BREAKING NEWS

১৬ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  শুক্রবার ৩ ডিসেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

বিজেপিতে যোগদানের প্রায়শ্চিত্ত! নেড়া হয়ে তৃণমূলে ফিরলেন আরামবাগের ৫০০ কর্মী

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 22, 2021 4:36 pm|    Updated: June 22, 2021 4:36 pm

500 BJP worker of Hooghly's Arambag joins TMC | Sangbad Pratidin

সুব্রত যশ, আরামবাগ: এবার আরামবাগের বিজেপি শিবিরে ভাঙন। পদ্মশিবিরে যোগের প্রায়শ্চিত্ত হিসেবে নেড়া হয়ে সাংসদ অপরূপা পোদ্দারের হাত ধরে তৃণমূলে (TMC) ফিরলেন প্রায় ৫০০ কর্মী। এবিষয়ে এখনও বিজেপির প্রতিক্রিয়া মেলেনি। 

একুশের নির্বাচনের (West Bengal Assembly Elections) আগে তৃণমূল ত্যাগের হিড়িক পড়ে গিয়েছিল নেতা-কর্মীদের মধ্যে। বিভিন্ন এলাকা থেকে বহু কর্মী শিবির বদলে যোগ দিয়েছিলেন বিজেপিতে। কিন্তু কয়েকমাসের মধ্যেই তাঁদের মোহভঙ্গ হয়েছে। দলবদলু বহু নেতা-কর্মীই ধীরে ধীরে ফিরছেন ‘ঘরে’। মঙ্গলবার তৃণমূলে ফিরলেন আরামবাগের ৫০০ বিজেপি কর্মী। এদিন তাঁরা প্রত্যেকে নেড়া হন। কিন্তু কেন? জানা গিয়েছে, বিজেপিতে গিয়ে ভুল করেছিলেন, তার প্রায়শ্চিত্ত স্বরূপ নেড়া হয়েছেন ওই কর্মীরা। ফিরে এসেছেন তৃণমূলে। এ বিষয়ে সাংসদ অপরূপা পোদ্দার বলেন, “ভোটের আগে কর্মীদের ভুল বুঝিয়ে বিজেপিতে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। এখন প্রত্যেকে ভুল বুঝতে পারছেন তাই ফিরে আসছেন। আর প্রত্যেকে স্বেচ্ছায় প্রায়শ্চিত্ত করার জন্য নেড়া হয়েছেন।”

[আরও পড়ুন: কেরলে মাছ ধরতে গিয়ে নিখোঁজ কাকদ্বীপের ৪ মৎস্যজীবী, সাহায্যের আশ্বাস বিধায়কের]

উল্লেখ্য, নিচুতলার কর্মীদের পাশাপাশি ‘দিদি’র বহু বিশ্বস্ত সৈনিক, যাঁরা বহু লড়াইয়ে দলনেত্রীর সঙ্গে ছিলেন একুশের নির্বাচনের আগে তাঁদের অনেকেই তৃণমূল ছেড়েছেন। সেই তালিকায় রয়েছেন তৃণমূল নেত্রীর ঘনিষ্ঠ হিসেবে পরিচিত সোনালী গুহ। ভোট মিটতেই সোনালী গুহ, দিপেন্দু বিশ্বাস-সহ একাধিক নেতা তাঁদের ভুল বুঝতে পেরেছেন। ক্ষমাও চেয়েছেন। তবে তাঁদের ফেরানো নিয়ে তৃণমূল এখনও নিজেদের অবস্থান স্পষ্ট করেনি। তবে একাধিক নেতা-মন্ত্রী বারবার ইঙ্গিতে বুঝিয়েছেন যে তাঁরা দলবদলুদের ঘরে ফেরানোর পক্ষেই। 

[আরও পড়ুন: কালিয়াচক হত্যাকাণ্ড: সেক্সচ্যাটে বুঁদ আসিফ, করত ব্ল্যাকমেলও! ল্যাপটপে মিলল সূত্র]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে