BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মাওবাদী মুক্ত দেশ গড়তে ব্যর্থ মোদি, গড়চিরৌলির হামলা নিয়ে তোপ মমতার

Published by: Sayani Sen |    Posted: May 1, 2019 4:20 pm|    Updated: May 1, 2019 6:22 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: গড়চিরৌলিতে আইইডি বিস্ফোরণে শহিদ হয়েছেন অন্তত ১৬ জন জওয়ান৷ এই ঘটনার  কিছুক্ষণ পরেই বহু মাইল দূরে হাওড়ার আন্দুলে জনসভা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ ওই মঞ্চ থেকে এই ইস্যুতে সুর চড়ালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ বাংলা মাওবাদী মুক্ত বলেও দাবি করেন তিনি৷ কেন মাওবাদী হামলার মতো ঘটনা রুখতে পারছেন না মোদি, সেই প্রশ্নও তোলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী৷ পাশাপাশি, এদিনের জনসভার মঞ্চ থেকে নরেন্দ্র মোদি এবং অমিত শাহকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন তিনি৷ তাদের যোগ্যতা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করেন তৃণমূল নেত্রী৷ সাত দফায় হওয়া লোকসভা নির্বাচন নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেন তিনি৷ 

[ আরও পড়ুন: ‘অনুপ্রবেশকারীরা মমতার ভোটব্যাংক’, তোপ দাগলেন অমিত শাহ]

লোকসভা নির্বাচনের  পঞ্চম দফায় ৬ মে হাওড়ায় ভোট৷ তার আগে তৃণমূল প্রার্থী প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়ের সমর্থনে আন্দুলে জনসভা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের৷ এদিনের দীর্ঘ বক্তৃতায় নরেন্দ্র মোদি এবং অমিত শাহকে নিশানা করেন তিনি৷ মোদি এবং শাহের যোগ্যতা নিয়েও প্রশ্ন তোলের মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনি বলেন,‘‘আমাদের ব্লক সভাপতির যা যোগ্যতা রয়েছে, তা অমিত শাহের নেই৷ তৃণমূল জেলা সভাপতির যা যোগ্যতা রয়েছে তা নরেন্দ্র মোদির নেই৷’’ মোদি জনসভায় মিথ্যা বলেন বলেও অভিযোগ তৃণমূল নেত্রীর৷ ধূলাগড় থেকে মাত্র কয়েক কিলোমিটার দূরেই এদিন জনসভা করেন মমতা৷ এদিনের সভা থেকে ধূলাগড়ের ইস্যু তুলেও বিজেপির বিরুদ্ধে ইচ্ছা করে অশান্তি লাগানোর অভিযোগ করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ গেরুয়া শিবিরকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করে তিনি বলেন,‘‘বিজেপি ফেক পার্টি, নির্লজ্জ, বেহায়ার দল৷ দালালি করার জন্য ঘুরে বেড়াচ্ছে৷’’

[ আরও পড়ুন: প্রথম লোকসভা নির্বাচনের স্মৃতি নিয়ে এবারও ভোট দেবেন শতায়ু অতুল]

প্রায় প্রতিবছরই বর্ষায় জলমগ্ন হয়ে পড়ে হাওড়ার উদয়নারায়ণপুরের বিস্তীর্ণ এলাকা৷ বিপর্যয়ের সময় বিজেপি নেতাদের এলাকায় দেখা যায় না বলে অভিযোগ করেন মমতা৷ উদয়নারায়ণপুরের প্লাবনের পাশাপাশি ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ প্রসঙ্গেও এদিনের জনসভা থেকে উদ্বেগ প্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী৷ ইতিমধ্যেই ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় আগাম সতর্কতা নিয়ে  জরুরি বৈঠকও করা হয়েছে নবান্নে৷ ঘূর্ণিঝড়ের মোকাবিলায় প্রশাসনের তরফে যথেষ্ট প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে বলেও জনসভা থেকে জানান মুখ্যমন্ত্রী৷ কলেজে পড়াকালীন বারবার হাওড়ার আন্দুলে এসেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে মঞ্চে উঠে নস্ট্যালজিক হয়ে পড়েন তিনি৷ জনসভার শুরুতেই আবেগের সুর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গলায়৷ পুরনো নানা স্মৃতি সভায় উপস্থিত সকলের সঙ্গে ভাগ করে নেন মুখ্যমন্ত্রী৷ জনসভার পর শালিমার থেকে হাওড়ার পিলখানা পর্যন্ত পদযাত্রা করেন তিনি৷ 

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement