৩০ আশ্বিন  ১৪২৬  শুক্রবার ১৮ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

দেবব্রত মণ্ডল, বারুইপুর: বড়সড় সাফল্য পুলিশের। কলকাতা থেকে অপহরণের তিনদিনের মধ্যে ডানকুনি থেকে ব্যবসায়ীকে উদ্ধার করল পুলিশ। ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে ২ জনকে। অন্যান্যদের খোঁজে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: দু’দিনের মধ্যে হারিয়েছেন দুই ছেলেকে, শোকস্তব্ধ কাঁকিনাড়া বোমাবাজিতে মৃত বিশ্বজিতের পরিবার]

ঘটনার সূত্রপাত ১২ সেপ্টেম্বর। ওইদিন ব্যবসা সংক্রান্ত কথা বলতে ধর্মতলার একটি অভিজাত হোটেলে গিয়েছিলেন অভিষেক মুখোপাধ্যায় নামে ওই ব্যবসায়ী। অভিষেক বল্লভ, পুরুষোত্তম ভার্মা, পার্থ, বিশ্বজিৎ নাামে চার যুবকের সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। এছাড়াও সেই বৈঠকে অভি ও রঞ্জন নামে দু’জন ছিলেন। এরপর থেকেই বেপাত্তা হয়ে যান অভিষেকবাবু। এরপর ১৩ সেপ্টেম্বর মাকে ফোন করে ওই ব্যক্তি জানান, হোটেল থেকেই প্রেস লেখা গাড়িতে চোখবন্ধ করে অপহরণ করা হয়েছে তাঁকে। অপহরণকারীরা ৭০ লক্ষ টাকা মুক্তিপণও দাবি করেন। ওই দিনই সোনারপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন ওই ব্যবসায়ীর মা। এরপর বরাহনগর পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করে সোনারপুর থানা। ১৪ তারিখ পরিকল্পনামাফিক মুক্তিপণের টাকা-সহ পুলিশের সঙ্গে ডানকুনি পৌঁছন অভিষেকের মা ও মাসি। কার্যত সিনেমার কায়দায় অপহৃতকে ডানলপ থেকে অভিষেকবাবুকে উদ্ধার করে পুলিশ। 

জানা গিয়েছে, ১২ তারিখ হোটেল থেকে তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয়েছিল ডানলপে। সেখানে একটি কাগজে জোর করে অভিষেকের কাছ থেকে ৭০ লক্ষ টাকা পাওনা আছে বলে লিখিয়ে নেওয়া হয়। এরপরের দিন অর্থাৎ ১৩ সেপ্টেম্বর অভিষেককে গাড়িতে করে ডায়মন্ড হারবার এলাকায় নিয়ে যাওয়া হয়। অভিযোগ, যাওয়ার সময় গাড়িতে তাঁকে বেধড়ক মারধর করা হয়। ডায়মন্ড হারবার পৌঁছনোর পরই অভিষেকবাবুকে দিয়ে বাড়িতে ফোন করায় অভিযুক্তরা। সূত্রের খবর, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে প্রিয়াংশু পল্লে ও জগন্নাথ গুপ্তা নামে দু’জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ধৃতদের বিরুদ্ধে ৩৬৪এ ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। এ বিষয়ে জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইন্দ্রজিৎ বসু বলেন ” ইতিমধ্যেই মূল চক্রী দু’জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্যদের খোঁজে তল্লাশি চলছে।”

[আরও পড়ুন: নানুরে নিহত বিজেপি কর্মীর বাড়িতে মুকুল রায়, পরিবারের পাশে থাকার আশ্বাস]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং