BREAKING NEWS

১৪  আষাঢ়  ১৪২৯  বুধবার ২৯ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘হয় জলে অথবা জঙ্গলে না হলে পদ্মফুলে’, নাম না করে ‘বেসুরো’ রাজীবকে খোঁচা উদয়নের

Published by: Sayani Sen |    Posted: December 12, 2020 12:22 pm|    Updated: December 12, 2020 12:23 pm

MLA Udayan Guha indirectly slams minister Rajib Banerjee in a facebook post ।Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিনকয়েক ধরেই ‘বেসুরো’ বনমন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় (Rajib Banerjee)। অরাজনৈতিক সভায় দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন আগেই। শুক্রবারও পুরোহিতদের এক সভায় শ্রীরামকৃষ্ণের বাণীকে হাতিয়ার করে বেশ ইঙ্গিতপূর্ণ বক্তব্য রেখেছেন রাজ্যের মন্ত্রী। আর তার সূত্র ধরেই এবার নাম না করে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়কে খোঁচা দিলেন বিধায়ক উদয়ন গুহ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি লিখেছেন, “‌হয় জলে (‌সেচ) অথবা জঙ্গলে (বন) না হলে পদ্মফুলে, যত মত তত পথ‌।”

হয় জলে(সেচ) অথবা জঙ্গলে (বন) নাহলে পদ্মফুলে যত মত তত পথ

Posted by Udayan Guha on Friday, 11 December 2020

উদয়ন গুহ (Udayan Guha) তাঁর ফেসবুক পোস্টে কারও নাম উল্লেখ করেননি ঠিকই। তবে তাঁর এই পোস্ট যে আদতে বনমন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়কে খোঁচা দিয়েই করা, সে বিষয়ে কোনও মতপার্থক্য থাকতে পারে না বলেই মনে করছেন ওয়াকিবহাল মহলের অনেকেই। কারণ, একসময় রাজ্যের সেচ দপ্তর সামলাতেন মন্ত্রী রাজীব। আর বর্তমানে রাজ্যের বনমন্ত্রী তিনি। এছাড়া শুক্রবার শ্রীরামকৃষ্ণের বাণীকে হাতিয়ার করে “যত মত তত পথ” মন্তব্য করেছিলেন ‘বিদ্রোহী’ মন্ত্রী। তাই উদয়ন গুহ যে আদতে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়কেই খোঁচা দিয়েছেন তা স্পষ্ট।

[আরও পড়ুন: নজরে ভোট প্রস্তুতি, রাজ্যে আসছেন উপ মুখ্য নির্বাচন কমিশনার-সহ দুই কর্তা]

উল্লেখ্য, শুক্রবার রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “ঠাকুর বলে গিয়েছেন যত মত তত পথ।” আর শ্রীরামকৃষ্ণের এই মতকে ব্যাখ্যা করতে গিয়ে আগামী দিনে রাজনীতির আঙিনায় তাঁর কাজ কি হবে তা নিয়ে প্রশ্নচিহ্ন রেখেছেন বনমন্ত্রী। রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় অরাজনৈতিক সমাবেশে বলেন, “মানুষের কাজ করার জন্য কোনভাবে যদি অসুবিধা হচ্ছে মনে হয় তাহলে অনেক পথ খোলা আছে। সেই পথ থেকে কেউ কাউকে সরাতে পারবে বলে আমি মনে করি না।” কিন্তু কি সেই পথ সে বিষয়ে খোলসা করে কোনও কথা বলেননি বনমন্ত্রী। বরং প্রত্যেক প্রশ্নের উত্তরেই রাজীববাবু এটা অরাজনৈতিক সমাবেশ। এখানে রাজনৈতিক কথা বলা শোভা পায় না বলে এড়িয়ে গিয়েছেন। অরাজনৈতিক সভায় রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্তব্য যে ফের জল্পনার নয়া রসদ জুগিয়েছে তা বলাই যায়।

[আরও পড়ুন: তৃণমূলের পার্টি অফিস ভাড়া কন্ট্রাক্টরকে! পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতির বিরুদ্ধে সরব দলেরই একাংশ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে