BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৪ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

টাকা মঞ্জুর সত্ত্বেও রাজনৈতিক কারণে সালানপুরে আটকে প্রকল্পের কাজ, বিডিও’কে তোপ বাবুলের

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: October 1, 2020 9:27 pm|    Updated: October 1, 2020 9:27 pm

An Images

চন্দ্রশেখর চট্টোপাধ্যায়, আসানসোল: সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়’র (Babul Supriyo) প্রকল্পকে আটকে রেখে রাজনীতির অভিযোগ উঠল সালানপুরে বিডিও’র বিরুদ্ধে। প্রকল্পের জন্য বরাদ্দ অর্থ মঞ্জুরের পরও তা ফিরিয়ে দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ তুললেন বাবুল।

সালানপুরে ১০টি প্রকল্প মঞ্জুর করেছিলেন আসানসোলের (Asansol) সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়। পাকা রাস্তা, নিকাশি, সাবমার্সিবল পাম্প-সহ উন্নয়নমুখী প্রকল্পগুলি সালানপুরের বিডিও এস্টিমেট করে জেলাশাসকের কাছে পাঠিয়েছিলেন। তারই প্রেক্ষিতে বাবুল সুপ্রিয় ৬৬ লক্ষ ৬৪ হাজার ৮২৯ টাকা বরাদ্দ করেন। নির্দিষ্ট অ্যাকাউন্টে সেই টাকা পাঠিয়েও দেওয়া হয় ১১ ই মার্চ। বাবুল সুপ্রিয়’র অভিযোগ, সালানপুরের বিডিও উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে টালবাহানা করেছেন। ৬ মাস পর বিডিও জানাচ্ছেন ১০ টি প্রকল্পের মধ্যে ৭ টি প্রকল্প পঞ্চায়েত নিজেই করবে। তাই ওই টাকার প্রয়োজন নেই। পুরো ঘটনায় ক্ষুব্ধ বাবুল সালানপুরের বিডিও তপন সরকারের বিরুদ্ধে সোশাল মিডিয়ায় তোপ দেগেছেন। উন্নয়ন নিয়ে নোংরা রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছেন।

প্রকল্প ও অর্থমঞ্জুরের চিঠি টুইটারে পোস্ট করেন বাবুল। পাশাপাশি সালানপুর বিডিও যে চিঠিটি পাঠিয়েছেন সেটাও পোস্ট করেন। বাবুল সুপ্রিয় বলেন, “গত ৬ বছর ধরে এই রকম বহু ঘটনা ঘটছে আমার উন্নয়ন তহবিল নিয়ে। দ্বিতীয়বার সাংসদ হওয়ার পর আবারও শুরু হল সেই ঘটনার পুনরাবৃত্তি।” যদিও সালানপুরের বিডিও তপন সরকার বাবুলের অভিযোগ খারিজ করে দেন। তাঁর দাবি, পঞ্চায়েত আগেই সংশ্লিষ্ট কাজের টেন্ডার করে ফেলেছে। তিনি বলেন, “প্রস্তাবে অনুমোদন আসার পর জানতে পারি পঞ্চায়েত থেকে আগেই ওই কাজগুলির টেন্ডার হয়ে গেছে। সাংসদকে বলা হয় ওই টাকায় নতুন কী কাজ করা যেতে পারে তা পঞ্চায়েতের সঙ্গে আলোচনা করতে।” তবে সাংসদের বাকি তিনটি প্রকল্পের এখনও কেন টেন্ডার হয়নি? বিডিও’র জবাব, দুবার টেন্ডার করার পর কোনও ঠিকাদার ওই কাজ করতে আসেনি। এবার জেলা প্রশাসনকে বলে নতুন করে তিনটি কাজের টেন্ডার করানো হবে।

[আরও পড়ুন: নার্সদের ‘গাফিলতি’তে জঙ্গিপুরের হাসপাতালে মৃত্যু খুদের, অভিযোগ পেয়েই নড়েচড়ে বসল কর্তৃপক্ষ]

(1.5) আমি সালানপুরের বাসিন্দাদের অবগত করতে চাই যে এলাকার উন্নয়ন জন্য কী-কী কাজ করা যায় বা করা উচিত তা নির্ধারণ করা আমার দীর্ঘদিনের ঐকান্তিক প্রচেষ্টার ফল, আর তাই MPLAD-র Fund মঞ্জুর করা সত্বেও, শেষ মুহূর্তে কাজগুলি এভাবে আটকে দেওয়ায় আমি খুবই আশাহত এবং রাগতও বটে। @BJP4Bengal pic.twitter.com/eoW8Xx5hOD

— Babul Supriyo (@SuPriyoBabul) September 30, 2020

[আরও পড়ুন: করোনার বলি ইন্দাসের বিধায়ক গুরুপদ মেটে, টুইটে শোকপ্রকাশ করলেন মুখ্যমন্ত্রী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement