BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

ফের ঊর্ধ্বমুখী রাজ্যের করোনা গ্রাফ, মোট সংক্রমিতের সংখ্যা ২ লক্ষ ছুঁইছুঁই

Published by: Sayani Sen |    Posted: September 10, 2020 8:37 pm|    Updated: September 10, 2020 8:44 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাংলায় ফের ঊর্ধ্বমুখী করোনা গ্রাফ। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ৩ হাজারেরও বেশি। মৃত্যু হয়েছে ৪১ জনের। তাই ক্রমশ চওড়া হচ্ছে দুশ্চিন্তার ভাঁজ। তবে আশঙ্কার মাঝেও স্বস্তি জোগাচ্ছে সুস্থতার হার। কোভিডকে হারিয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৩ হাজার ৩৫ জন।

স্বাস্থ্যদপ্তরের বৃহস্পতিবারের দেওয়া বুলেটিন অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩ হাজার ১১২ জন। যা বুধবারের বুলেটিন অনুযায়ী সামান্য বেশি। শুধুমাত্র কলকাতাতেই আক্রান্ত হয়েছেন ৪৮১ জন। ফলে মোট কোভিড সংক্রমিতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১ লক্ষ ৯৩ হাজার ১৭৫ জন। একদিনে করোনার থাবায় প্রাণ হারিয়েছেন ৪১ জন। মোট ৩ হাজার ৭৭১ জন করোনায় প্রাণ হারিয়েছেন। তবে কঠিন এই সময়ে শুধুমাত্র স্বস্তি জোগাচ্ছে সুস্থতার হার। ৩ হাজার ৩৫ জনই সুস্থ হয়ে কোভিডকে হারিয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় বাড়ি ফিরেছেন। তার ফলে মোট কোভিডযোদ্ধার সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১ লক্ষ ৬৬ হাজার ২৭ জন। রাজ্যে সুস্থতার হার ৮৫.৯৫ শতাংশ।

[আরও পড়ুন: জেলাস্তরে বড়সড় রদবদল তৃণমূলের, পুরুলিয়ায় দলের জেলা কমিটিতে নেই কোনও বিধায়ক]

এখনও ভ্যাকসিন নিয়ে গবেষণা চলছে। তাই বর্তমানে করোনা মোকাবিলার ব্রহ্মাস্ত্র টেস্টিং। তার ফলে যত বেশি সংখ্যক টেস্ট করা হয়েছে, সেদিকে লক্ষ্য প্রশাসনের। গত ২৪ ঘণ্টায় ৪৪ হাজার ৩৪৭ জনের কোভিড পরীক্ষা হয়েছে। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট করোনা পরীক্ষা হয়েছে ২৩ লক্ষ ৩০ হাজার ২৮৩ জনের। তার মধ্যে মাত্র ৮.২৯ শতাংশ ব্যক্তির কোভিড টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। 

লকডাউন করে দেশজুড়ে করোনা পরিস্থিতি সামাল দেওয়ার চেষ্টা করা হয়। তবে করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে গিয়ে ক্রমশই অর্থনৈতিক পরিস্থিতি সঙ্গীণ হয়ে পড়ছিল। তাই ধীরে ধীরে আবারও স্বাভাবিক ছন্দে ফিরেছে গোটা দেশ। খুলেছে অফিস, ধর্মস্থানের মতো বেশ কিছু জায়গা। এছাড়া বাস পরিষেবাও শুরু হয়েছে। আগামী সপ্তাহেই রাজ্যে ফের শুরু হবে মেট্রো পরিষেবা। এই পরিস্থিতিতে সাপ্তাহিক লকডাউনের মাধ্যমে করোনার চেন ভাঙার চেষ্টা চলছে। কেন্দ্র সাপ্তাহিক সম্পূর্ণ লকডাউনে রাজি নয়। তবে নবান্নের সিদ্ধান্তে রাজ্যে চলতি মাসে সাপ্তাহিক লকডাউন হয়েছে। শনিবারও রাজ্যে সাপ্তাহিক লকডাউন রয়েছে। তবে তাতে সংক্রমণের গ্রাফ নিম্নমুখী হয় কিনা, সেটাই দেখার।  

[আরও পড়ুন: ফের শক্তিবৃদ্ধি শাসকদলের, হাড়োয়ায় সিপিএম ছেড়ে শতাধিক কর্মী যোগ দিলেন তৃণমূলে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement