BREAKING NEWS

২৬ বৈশাখ  ১৪২৯  সোমবার ১৬ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

লকআপে আত্মহত্যার চেষ্টা আসামীর, কাঠগড়ায় বনগাঁ থানার পুলিশ

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: October 15, 2018 6:31 pm|    Updated: October 15, 2018 6:31 pm

accused suicide in Bongaon Police Lockup

সোমনাথ পাল, বনগাঁ: ফের পুলিশ লকআপে আত্মহত্যার চেষ্টা জোড়া খুনের দায়ের ধৃত আসামীর৷ সোমবার পুলিশ লকআপের বাথরুমে শ্যালিকাকে ধর্ষণের পর আত্মহত্যার প্ররোচনা ও স্ত্রীকে খুনের দায়ে ধৃত সৌরভ বিশ্বাসের দেহ ঝুলতে দেখেন বন্দিরা৷ পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ধৃত ওই যুবককে উত্তর ২৪ পরগনার বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে৷ কিন্তু, পুলিশ লকআপে আসামীর আত্মহত্যার চেষ্টার ঘটনায় পুলিশি নজরদারি নিয়েই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে৷

[পুজোয় কয়েদখানায় ভূরিভোজ, জানেন কী থাকছে মেনুতে?]

পুলিশ সূত্রে খবর, গত শনিবার জোড়া খুনের দায়ে  বনগাঁ থানার নকপুল সীতানাথপুর এলাকায় থেকে সৌরভ বিশ্বাস নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ৷ রবিবার ধৃতকে বনগাঁ আদালতে তোলা হয়৷ তদন্তের প্রয়োজনে ধৃতের পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দেয় আদালত৷ রবিবারই অভিযুক্তকে পুলিশ লকআপে রাখা হয়৷ অভিযোগ, লকআপের বাথরুমে কোমরের বেল্ট জানলায় বেঁধে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে ওই যুবক৷ বাথরুমে গোঙানির শব্দ পেয়ে বাকি বন্দিরা দরজা ভেঙে সৌরভকে ঝুলতে দেখেন৷ তড়িঘড়ি ওই যুবককে উদ্ধার করে আশঙ্কাজনক অবস্থায় বনগাঁ মহকুমা হাসপাতালে এইচিডি ইউনিটে ভরতি করা হয়৷ রোগীর অবস্থা আপাতত স্থিতিশীল বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে৷

[গাড়ি থামিয়ে চাঁদার জুলুম, শামিল মহিলারাও]

কিন্তু, পুলিশের নজর এড়িয়ে কীভাবে খোদ পুলিশ লকআপের মধ্যেই আত্মহত্যার চেষ্টা চালাল জোড়া মামলার আসামী? পরনে বেল্ট থাকা অবস্থায় কীভাবে অভিযুক্তকে লকআপে পাঠাল পুলিশ? এমনকি, গলায় ফাঁস লাগিয়ে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লেও চিকিৎসক না ডেকে শুধুমাত্র মাথায় জল ঢেলে স্নান করানোর অনুমতি  দেওয়া হল কেন? রবিবার বোধনের দিনে পুলিশ লকআপে আসামীর আত্মহত্যার চেষ্টার ঘটনায় পুলিশি নজরদারি নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন অভিযুক্ত  সৌরভ বিশ্বাসের পরিবার৷ পুলিশি গাফিলতির অভিযোগ উঠলেও এবিষয়ে কোনও মন্তব্যই করতে চাননি বনগাঁ থানার আইসি ও এসডিপিও৷ বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে বলে পুলিশ সূত্রে খবর৷

[সাবেকিয়ানার মোড়কে সম্প্রীতির বার্তা নিয়ে হাজির বালুরঘাট অভিযাত্রী ক্লাব]

স্থানীয় সূত্রে খবর, বিয়ের পরই নিজের শ্যালিকার সঙ্গে বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে অভিযুক্ত সৌরভ৷ অন্তরঙ্গ মুহূর্তের ছবি দেখিয়ে শ্যালিকাকে লাগাতার ধর্ষণের অভিযোগ রয়েছে ধৃতের বিরুদ্ধে৷ এর মধ্যেই বোনের উপর স্বামীর অত্যাচারের প্রতিবাদ করেন স্ত্রী৷ অভিযোগ, প্রতিবাদ জানানোর পর থেকে দিনের পর দিন স্ত্রীয়ের উপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন চালাত সৌরভ৷ পরে, শ্বশুরবাড়িতে গিয়ে গৃহবধূকে খুনের অভিযোগ রয়েছে বনগাঁ থানার নকপুল সীতানাথপুর এলাকায় বাসিন্দা সৌরভের বিরুদ্ধে৷ ঘটনায় অভিযুক্ত জামাইয়ের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চেয়ে ইতিমধ্যেই বনগাঁ থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন মৃত গৃহবধূর বাবা বৃদ্ধ অমল মণ্ডল৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে