১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

টলিপাড়া নয়, শঙ্কুদেবকে মূলধারার রাজনীতিতেই চান মুকুল রায়

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: July 4, 2019 9:48 pm|    Updated: July 4, 2019 9:58 pm

Mukul Roy wants Shanku Dev Panda to foucs on mainstream politics

রূপায়ন গঙ্গোপাধ্যায় :  সামনেই লক্ষ্য বিধানসভা। তাই ঘাসফুল বনাম পদ্মফুলের লড়াই রাজনীতির ময়দান ছাড়িয়ে গড়িয়েছে গ্ল্যামার ইন্ডাস্ট্রির দুয়ার অবধি। ইন্ডাস্ট্রিতেও এখন রাজনীতির রং বলেছে। একদিকে স্বরূপ বিশ্বাস, অন্যদিকে বিজেপি পরিচালিত দুটি সংগঠন। এমতাবস্থায়, বিজেপি চাইছে না টলিউডে গেরুয়া শিবির নিয়ে আর কোনও জলঘোলা হোক। আর তাই বোধহয়, শঙ্কুদেব মূলধারার রাজনীতিতে মনোনিবেশ করুক এমনটাই চাইছেন মুকুল রায়। টলিউডে শ্রমিক সংগঠন বা অন্য কোনও সহযোগী সংগঠনে নয়। বরং বিজেপির হয়ে মূল ধারার রাজনীতিতেই বেশি সময় দিক শঙ্কুদেব পন্ডা, এমনটাই চাইছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়। শঙ্কুকে ইতিমধ্যে সেকথা মুকুল জানিয়েও দিয়েছেন বলে খবর।

[আরও পড়ুন: বিদেশে বিয়ে-স্বদেশে রিসেপশন, নিখিল-নুসরতকে শুভেচ্ছা জানিয়ে গেলেন মুখ্যমন্ত্রী]

তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রাক্তন রাজ্য সভাপতি শঙ্কুদেবের বিজেপিতে যোগদান মুকুল রায়ের হাত ধরেই। যোগদানের পর টলিউডের শিল্পী ও কলাকুশলীদের নিয়ে সংগঠন তৈরিতে বেশ তৎপর হয়েছেন শঙ্কুদেব। ‘বঙ্গীয় চলচ্চিত্র পরিষদ’ নামে সদ্য এক সংগঠন শুরু করেছেন তিনি। সেই সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক হিসাবে ইদানিং অনেকটা সময়ও দিচ্ছেন। টলিউডের সঙ্গে শঙ্কুদেবের যোগাযোগ নতুন নয়। বেশ কয়েক বছর ধরেই তৈরি হয়েছে সেই যোগসূত্র। ইতিমধ্যে দু’টি বাংলা ছবিও পরিচালনা করেছেন তিনি। যার একটি ছবি মুক্তিও পেয়েছে। এই যোগাযোগ থেকেই টলিউডে কলাকুশলীদের নিয়ে সংগঠন তৈরিতে উদ্যোগ নিয়েছেন প্রাক্তন এই  ছাত্রনেতা।

কিন্তু শঙ্কুকে নিয়ে মুকুলের ভিন্ন পরিকল্পনা রয়েছে বলেই সূত্রের খবর। মুকুল রায়ের ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে খবর, সামনেই বিধানসভা নির্বাচন। মুকুল চান, এই সময় মূলধারার রাজনীতিতেই যেন বেশি সময় দেন শঙ্কুদেব। কারণ দীর্ঘদিন ছাত্র রাজনীতি করার সুবাদে তরুণ সমাজের কাছে তিনি বেশ পরিচিত মুখ। তাই সহযোগী কোনও সংগঠনে না থেকে রাজনীতির মূলধারাতেই শঙ্কুকে বেশি করে চাইছেন মুকুল। এমনিতেই গত ক’দিন ধরে টলিউডে গেরুয়া শিবিরের দু’টি সংগঠন নিয়ে জট বাড়ছে। একটি বঙ্গীয় চলচ্চিত্র পরিষদ। অন্যটি ইস্টার্ন ইন্ডিয়া মোশন পিকচারস অ্যান্ড কালচারাল কনফেডারেশন। রাজনৈতিক মহলের একাংশ মনে করছে, এই পরিস্থিতিতে যাতে জট আরও না বাড়ে, সেজন্যই শঙ্কুকে বঙ্গীয় চলচ্চিত্র পরিষদ থেকে সরিয়ে নিতে চাইছেন মুকুল। প্রকাশ্যে মুকুল রায় অবশ্য বলেছেন, মূলধারার রাজনীতিতেই শঙ্কুর বেশি মনোযোগী হওয়া উচিত৷

[আরও পড়ুন: সংশোধনাগারে ওয়ার্কশপ বন্ধের নির্দেশ, প্রতিবাদে মুখ্যমন্ত্রীকে খোলা চিঠি অগ্নিমিত্রার]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে