১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

পিয়ংইয়ং থেকে সরল বাপ-ঠাকুরদার ছবি, ফের কিমের মৃত্যু নিয়ে তুঙ্গে জল্পনা

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: May 18, 2020 6:23 pm|    Updated: May 18, 2020 6:23 pm

Removal of portraits of Kim Jong-un's dad, grandfather sparks rumor

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কিম জং উনের মৃত্যু নিয়ে ফের তুঙ্গে জল্পনা। বিশ্লেষকদের মধ্যে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে উত্তর কোরিয়ার রাজধানী পিয়ংইয়ং শহরের মেইন স্কোয়ার থেকে সরানো হয়েছে কিমের ঠাকুরদা কিম ইল সাং এবং বাবা কিম জং ইল-এর ছবি। ফলে কিমের স্বাস্থ্য নিয়ে বড়সড় কোনও ঘোষণা হতে পারে বলেই মনে করা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: করোনা সচেতনতায় অভিনব প্রচার, লাইভ অনুষ্ঠানে লালারস পরীক্ষা করালেন নিউ ইয়র্কের গভর্নর]

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, পিয়ংইয়ং শহরের মেইন স্কোয়ার থেকে সরানো হয়েছে উত্তর কোরিয়ার প্রাক্তন শাসক কিম ইল সাং ও কিম জং ইল-এর ছবি। স্যাটেলাইট ছবিতে উত্তর কোরিয়ার দুই প্রাক্তন নেতার ছবি সরাতে দেখা গিয়েছে। ব্রিটেনের এক সংবাদমাধ্যমকে আন্তর্জাতিক সাংবাদিক রয় ক্যালি জানিয়েছেন, “শেষবার উত্তর কোরিয়ার শীর্ষ নেতার মৃত্যুর সময় এমনটা দেখা গিয়েছিল।” তাঁর মতে, “বেজিংয়ের স্কোয়ারের মতোই আকারে বিশাল পিয়ংইয়ংয়ের ওই এলাকা। তা আরও বর্ধিত হচ্ছে, এই দাবি মানা যায় না। আমার ধারণা, ওরা আরেকটি ছবি বসানোর চিন্তাভাবনা করছে। তবে ছবি সাধারণত রাষ্ট্রনেতা প্রয়াত হলেই বসানো হয়।” আর এর থেকেই শুরু হয়েছে তীব্র জল্পনা। তবে কি প্রয়াত হয়েছেন কিম জং উন?

উল্লেখ্য, গত ১৫ এপ্রিল প্রয়াত ঠাকুরদা তথা উত্তর কোরিয়ার জাতির জনক কিম ইল সাংয়ের জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে অনুপস্থিত থাকার পর থেকেই কিমের স্বাস্থ্যের বিষয়ে জল্পনা ছড়ায়। তাঁর মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ে সংবাদমাধ্যমে। তবে আশঙ্কা উড়িয়ে সুনচন শহরে একটি সার কারখানার উদ্বোধন করতে জনসমক্ষে এসে সব জল্পনা উড়িয়ে দেন একনায়ক কিম জং উন। তাঁর সুস্থতার খবর পেয়েই নড়েচড়ে বসেছে আমেরিকা। ‘বন্ধু’ কিমের সুস্থতার খবরে যারপরনাই টুইট করে আনন্দ প্রকাশও করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

[আরও পড়ুন: ‘দায়িত্ববানরা জানেনই না কী করছেন’, করোনা নিয়ে ট্রাম্পের বিরুদ্ধে সুর চড়ালেন ওবামা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে