BREAKING NEWS

২ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘মোদির মুখে ঝামা ঘষে বিজেপি শাসনের অবসান ঘটাবেন মমতা’, হুঁশিয়ারি অভিষেকের

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: April 26, 2019 9:35 pm|    Updated: April 26, 2019 9:37 pm

An Images

সন্দীপ মজুমদার, উলুবেড়িয়া: ‘‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যেভাবে বাম শাসনের অবসান ঘটিয়ে সিপিএমের দুঃশাসন,দুর্নীতি ও সন্ত্রাস থেকে রাজ্যবাসীকে মুক্তি দিয়েছেন। তেমন করেই এবার নরেন্দ্র মোদির মুখে ঝামা ঘষে পাঁচ বছরের বিজেপি শাসনের অবসান ঘটাবেন।’’ উলুবেড়িয়ার সভা থেকে এহেন মন্তব্যই করলেন বিদায়ী সাংসদ তথা ডায়মন্ড হারবারের তৃণমূল প্রার্থী অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। 

[আরও পড়ুন: কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথে ঢুকলে ভোট বন্ধ করে দিন’, নিদান অনুব্রতর]

শুক্রবার উলুবেড়িয়ার শ্যামপুর মাঠে উলুবেড়িয়া লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী সাজদা আহমেদের সমর্থনে একটি জনসভায় যান অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। এছাড়াও ছিলেন হাওড়া গ্রামীণের তৃণমূল সভাপতি পুলক রায়, শ্রম দপ্তরের প্রতিমন্ত্রী ডাঃ নির্মল মাজি, বিধায়ক সমীর কুমার পাঁজা, অরুণাভ সেন, কালিপদ মণ্ডল, তৃণমূল যুব কংগ্রেসের হাওড়া গ্রামীণ জেলা সভাপতি সুকান্ত পাল, হাওড়া জেলা পরিষদের সহ-সভাপতি অজয় ভট্টাচার্য, তৃণমূল কংগ্রেস নেতা তুষার শীল-সহ অন্যান্য কর্মী, সমর্থকেরা। এদিনের সভা থেকেই প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ করেন বিদায়ী সাংসদ।

তিনি বলেন, ‘‘মোদিকে কেউ কখনও চা বিক্রি করতে দেখেননি, কেউ হাতে লাঠি নিয়ে চৌকিদারি করতেও দেখেননি। কিন্তু, তিনি নিজেই নিজেকে কখনও চাওয়ালা আবার কখনও চৌকিদার বলে দাবি করেন। আর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় টালির ঘরে বাস করে রাজ্যের দশ কোটি মানুষের উন্নয়ন অব্যাহত রেখেছেন। যা সকলে দেখতে পাচ্ছেন। এটাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে নরেন্দ্র মোদির তফাৎ।’’ তিনি আরও বলেন, ‘‘ওঁরা উত্তরপ্রদেশের সংস্কৃতি বাংলার মানুষের উপরে চাপিয়ে দিতে চাইছে। ভাবছে জয় শ্রীরাম বললেই মানুষ বোকা হয়ে যাবে। আর বিজেপিকে ভোট দেবে। কিন্তু ওরা বুঝতে পারছে না জয় শ্রীরাম শুনলেই মানুষ রান্নার গ্যাস থেকে শুরু করে সমস্ত মূল্যবৃদ্ধির জন্য বিজেপিকে চেপে ধরেছে।’’  পাশাপাশি, রামের সঙ্গে বামের যোগ রয়েছে বলেও দাবি করেন তৃণমূল নেতা।

[আরও পড়ুন: হাতিয়ার জাল, কুমিরের সঙ্গে লড়াই করে বেঁচে ফিরলেন সাহসিনী মৎস্যজীবী]

এদিনের সভা থেকে মোদির ‘স্পিডব্রেকার দিদি’ মন্তব্যের পালটা তিনি বলেন, ‘‘উনি স্পিডব্রেকার, সেই কারণেই সমস্ত দুর্নীতি, অপরাধকে বাধা দিতে পেরেছেন।’’ রামমন্দির ইস্যু তুলেও বিজেপিকে একহাত নেন তিনি। প্রতিপক্ষকে আক্রমণের পাশাপাশি এদিনের সভা থেকে আত্মবিশ্বাসের সুরে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন,‘‘আমাদের জননেত্রী “দুর্গা”। তিনি সবকিছুকে ধরাশায়ী করবেন। আগামী ২৩ মে ভারতবর্ষ মমতাময় হয়ে উঠবে।’’

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement