BREAKING NEWS

১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শনিবার ২৮ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

আমফান পরবর্তী বাংলা দেখতে দিল্লি থেকে রওনা মোদির, মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বসবেন বৈঠকে

Published by: Sayani Sen |    Posted: May 22, 2020 9:33 am|    Updated: May 22, 2020 1:50 pm

Narendra Modi leaves from Delhi for West Bengal

ব্রতদীপ ভট্টাচার্য, বসিরহাট: আমফানে বিপর্যস্ত বাংলার পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে রাজ্যে আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ইতিমধ্যেই দিল্লি থেকে বাংলার উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন তিনি। বসিরহাট কলেজে তৈরি হয়েছে অস্থায়ী হেলিপ্যাড। ওই কলেজেই মুখ্যমন্ত্রী এবং প্রধানমন্ত্রী একসঙ্গে প্রশাসনিক আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। আকাশপথে উত্তর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনার আমফান বিধ্বস্ত এলাকাও পরিদর্শনের কথা রয়েছে তাঁদের।

প্রবল শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আমফান যে বাংলায় ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি করবে, সে আশঙ্কা আগেই ছিল। আবহাওয়া দপ্তরের পূর্বাভাসই যেন সত্যি হল। বুধবারের প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে কলকাতা, উত্তর ২৪ পরগনা, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি, পূর্ব মেদিনীপুরে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ক্ষতি হয়েছে নদিয়ারও। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন আমফানে এখনও পর্যন্ত মোট ৭২ জনের মৃত্যু হয়েছে। নিহতদের পরিবারপিছু আড়াই লক্ষ টাকা করে আর্থিক সাহায্যও ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। ঘূর্ণিঝড় চলাকালীন কন্ট্রোলরুমে বসেই ক্ষয়ক্ষতির কথা ভেবে মাথায় হাত দিয়েছিলেন রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান। ক্ষয়ক্ষতি ঠিক কতটা হয়েছে বৃহস্পতিবার টাস্ক ফোর্সের বৈঠকের পর তা আরও স্পষ্ট হয়। এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্রের সঙ্গে সাহায্যের আরজি জানান মুখ্যমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে আমফান পরবর্তী পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে বাংলায় আসার অনুরোধও জানান তিনি।

[আরও পড়ুন: আমফানে বিপর্যস্ত বাংলা, উদ্ধারে রাজ্যে আরও ৪ দল বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী]

মুখ্যমন্ত্রীর ডাকে সাড়া দিয়েই শুক্রবার বাংলায় আসছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এই প্রথমবার প্রশাসনিক আধিকারিকদের সঙ্গে একযোগে মুখ্যমন্ত্রী এবং প্রধানমন্ত্রী বৈঠক করবেন। প্রধানমন্ত্রীর সফর ঘিরে সাজো সাজো রব বসিরহাটে। ইতিমধ্যেই বসিরহাট কলেজের মাঠে তৈরি হয়েছে অস্থায়ী হেলিপ্যাড। বসিরহাটের কলেজ কার্যত দুর্গে পরিণত হয়েছে। গোটা এলাকা ঘিরে রয়েছে পুলিশ ও এফটিজি। জানা গিয়েছে, দুর্গত এলাকা পরিদর্শনের পর কলেজের একটি অফিস ঘরেই মমতা-মোদি বৈঠকে বসবেন। বৈঠক ঘিরে সাজসাজ রব বসিরহাটজুড়ে। লকডাউনের জেরে এমনিতেই যান চলাচল নিয়ন্ত্রিত ছিল। মোদি আসায় সাধারণের চলাচল আরও নিয়ন্ত্রিত। পুলিশ কার্যত দখল নিয়ে নিয়েছে এলাকার। 

[আরও পড়ুন: আমফানে সুন্দরবনে স্তব্ধ বিদ্যুৎ পরিষেবা, স্বাভাবিক হতে লাগতে পারে মাসখানেক]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে