২৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১০ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ডাকলেই তাঁর সাড়া পেতেন সাধারণ মানুষ৷ টুইটারের মাধ্যমে যে কেউ পৌঁছে যেতে পারতেন তাঁরা কাছে৷ সাহায্য চাইলে মুহূর্তে দূর হয়ে যেত অসুবিধা৷ মঙ্গলবার রাতে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে পরলোকে পাড়ি দিয়েছেন এহেন ‘জনগণের বিদেশমন্ত্রী’ সুষমা স্বরাজ৷ তাঁর মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ রাজনৈতিক মহল থেকে শুরু করে দেশবাসী তথা বিশ্ববাসী৷ আর তাই দেশ, সীমানার গণ্ডি অতিক্রম করে প্রিয় ‘সুষমাজি’কে শ্রদ্ধ জানাচ্ছেন  বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের মানুষজন৷ যাদের মধ্যে রয়েছেন অনেকেই পাকিস্তানের নাগরিকরাও৷

তাঁদের দেশের শিরিন শিরাজ, শাহজায়িব ইকবাল, হিরা শাইরাজদের সাহায্য করার জন্য প্রয়াত প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রীর আত্মার শান্তি কামনা করছেন পাক নেটিজেনরা৷ কেউ কেউ লিখলেন, ‘‘মুসলিম হিসাবে আমরা যদিও পরজন্মে বিশ্বাস করি না৷ তবে সত্যি পরজন্ম বলে কিছু থাকলে, সুষমা স্বরাজ যেন পাকিস্তানে জন্মগ্রহণ করেন এবং এখানে রাজনীতি করেন৷’’

জানা গিয়েছে, মেয়ে শিরিন শিরাজের ওপেন হার্ট সার্জারির জন্য সুষমার কাছে ভারতের ভিসা গ্রাহ্য করার অনুরোধ করেছিলেন পাকিস্তানের নাগরিক হিরা শিরাজ৷ টুইটারের মাধ্যমে সেই আরজি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাঁদের ভারতে আসার ব্যবস্থা করেন প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ৷ যথাযথ চিকিৎসার মাধ্যমে মেয়েকে প্রাণে বাঁচাতে সমর্থ হন শিরিন৷ একই ভাবে, লিভার প্রতিস্থাপনের জন্য সুষমার কাছে ভারতের ভিসা গ্রাহ্য করার আরজি জানিয়েছিলেন লাহোরের বাসিন্দা শাহজাইব ইকবাল৷ টুইটারে তিনি লেখেন, ‘‘আল্লাহর পর আপনি আমাদের শেষ ভরসা…দয়া করে ইসলামাবাদের দূতাবাসকে (ভারতে অবস্থিত) আমাদের মেডিক্যাল ভিসা দিতে বলুন৷ ’’ জানা গিয়েছে এই আরজিও মেটান প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রী৷ কেবল এই হাতে গোটা দু-একজন নন, এভাবে সুষমার সাহায্যে পেয়েছেন দেশ-বিদেশের অসংখ্য মানুষ৷ এমনকী, বিদেশে কোনও ভারতীয় আটকে গেলেও, তাঁকে উদ্ধারে ত্রাতার ভূমিকা নিয়েছেন প্রাক্তন বিদেশমন্ত্রী৷ 

কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা অবলুপ্তির পর ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে উত্তাপ যখন চরমে পৌঁছে গিয়েছে, তখন সুষমা স্বরাজের মৃত্যুতে শোকজ্ঞাপন করছেন সেদেশের নেটিজেনরা৷ ইন্দিরা গান্ধীর পর তাঁকেও ভারতীয় রাজনীতির ‘লৌহ মানবী’ বলে উল্লেখ করছেন পাক নেটিজেনদের একাংশ৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং