Advertisement
Advertisement
কাটমানি

কাটমানির সঙ্গে জুড়ল পুরসভায় দুর্নীতির অভিযোগ, উত্তরপাড়ায় পোস্টার ঘিরে উত্তেজনা

উত্তরপাড়ার একাধিক জায়গায় পড়া পোস্টারে বিজেপির নাম৷

Cutmoney posters spark agitation at Uttarpara,Hooghly
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:July 7, 2019 8:47 pm
  • Updated:July 7, 2019 8:47 pm

দিব্যেন্দু মজুমদার, হুগলি: কাটমানি বিক্ষোভের রেশ এবার আছড়ে পড়ল হুগলির উত্তরপাড়ায়৷ পুরএলাকার বিভিন্ন জায়গায় কাটমানির পাশাপাশি পুর পরিষেবা সংক্রান্ত দুর্নীতির অভিযোগে পড়ল পোস্টার৷ ছড়াল ব্যাপক চাঞ্চল্য। অভিযোগ, বিজেপির তফসিলি মোর্চার মাখলা মণ্ডলের পক্ষ থেকে কে বা কারা রাতের অন্ধকারে উত্তরপাড়ার ক্রাউন গেট, উত্তরপাড়া স্টেট জেনারেল হাসপাতাল লাগোয়া এলাকা-সহ আরও দু-একটি জায়গায় ফ্লেক্স লাগিয়ে দিয়ে যায়। সকালে তা এলাকাবাসীর নজরে আসার পরই পোস্টারগুলি ছিঁড়ে ফেলা হয়।

[আরও পড়ুন: বিজেপির রক্তদান শিবিরে উপস্থিতির জের? দত্তপুকুরের আইসি বরখাস্তে বাড়ছে জল্পনা]

তবে এই পোস্টারে ব্যক্তিগতভাবে কাউকে আক্রমণ করা না হলেও, স্থানীয় উত্তরপাড়া কোতরং পুরসভার বিরুদ্ধে বেহাল পরিষেবা ও বিভিন্ন দুর্নীতির অভিযোগের উল্লেখ আছে। সম্প্রতি কোন্নগরের কানাইপুর পঞ্চায়েত এলাকায় পঞ্চায়েত প্রধানের বিরুদ্ধেও কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ তুলে পোস্টার পড়েছিল। এদিন সকালে ঘুম থেকে উঠেই এলাকাবাসী পুরসভার বিরুদ্ধে পোস্টার দেখে চমকে যান। লোকমুখে পোস্টারের কথা ছড়িয়ে পড়ে। পোস্টারে নিকাশি ব্যবস্থা বেহাল, অল্প বৃষ্টিতে রাস্তায় জল জমে, পানীয় জলের সমস্যা, যানজট, নিকাশি নালা তৈরির নামে বড় বড় গাছ কেটে বিক্রি করে দেওয়া, শৌচালয় নির্মাণে দুর্নীতি, প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় কাটমানি নেওয়ার কথা উল্লেখ রয়েছে৷ তবে সাধারণ মানুষ মনে করছে, এধরনের প্রচার বিভ্রান্তি ছড়ানোর জন্যই চলছে।

Advertisement

এ বিষয়ে বিজেপির শ্রীরামপুর সাংগঠনিক জেলার সভাপতি শ্যামল বসুর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তাঁর মন্তব্য, ‘দিদিমনি নিজেই তো বলেছেন, তাঁর দলের লোক কাটমানি নিয়েছে। সাধারণ মানুষ এই কাটমানির বিরুদ্ধে আন্দোলন করছে। তাঁদের আন্দোলনে আমরা সবসময় আছি।’ পুরসভার কোন কোন ব্যক্তির বিরুদ্ধে কাটমানি নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে? এই প্রশ্ন করা হলে শ্যামলবাবু বলেন, ‘এটা উত্তরপাড়ার মাখলা মণ্ডলের তফসিলি মোর্চার দায়িত্বে যারা রয়েছেন, তারাই বলতে পারবেন।’ তবে শ্যামল বসুর দাবি, কাটমানির সমস্যাটা সর্বস্তরেই রয়েছে৷

Advertisement

[আরও পড়ুন: বিপ্লব মিত্রর বিরুদ্ধে ক্ষোভ, বিজেপি থেকে সিপিএমে যোগ দিলেন একাধিক কর্মী]

স্থানীয় বাসিন্দা অমর মণ্ডলের কথায়, ‘পোস্টারের বিষয়টির কোনও বিশ্বাসযোগ্যতা নেই। পোস্টার লাগানোর জন্যই কেউ বা কারা লাগিয়ে দিচ্ছে।’ শান্তিনগরের এক বাসিন্দা জানাচ্ছেন, ‘বেহাল পুর পরিষেবার জন্য দায়ী পুর নাগরিকরা। পুরসভা থেকে লোক এসে রোজ আবর্জনা নিয়ে গেলেও ফ্ল্যাট বাড়ির উপর থেকে প্লাস্টিকের প্যাকেটে করে আবর্জনা রাস্তায় ফেলা হচ্ছে৷ সেই প্লাস্টিক নর্দমায় গিয়ে জমা হচ্ছে। জল জমে যাচ্ছে। একটু বৃষ্টি হলেই রাস্তায় জল দাঁড়িয়ে যাচ্ছে। শুধু পৌরসভাকে দায়ী করলে হবে না। মানুষকে একজন নাগরিক হিসেবে নিজের দায়িত্ব পালন করার বিষয়েও সচেতন হতে হবে।’ এবিষয়ে উত্তরপাড়া-কোতরং পুরসভার চেয়ারম্যান দিলীপ যাদব বলেন, ‘নাম-গোত্রহীন, পরিচয়হীন এই সব পোস্টারে আমি কোনও গুরুত্বই দিই না। সাহস থাকলে এসে নির্দিষ্ট করে অভিযোগ জানাক, আমি তার জবাব দেব।’ তবে পোস্টারগুলি ঘিরে বেশ উত্তপ্ত হয়ে রয়েছে উত্তরপাড়া৷

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ