঁরা যেখানে আছেন, তা একেবারে সক্রিয় অগ্নিবলয় এবং কী পরিস্থিতিতে ওঁরা আছেন, তা আমরা বুঝতে পারছি না।” ভিক্টোরিয়ার বিপর্যয় মোকাবিলা দলের প্রধান সদস্য বলছেন, ”মাল্লাকুটায় অন্তত ৪০০০ মানুষ বাড়ি থেকে বেরিয়ে সমুদ্রসৈকতে গিয়ে আশ্রয় নিচ্ছেন। ভয়ঙ্কর অবস্থা। ঘন কালো ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছে চারপাশ। সকলকে সুরক্ষিত রাখতে আমরা নিজেদের সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।”

ভিক্টোরিয়া, নিউ সাউথ ওয়েলসের ভয়াবহ পরিস্থিতির ছবিতে ছেয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়া। উৎসবমুখর স্থানগুলির বদলে যাওয়া ছবি ধরে রাখছেন অনেকে। দমকলকর্মীদের সঙ্গে আগুন নিয়ন্ত্রণের কাজে কখনও হাত লাগাচ্ছেন স্থানীয়রাই। জল সরবরাহ করে সাহায্যের চেষ্টা করছেন। তবে বিপর্যয় মোকাবিলা দলের একাংশ জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় অন্তত ২০০টি জায়গায় ছোট আকারে আগুন লেগেছে। অচিরেই তা বৃহৎ আকার নেবে বলে আশঙ্কা। প্রকৃতির এই রোষ সঙ্গে নিয়েই নতুন বছর শুরু করতে চলেছেন অস্ট্রেলিয়বাসী।

[আরও পড়ুন: সমাজতান্ত্রিক মূল্যবোধে জোর, মুসলিমদের জন্য নয়া কোরান লিখবে চিন]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement