৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

দেবব্রত মণ্ডল, বারুইপুর: স্থানীয় তৃণমূল নেতাদের নামে কাটমানি খাওয়ার অভিযোগ তোলায় প্রহৃত বিজেপি কর্মী৷ মেরে হাত ভেঙে দেওয়া হল রবিন দাস নামের ওই ব্যক্তির৷ বৃহস্পতিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিং থানার ইটখোলা অঞ্চলের কৃপাখালী গ্রামে। ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ক্যানিং থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে আহতের পরিবার। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

[ আরও পড়ুন: গাড়ি থামিয়ে দুষ্কৃতীদের গুলি-বোমাবাজি, মুর্শিদাবাদে খুন তৃণমূল নেতা]

আহতের পরিবারের অভিযোগ, সরকারি প্রকল্পে ঘরের টাকা পাইয়ে দেওয়ার নামে রবিন দাসের কাছ থেকে দশ হাজার টাকা কাটমানি নিয়েছে স্থানীয় কয়েকজন তৃণমূল নেতা। বৃহস্পতিবার রাতে সেই টাকাই ফেরত চাইতে যান রবিনবাবু৷ তখন তাঁকে টাকা ফেরত দিতে অস্বীকার করে অভিযুক্তরা৷ বদলে, রাস্তায় ফেলে মারধর করা হয় তাঁকে৷ মেরে ভেঙে দেওয়া হয় বিজেপি কর্মীর হাত। গুরুতর অবস্থায় ওইদিন রাতেই রবিন দাসকে ক্যানিং মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে আসে তাঁর পরিবার। সেখানেই তাঁর চিকিৎসা হয়৷ ঘটনায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ক্যানিং থানায় মামলা দায়ের করেছে প্রহৃতের পরিবার৷ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ৷ যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে অভিযুক্ত তৃণমূল নেতারা৷ তাঁদের পালটা দাবি, ষড়যন্ত্র করে তাঁদের ফাঁসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে৷

প্রসঙ্গত, লোকসভা নির্বাচনে শোচনীয় ফলাফলের পরই দলের জনপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্যে কাটমানির ইস্যুতে সুর চড়িয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ সাধারণ মানুষের টাকা অবিলম্বে ফেরতের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। এরপরই গোটা রাজ্যে তৃণমূল নেতাদের বিরুদ্ধে কাটমানি ইস্যুতে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেছে সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে বিরোধীরা৷ এই অভিযোগে বিদ্ধ হয়েছেন শাসকদলের নেতা-মন্ত্রী থেকে শুরু করে তৃণমূলস্তরের কর্মীরাও৷ বাদ যাননি বিধানসভার ডেপুটি মেয়রও৷ কাটমানি কাণ্ডে ইতিমধ্যে গ্রিভান্স সেল তৈরি করেছে সরকার৷ রাজনৈতিক পরিচয় নির্বিশেষে সেই সেলকে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷ বৃহস্পতিবারই তৃণমূল মহাসচিব তথা শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেছেন, ‘‘কাটমানির টাকা যাঁরা নিয়েছেন এবং দিয়েছেন, তাঁরা দু’জনই দোষী। আইনের চোখে দু’জনের বিরুদ্ধেই ব্যবস্থা নেওয়া হবে’’।

[ আরও পড়ুন:  ফের উত্তপ্ত ভাটপাড়া, দুষ্কৃতীদের গুলিতে খুন যুবক ]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং