১২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  সোমবার ২৯ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

অবৈধ নির্মাণে সায় দিয়ে কাটমানি গ্রহণ, বিধায়কের বিরুদ্ধে পোস্টার কাটোয়ায়

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: September 7, 2019 6:48 pm|    Updated: September 7, 2019 7:09 pm

Cut money poster against MLA of katwa Rabindranath Chatterjee

ধীমান রায়, কাটোয়া: এবার কাটোয়ার বিধায়ক তথা কাটোয়া পুরসভার চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে কাটমানি পোস্টার পড়ল তাঁর নিজের ওয়ার্ডেই। শনিবার সকালেই পূর্ব বর্ধমানের কাটোয়ার হরগৌরী পাড়ার বাসিন্দাদের নজরে পড়ে পোস্টার। জানা গিয়েছে, মোটা অংকের কাটমানি নিয়ে এলাকায় বেআইনি নির্মাণ ও এক যুবককে চাকরি দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে। যদিও নিজের বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন পুরপ্রধান।  

[আরও পড়ুন: ‘নিরাশ হতে ওস্তাদ সবাই’, চন্দ্রযান ২ নিয়ে হা-হুতাশের মাঝে সমালোচনা বাঙালি বিজ্ঞানীর]

জানা গিয়েছে, কাটোয়া পুরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের নিচুবাজারে একটি জুতোর দোকনের ভিতরে সিঁড়ি করে দোতলা ভবন নির্মাণের কাজ শুরু করেছিলেন দোকানের মালিক। কিন্তু কাজ শুরুর পর থেকেই স্থানীয়রা অভিযোগ তোলেন পুরসভার অনুমতি না নিয়েই ওই নির্মাণ কাজ করা হচ্ছে। নির্মাণের বিরোধিতা করে গত আগষ্ট মাসে ওই এলাকায় পোস্টার পড়ে। সেই পোস্টারেও চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে কাটমানির বিনিময়ে বেআইনি নির্মাণে সহযোগিতার অভিযোগ উঠেছিল। শনিবারও ফের একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটে।  এদিন সকালে ৬ নম্বর ওয়ার্ডের হরগৌরী পাড়ার বাসিন্দারা এলাকায় একাধিক পোস্টার দেখতে পান। পোস্টারে লেখা ছিল, “বিধায়ক কত কাটমানিতে রফা হল?” পাশাপাশি, টাকার বিনিময়ে কাটোয়া ১ নম্বর কালীবাড়ি ঘাটপাড়ার বাসিন্দা এক যুবককে পুরসভায় অস্থায়ী পদে চাকরি দেওয়ার অভিযোগও উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে।

যদিও নিজের বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বিধায়ক। ওই যুবককে চাকরি দেওয়ার প্রসঙ্গে রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় সাফ জানান, “ওই যুবক ইঞ্জিনিয়ারিং পাশ। তাঁর সার্টিফিকেট রয়েছে। তাই যোগ্য বিবেচনা করে নিয়োগ করা হয়েছে। চাকরির জন্য কোনওরকম টাকা পয়সা লেনদেন হয়নি।” পাশাপাশি, রবীন্দ্রনাথবাবু জানিয়েছেন, ৬ নম্বর ওয়ার্ডের দোকানঘরের ওপর দোতলা নির্মাণের কাজ অনেক আগেই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। বাড়ির মালিককে নোটিস পাঠিয়ে প্রয়োজনীয় নথিপত্র দাখিলও করতে বলা হয়েছে। তাঁর অভিযোগ, বিরোধিরা ইচ্ছাকৃত রাজনৈতিক স্বার্থে এসব ভুয়ো তথ্য রটাচ্ছে।

ছবি: জয়ন্ত সাহা

[আরও পড়ুন: ‘একদিন সফল হবেই মিশন চন্দ্রযান’, আশাবাদী বাংলার বিজ্ঞানী চন্দ্রকান্তের বাবা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে