BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্যার বাড়ি লক্ষ্য করে বোমাবাজি-গুলি, ধারালো অস্ত্রের কোপ স্বামীকে

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: May 6, 2020 2:51 pm|    Updated: May 6, 2020 2:51 pm

An Images

ব্রতদীপ ভট্টাচার্য: তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্যের বাড়িতে হামলা, বোমাবাজির ঘটনায় মঙ্গলবার গভীর রাতে উত্তপ্ত হয়ে উঠল দেগঙ্গা। ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা হয় পঞ্চায়েত সদস্যের স্বামীকে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে ভরতি তিনি। মারধর করা হয়েছে পঞ্চায়েত সদস্যা পারভিনা বিবি ও তাঁর বৃদ্ধ শ্বশুরকেও। অভিযুক্তদের শাস্তির দাবিতে সরব স্থানীয়রা। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে দেগঙ্গা থানার পুলিশ।

দেগঙ্গার ঝিকড়া গ্রামের বাসিন্দা পঞ্চায়েত সদস্যা পারভিনা বিবি। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার রাতে আচমকাই তাঁর বাড়ির বাইরে জড়ো হয় ১০-১২ জন দুষ্কৃতীর একটি দল। বোমাবাজির পাশাপাশি বাড়ি লক্ষ্য করে গুলি চালায় তারা। অভিযোগ, আচমকাই ভিতরে ঢুকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে পারভিনা বিবির স্বামী আসাদুল হককে কোপায় অভিযুক্তরা। বেধড়ক মারধর করা হয় ওই পঞ্চায়েত সদস্যাকেও। রেহাই পাননি তাঁর বৃদ্ধ শ্বশুর। অভিযোগ মারধরের পর আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয় পঞ্চায়েত সদস্যের বাড়িতে। পুড়ে ছাই হয়ে গিয়েছে মোটবাইক, ল্যাপটপ-সহ বিভিন্ন সামগ্রী। খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থলে যায় দেগঙ্গা থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী।

[আরও পড়ুন: ‘একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষকে ফিরিয়ে আনা হচ্ছে’, রাজ্যের বিরুদ্ধে ফের তোপ দিলীপের]

পুলিশ আসতেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানীয়রা। পুলিশের দুটি গাড়ির সামনে গাছের গুঁড়ি ফেলে অপরাধীদের গ্ৰেপ্তারের দাবিতে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন মহিলারা। প্রায় চার ঘণ্টা পর পুলিশের আশ্বাসে ওঠে অবরোধ। পুলিশ সূত্রে খবর, বর্তমানে হাসপাতালে ভরতি আক্রান্ত আসাদুল। অভিযুক্তদের খোঁজে শুরু হয়েছে তদন্ত। পাশাপাশি এই হামলা পিছনে কী কারণ রয়েছে তাও খতিয়ে দেখছে দেগঙ্গা থানার আধিকারিকরা।

[আরও পড়ুন: করোনা আক্রান্ত কেন্দ্রীয় দলের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা ৬ জওয়ান, ভরতি বাঙ্গুর হাসপাতালে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement