Advertisement
Advertisement
মৌসম

‘বিশ্বাসঘাতক’ মৌসম, রাহুলের সুরে কটাক্ষ কংগ্রেস নেত্রী নাগমার

প্রাক্তন অভিনেত্রীর নিশানায় মোদি সরকার৷

Congress leader Nagma slams Mousam Nur in Malda
Published by: Tanujit Das
  • Posted:April 13, 2019 8:05 pm
  • Updated:April 22, 2019 4:18 pm

বাবুল হক, মালদহ: চাঁচলের নির্বাচনী প্রচারে এসে সুর বেঁধে দিয়ে গিয়েছিলেন দলের সভাপতি৷ এবার সেই সুরেই গলা মেলালেন কংগ্রেস নেত্রী তথা বলিউড অভিনেত্রী নাগমা৷ মালদহে প্রচারে এসে রাহুল গান্ধীর সুরেই মৌসম নূরকে ‘বিশ্বাসঘাতক’ বলে কটাক্ষ করলেন তিনি।

[ আরও পড়ুন: কেন্দ্রীয় বাহিনীর দাবিতে এবার পথে নামলেন ভোটকর্মীদের পরিজনরা  ]

Advertisement

মালদহ উত্তরের কংগ্রেস প্রার্থী ইশা খান চৌধুরির সমর্থনে শনিবার মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুরে কংগ্রেসের নির্বাচনী জনসভায় অংশগ্রহণ করেন নাগমা৷ এই সভামঞ্চ থেকেই একদা উত্তর মালদহের কংগ্রেস সাংসদ তথা লোকসভা নির্বাচনে ওই কেন্দ্র থেকে তৃণমূলের প্রার্থী মৌসম নূরকে একহাত নেন তিনি৷ বলেন, “আবহাওয়া যেমন নিজের অবস্থান পরিবর্তন করে, ঠিক তেমনই এই কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী মৌসম নূর দল পরিবর্তন করেছেন। মৌসম নূর কংগ্রেসের হয়ে দু’বার সাংসদ হয়েছেন। কিন্তু তিনি এবার দলের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করেছেন উনি। কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন। এই নির্বাচনে মানুষ তাঁকে যোগ্য জবাব দেবেন।” কেবল মৌসমকে কটাক্ষ করাই নয়, পাশাপাশি ওই সভা থেকে রাহুল গান্ধীকে প্রধানমন্ত্রী করারও দাবি করেন নাগমা৷ বলেন, “রাহুল গান্ধীকে দেশের প্রধানমন্ত্রী করতেই হবে। আপনারা কংগ্রেসকে সমর্থন করুন। তাহলেই রাহুলজি প্রধানমন্ত্রী হবেন।”

Advertisement

[ আরও পড়ুন: সিপিএমের সঙ্গে ডালুর হাত ধরাধরি দেখলে আত্মহত্যা করতেন গনি: ফিরহাদ হাকিম ]

শনিবার সভামঞ্চ থেকে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে কড়া সমালোচনা করেন নাগমা। বলেন, “মোদি সরকারের ‘বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও’ প্রকল্পটি বিজ্ঞাপনের মধ্যেই সীমাবদ্ধ রয়েছে। এই প্রকল্পের ৫৬ শতাংশ টাকা বিজ্ঞাপনে খরচ হয়েছে। সারাদেশে বেটিদের অবস্থা কী, তা সকলেই জানেন। মহিলাদের উপর অত্যাচার কমেনি, বরং বেড়েছে। ক্ষমতায় আসার আগে মোদি সরকার যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, তার একটাও পালন করেননি। গরিবের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে ১৫ লক্ষ টাকা আসবে বলেছিল ওঁরা। তা এসেছে কি? দেশে কংগ্রেসকে ফিরিয়ে আনতেই হবে। রাহুল গান্ধীকে প্রধানমন্ত্রী করতেই হবে। রাহুল গান্ধী প্রধানমন্ত্রী হলে তবেই দেশের গরিব মানুষরা মাথা তুলে দাঁড়াতে পারবেন। যা কংগ্রেসের ইস্তেহারে তুলে ধরেছেন রাহুল গান্ধী।” এদিন দুপুর একটা নাগাদ হেলিকপ্টারে করে হরিশ্চন্দ্রপুর-১ নম্বর ব্লকের খানতা এলাকায় পৌঁছান বলিউডের এই অভিনেত্রী। সেখানে প্রায় ৪৫ মিনিট সভা করে তিনি সরাসরি চলে যান রতুয়া থানা সংলগ্ন মাঠে। সেখানেও কংগ্রেস প্রার্থী ইশা খান চৌধুরির সমর্থনে নির্বাচনী জনসভা করেন। বলিউড সুন্দরীকে দেখার জন্য এদিন মানুষের মধ্যে উত্তেজনা ছিল চরমে৷ মঞ্চে উঠে বলিউড অভিনেত্রীর সঙ্গে সেলফি তোলার হুড়োহুড়ি পড়ে যায় কংগ্রেস সমর্থকদের মধ্যে। একতার ছবি তুলে ধরতে এদিন নাগমার সভামঞ্চে উপস্থিত ছিলেন কংগ্রেসের বিধায়করা এবং স্থানীয় নেতারা।

ছবি: হরেন চৌধুরি

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ