BREAKING NEWS

১০  আশ্বিন  ১৪২৯  শুক্রবার ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

জেলেনস্কির সঙ্গে কথা বাইডেনের, ইউক্রেনকে আরও রকেট সিস্টেম দিচ্ছে আমেরিকা

Published by: Monishankar Choudhury |    Posted: June 16, 2022 9:12 am|    Updated: June 16, 2022 9:12 am

US to provide another USD 1 billion, advanced rocket systems to Ukraine

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দোনবাস প্রদেশ দখল করতে ভয়াবহ হামলা শুরু করেছে রাশিয়া। প্রবল বিক্রমে পালটা লড়াই দিলেও ক্রমে ইউক্রেনীয় ফৌজের হাতিয়ার ও রসদ ফুরিয়ে আসছে। এহেন পরিস্থিতিতে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে ফোনে কথা বললেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। আলোচনায় কিয়েভকে আরও ১০০ কোটি ডলারের অস্ত্র দেওয়ার কথা জানান তিনি।

হোয়াইট হাউস থেকে জারি করা বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বুধবার জেলেনস্কির সঙ্গে কথা বলেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন (Joe Biden)। ইউক্রেনের রাষ্ট্রপ্রধানকে আশ্বস্ত করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, “আমি প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কিকে জানিয়েছি যে ইউক্রেনকে আরও ১০০ কোটি ডলারের সামরিক প্যাকেজ দেবে আমেরিকা। দোনবাস অঞ্চলে লড়াই চালানোর জন্য ওই প্যাকেজে থাকছে কামানের গোলা, অত্যাধুনিক রকেট সিস্টেম, কোস্টাল ডিফেন্স সিস্টেম-সহও আরও বেশকিছু হাতিয়ার ও গোলাবারুদ।” তিনি আরও বলেন, “রাশিয়ার আগ্রাসনের মুখে ইউক্রেনের গণতন্ত্র, সার্বভৌমত্ব ও ভৌগলিক অখণ্ডতা রক্ষায় সবসময় পাশে থাকবে আমেরিকা।”

[আরও পড়ুন: কাঁপছে হাত, দাঁড়াতেও পারছেন না পুতিন, রুশ প্রেসিডেন্টের নয়া ভিডিও ঘিরে তুঙ্গে জল্পনা]

বাইডেনের সঙ্গে আলোচনার পরই দেশবাসীর উদ্দেশে বার্তা দেন জেলেনস্কি। তিনি বলেন, “আমাদের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা মজবুত করতে ১ বিলিয়ন ডলারের বিশেষ সামরিক প্যাকেজ ঘোষণা করেছে আমেরিকা। আমি তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ। দোনবাস অঞ্চলের লড়াই চালিয়ে যেতে এই মদত খুবই জরুরি।” একইসঙ্গে, ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের সঙ্গেও তাঁর আলোচনা হয়েছে বলে জানিয়েছেন জেলেনস্কি।

এদিকে, ডোনেৎস্কও ও লুহানস্ক প্রদেশ নিয়ে তৈরি পূর্ব ইউক্রেনের দোনবাস অঞ্চলে তুমুল লড়াই চলছে রুশ ও ইউক্রেনীয় ফৌজের। লুহানস্কে জেলেনস্কি বাহিনীর শেষ ঘাঁটি সেভেরদোনেৎস্ক শহর প্রায় দখল করে ফেলেছে রাশিয়া (Russia)। গুরুত্বপূর্ণ এই শিল্পশহরে আটকে পড়েছেন সাধারণ মানুষ। কিন্তু তাঁদের উদ্ধার করা সম্ভব হচ্ছে না, কারণ শহরের একমাত্র সংযোগকারী সেতুটি গুঁড়িয়ে দিয়েছে রাশিয়া। তবুও শহরটির একটি রাসায়নিক কারখানায় ঘাঁটি গেড়ে লড়াই চালাচ্ছে ইউক্রেনীয় সৈনিকেরা। তাঁদের অস্ত্র ফেলে দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রকের অন্যতম শীর্ষকর্তা মিখাইল মিজিনিৎসেভ। বলে রাখা ভাল, এর আগে ইউক্রেনের মারিওপোল শহর দখল করেছে পুতিন বাহিনী।

[আরও পড়ুন: আক্রমণ অব্যাহত, মারিওপোলের পর ইউক্রেনের আরেক বড় শহর দখলের পথে রুশ সেনা

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে