BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৭ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: September 20, 2020 5:01 pm|    Updated: September 20, 2020 5:21 pm

An Images

জ্যোতি চক্রবর্তী, বনগাঁ: করোনা কালে সামাজিক দূরত্ববিধি বজায় রাখার বালাই নেই। একসঙ্গে বাইক নিয়ে পথে নেমে মিছিলে শামিল হয়েছেন হিন্দু সংহতি মঞ্চের সদস্যরা। তাও আবার পুলিশের অনুমতি ছাড়াই। দাড়িভিটে ছাত্রমৃত্যুর প্রতিবাদে বনগাঁয় (Bongaon) মিছিল করতে গিয়ে পুলিশি বাধার মুখে পড়লেন হিন্দু সংহতি মঞ্চের (Hindu Sanhati Mancha) সদস্যরা। বাজেয়াপ্ত করা হল বাইক, আটক হলেন অন্তত ২৫ জন। রবিবার দুপুরে এ নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে উঠল বনগাঁর জোড়া ব্রিজ এলাকা।

Hindu Sanhati Mancha
সংহতি মঞ্চের নেতার সঙ্গে পুলিশের বাদানুবাদ

২০১৮ সালের আজকের দিনে উত্তর দিনাজপুরের দাড়িভিট (Darivit) বিদ্যালয়ে বাংলা শিক্ষক নিয়োগের জটিলতা ঘিরে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল পরিবেশ। অশান্তি থামাতে গুলি চালায় পুলিশ। জনতা-পুলিশ খণ্ডযুদ্ধের মাঝে পড়ে প্রাণ হারায় দুই ছাত্র – রাজেশ সরকার, তাপস বর্মন। এ নিয়ে সেসময় রাজ্য রাজনীতির জল গড়িয়েছিল বহুদূর। বাংলার বদলে ওই স্কুলে উর্দু শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে মমতা সরকারকে কাঠগড়ায় তুলেছিল বিজেপি। বলা হচ্ছিল, বাংলা ভাষার অমর্যাদা করা হচ্ছে। রাজেশ সরকার, তাপর বর্মনকে ভাষার জন্য প্রাণ দিতে হয়েছে, এই উপমাও দেওয়া হয়েছিল। সেই ঘটনায় তদন্ত চলছে এখনও।

[আরও পড়ুন: বিবাদ মেটাতে সিদ্ধান্ত নেবে বিশ্বভারতী ও জেলাপ্রশাসন, জানাল হাই কোর্টের তৈরি কমিটি]

আজ, দু বছর পর সেই ঘটনার প্রতিবাদ করে (in protest of Darivir incident) বনগাঁয় বাইক ব়্যালি কর্মসূচিতে নামেন হিন্দু সংহতি মঞ্চের সদস্যরা। কিন্তু বিনা অনুমতিতে বাইক ব়্যালি করার অভিযোগে ৬ টি বাইক-সহ সংহতি মঞ্চের ২৪ জন সদস্যকে আটক করল বনগাঁ থানার পুলিশ। রবিবার দুপুরে বনগাঁর জোড়া ব্রিজ এলাকায় তাঁদের আটকের পর ছেড়ে দেওয়ার দাবিতে বনগাঁ থানার সামনে বিক্ষোভ করেন হিন্দু সংহতি মঞ্চ সদস্যরা।

[আরও পড়ুন: রাজ্যে ফের ‘খুন’ বিজেপি কর্মী, তৃণমূলের বিরুদ্ধে সরব গেরুয়া শিবির]

মঞ্চের শীর্ষ নেতাদের বক্তব্য, ”উত্তর দিনাজপুরের দাড়িভিটের দুজন বাঙালি হিন্দু স্কুল ছাত্রের পুলিশের গুলিতে মৃত্যুর প্রতিবাদ ও মাতৃভাষার সম্মান রক্ষার্থে প্রকৃত ভাষা দিবস পালন করতে হিন্দু সংহতি মঞ্চের পক্ষ থেকে একটি বাইক ব়্যালির আয়োজন করা হয়েছিল। এদিন শতাধিক সদস্য বনগাঁ রেল স্টেশন সংলগ্ন আর এস মাঠ থেকে বাইকে করে আংরাইলের দিকে যাচ্ছিল। জোড়া ব্রিজ এলাকায় পুলিশ তাঁদের আটকায়। পুলিশ কোনও অনুমতিপত্র না থাকায় সংহতি মঞ্চের কর্মকর্তাদের আটক করে বনগাঁ থানা নিয়ে আসে।” সংহতি মঞ্চের নেতা অরূপকান্তি পাল বলেন, ”শাসকদলের ব়্যালি, মিছিল, মিটিং হচ্ছে। পুলিশ তাদের আটকাচ্ছে না। আমরা থানায় জানিয়েছিলাম, তবু আমাদের মিছিল আটকাল পুলিশ।” পরে অবশ্য আটক সদস্যদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

Hindu sanhati mancha

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement