২  ভাদ্র  ১৪২৯  বুধবার ১৭ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘দিদি’কে ভালবেসে…, নিজের রক্ত দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর ছবি এঁকে তাক লাগালেন দুর্গাপুরের যুবক

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: June 29, 2022 12:15 pm|    Updated: June 29, 2022 10:11 pm

A youth of Durgapur draw a potrait of Mamata Banerjee with his blood | Sangbad Pratidin

ছবি: উদয়ন গুহ রায়

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বরাবরই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) ভক্ত। নিজে চিত্রশিল্পী, তাই নিজের হাতে আঁকা ছবি উপহার হিসেবে মুখ্যমন্ত্রীকে দেওয়ার ইচ্ছে ছিল বহুদিন ধরেই। সেই তিনিই রক্ত দিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর ছবি এঁকে ফেললেন। দুর্গাপুরের সুরজিৎ রায়ের এই ছবি নিয়ে প্রবল চর্চা হয়েছে। 

পশ্চিম বর্ধমানের দুর্গাপুরের আমরাই গ্রামের বাসিন্দা সুরজিৎ রায়। তাঁর বয়স ২১ বছর। বরাবরই আঁকতে ভালবাসেন সুরজিৎ। উচ্চমাধ্যমিক পাশের পর এলাকার খুদেদের আঁকা শেখান ওই যুবক। ছোটবেলা থেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাজ উদ্বুদ্ধ করেছে তাঁকে। সুরজিতের স্বপ্ন ছিল, মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করবেন। নিজের হাতে আঁকা ছবি তাঁর হাতে তুলে দেবেন। সেই মতো ছবিও এঁকেছিলেন সুরজিৎ। সম্প্রতি আসানসোলে সভা করতে গিয়েছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সুরজিতের ইচ্ছে ছিল সেখানেই মুখ্যমন্ত্রীর হাতে তুলে দেবেন নিজের আঁকা ছবি। সেই মতো সভাস্থলেও হাজির হন সুরজিৎ।

[আরও পড়ুন: পাহাড়ে উড়ল সবুজ আবির, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে ধন্যবাদ’, জয়ের পর বললেন TMC প্রার্থী বিনয় তামাং]

কিন্তু সেই ছবিতে ছিল বিশেষত্ব। নিশ্চয়ই ভাবছেন কী সেই বিশেষত্ব? রং নয় নিজের রক্তে মুখ্যমন্ত্রীর ছবি এঁকেছিলেন সুরজিৎ। জানা গিয়েছে, কিছুদিন আগে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন সুরজিৎ। সেই সময় রক্ত পরীক্ষা করা হয়েছিল। তখনই নাকি রক্ত সরিয়ে রেখেছিলেন তিনি। সেই রক্ত দিয়েই পরবর্তীতে এঁকেছিলেন মমতার ছবি। 

কিন্তু কেন এমন সিদ্ধান্ত? সুরজিতের কথায়, নতুন কিছু করতে চেয়েছিলেন তিনি। যা আর পাঁচজনের থেকে একেবারে আলাদা। ভাবতে ভাবতে মাথায় আসে রক্ত দিয়ে আকার কথা। তারপর ঘটনাচক্রে হাসপাতালে ভরতি করতে হয়েছিল তাঁকে। তখনই জোগাড় করে ফেলেন ছবি আঁকার রক্ত।   

[আরও পড়ুন: ঝালদা উপনির্বাচনে জয়ী নিহত তপন কান্দুর ভাইপো মিঠুন, চন্দননগরে জিতলেন বামপ্রার্থী]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে