১ আশ্বিন  ১৪২৬  বৃহস্পতিবার ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

ধীমান রায়, কাটোয়া:  টিউশন থেকে ফেরার পথে অশ্লীল ভিডিও দেখিয়ে স্কুল ছাত্রীকে কুপ্রস্তাব, এমনকী তার হাত ধরেও টানাটানি করা হয় বলে অভিযোগ। পূর্ব বর্ধমানের ভাতারে এক টোটো চালককে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে পকসো আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।  

[আরও পড়ুন: বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের প্রতিবাদ, স্ত্রীকে খুনের অভিযোগে ধৃত স্বামী]

যে স্কুল ছাত্রীকে কুপ্রস্তাব দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ, তার বাড়ি ভাতারের বামশোর গ্রামে। স্থানীয় বামশোর উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ে একাদশ শ্রেণিতে পড়ে সে। পরিবারের লোকেদের বক্তব্য, ভাতার বাজার এলাকায় এক শিক্ষকের কাছে টিউশন পড়ে ওই কিশোরী। বুধবার দুপুরে টিউশন পড়ে টোটোয় চেপে বাড়ি ফিরছিল সে। সঙ্গে আরও তিনজন বান্ধবীও ছিল। তারা নেমে যায় স্থানীয় আলিনগর বাসস্ট্যান্ড এলাকায়। আলিনগর বাসস্ট্যান্ড থেকে বামশোর গ্রামের দূরত্ব প্রায় এক কিলোমিটার। পরিবারের লোকেদের দাবি,  আলিনগর পেরনোর পর টোটোয় আর কোনও যাত্রী ছিল না। মাঝ রাস্তায় টোটো থামিয়ে ওই কিশোরীকে অশ্লীল ভিডিও দেখিয়ে কুপ্রস্তাব দেয় চালক। এমনকী, রাস্তায় হাত ধরে টানাটানিও করে সে। কোনওমতে বাড়ি গিয়ে গোটা ঘটনাটি জানায় একাদশ শ্রেণির ওই পড়ুয়া। ভাতার থানার অভিযোগ দায়ের করেন ওই কিশোরীর পরিবারের লোকেরা।

অভিযুক্ত টোটো চালককে গ্রেপ্তার করেছে ভাতার থানার পুলিশ। তার নাম শেখ আশা। ভাতারের বামশোর গ্রামেরই বাসিন্দা সে। শেখ আশা বিবাহিত। বস্তত, যে কিশোরীর সঙ্গে সে অশ্লীল আচরণ করেছে বলে অভিযোগ, সেই কিশোরী অভিযুক্তের পরিচিত বলে জানা গিয়েছে। শেখ আশার টোটোতেই যাতায়াত করত ওই কিশোরী। ঘটনায় শোরগোল পড়েছে ভাতারের বামশোর গ্রামে।

[আরও পড়ুন: সন্তানলাভের আশায় তান্ত্রিকের নির্দেশে দুই শিশুকে খুন, মহিলার বাড়িতে আগুন ক্ষুব্ধ জনতার]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং