৩০ কার্তিক  ১৪২৬  রবিবার ১৭ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

শুভদীপ রায়নন্দী, শিলিগুড়ি: বিজেপির বিক্ষোভ কর্মসূচিকে কেন্দ্র করে ধুন্ধুমার শিলিগুড়িতে। বিক্ষোভ তুলতে গেলে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে পুলিশ ও বিজেপি। দীর্ঘক্ষণের চেষ্টায় অবশেষে নিয়ন্ত্রণে এসেছে পরিস্থিতি। সূত্রের খবর, ৫ বিজেপি কর্মীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার সকালে দার্জিলিংয়ের সাংসদকে হেনস্তার ঘটনাকে কেন্দ্র করেই অশান্তির সূত্রপাত। এদিন সকালে একটি অনুষ্ঠানে যোগ দিতে কালিম্পংয়ে যাচ্ছিলেন বিজেপি সাংসদ রাজু সিং বিস্তা। অভিযোগ, সেই সময় মন্দির খোলা এলাকায় প্রায় ৮০ থেকে ১০০ জন তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী মদ্যপ অবস্থায় তাঁর গাড়ি ঘিরে ফেলে। কালো পতাকা দেখিয়ে তাঁকে গো ব্যাক স্লোগানও দিতে শুরু করে তারা। আচমকাই ধারালো অস্ত্র নিয়ে দুষ্কৃতীরা সাংসদ ও তাঁর সঙ্গীদের আক্রমণ করে। আক্রমণের ঘটনায় আহত হন বেশ কয়েকজন বিজেপি ও জেজিএম কর্মীও। সাংসদকে বাঁচাতে গিয়ে গুরুতরভাবে জখম হয়েছেন তাঁর দেহরক্ষীও। ঘটনার প্রতিবাদে শিলিগুড়িতে বিক্ষোভের ডাক দেয় জেলা বিজেপি নেতৃত্ব।

পরিকল্পনামাফিক মঙ্গলবার বিকেলে রাজু সিং বিস্তকে আক্রমণের প্রতিবাদে শিলিগুড়িতে বিক্ষোভ কর্মসূচিতে যোগ দেয় বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা। অনুমতি না থাকায় বিক্ষোভ কর্মসূচিতে বাধা দেয় পুলিশ। পুলিশের বাধা উপেক্ষা করেই কর্মসূচি সফল করার চেষ্টা করে বিজেপি কর্মীরা। এরপরই ধস্তাধস্তিতে জড়িয়ে পড়ে পুলিশ ও বিজেপি কর্মীরা। লাঠিচার্জও করে পুলিশ। দীর্ঘক্ষণ পর স্বাভাবিক হয় পরিস্থিতি। ঘটনাস্থল থেকে বিজেপির যুব সভাপতি, সহ-সম্পাদক ও জেলা বিজেপি সাধারণ সম্পাদক-সহ ৫ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এখনও চাপা উত্তেজনা রয়েছে এলাকায়।

[আরও পড়ুন: দার্জিলিংয়ের সাংসদকে হেনস্তা, কালো পতাকা দেখিয়ে ‘গো ব্যাক’ স্লোগান]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং