১ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৯ অক্টোবর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

১ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৯ অক্টোবর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

রঞ্জন মহাপাত্র, কাঁথি: দিঘায় বেড়াতে গিয়ে সমুদ্রের পাড়ে ঘোড়ার পিঠে চড়ে ঘুরে বেড়ান অনেকেই। এই মজা থেকে বঞ্চিত হতে চান না কেউই। কিন্তু সেই দিন শেষ। কারণ, পূর্ব মেদিনীপুর জেলা প্রশাসনের নির্দেশে এবার থেকে সমুদ্রের পাড়ে ঘোড়ার পিঠে চড়ে আর ঘুরতে পারবেন না পর্যটকরা। জেলা প্রশাসনের সিদ্ধান্তে বেজায় হতাশ ঘোড়ার মালিকরা। কিছুটা হলেও মনখারাপ পর্যটকদেরও।

[আরও পড়ুন: দিনহাটায় পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে গুলি-বোমাবাজি, কাঠগড়ায় বিজেপি]

পূর্ব মেদিনীপুর জেলা প্রশাসনের দাবি, ঘোড়ার ক্ষুরে দিঘার সমুদ্র যাওয়ার রাস্তার ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে। এমনকি সৈকত সরণিতে ঘোড়ার জেরে অনেক সময়ই জখম হচ্ছেন পর্যটকরা। এছাড়াও সন্ধের পর সৈকতে বাড়ছিল রিমোটচালিত ছোট ছোট গাড়ির দাপট। শিশুদের বিনোদনের ওই ব্যবসায় সমুদ্র চত্বরে নিরাপত্তাও বিঘ্নিত হচ্ছে বলেই দাবি জেলা প্রশাসনের। তাই নিরাপত্তার কারণেই দিঘার সমুদ্র লাগোয়া সৈকত সরণিতে ঘোড়া কিংবা ছোট ছোট রিমোটচালিত গাড়িও নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

Horse

এ প্রসঙ্গে জেলাশাসক পার্থ ঘোষ বলেন, “সৈকত সরণিতে ঘোড়সাওয়ারী নিষিদ্ধ করা হয়েছে। কারণ, সৈকত সরণিতে হাঁটতে গিয়ে অনেক সময় ঘোড়ার ক্ষুরে আঘাত পান পর্যটকরা। তাই সৈকত সরণিতে ঘোড়া চলাচল নিষিদ্ধ করা হয়েছে। পাশাপাশি ছোট গাড়ী চলাচলও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।”

[আরও পড়ুন: ছুটির দিনে পুজোর কেনাকাটিতে বাদ সাধবে না তো বৃষ্টি? জেনে নিন কী বলছে আবহাওয়া দপ্তর]

দিঘার সমুদ্র চত্বরে রীতিমতো মাইকিং করে নিষেধাজ্ঞার কথা প্রচার করা হয়। আগামী ১ সপ্তাহের মধ্যেই নির্দেশ কার্যকর করার কথাও ঘোষণা করা হয়েছে। তবে পুজোর মুখে প্রশাসনিক নির্দেশে যথেষ্ট হতাশ ঘোড়ার মালিকেরা। পর্যটকরা ঘোড়া না চড়লে কীভাবে পেট চলবে, এই চিন্তা আপাতত গ্রাস করেছে তাঁদের। কিছুটা হলেও মনখারাপ পর্যটকদের।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং