২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২ ভাদ্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ২০ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: লোকসভা নির্বাচনে খুব একটা ভাল ফল হয়নি তৃণমূলের৷ সেদিক থেকে চলতি বছরের একুশে জুলাইয়ের আলাদা গুরুত্ব রয়েছে৷ তৃণমূলের দাবি, নেতা,কর্মী, সমর্থকদের জমায়েতের নিরিখে সফল শহিদ সমাবেশ৷ তবে বিজেপি তা মানতে নারাজ৷ পরিবর্তে রাজনৈতিকভাবে নেতিবাচক আলোচনায় মেতেছে গেরুয়া শিবির৷ এই সমাবেশকে কখনও ‘সার্কাস’, আবার কখনও ‘শোকসভা’ বলে কটাক্ষ করেছেন বিজেপি নেতারা৷ সেই তালিকায় নাম লেখালেন আসানসোলের বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়৷ সমাবেশের বিরোধিতায় টুইট করে তৃণমূলকে একহাত নিলেন তিনি৷

[ আরও পড়ুন: তৃণমূলকর্মীদের বাস আটকানোর চেষ্টা, বিজেপির তাণ্ডবে রণক্ষেত্র আরামবাগ]

রবিবার সকালেই একুশের সমাবেশ প্রসঙ্গে তিনি টুইটারে লেখেন, ‘‘১৯ মে হাফ হুয়ে, ২১ মে সাফ হো যায়েঙ্গে।’’ অর্থাৎ বাংলায় অনুবাদ করলে যার অর্থ দাঁড়ায়, ১৯-এ হাফ, একুশে সাফ হয়ে যাবে৷ তবে এই প্রথমবার নয়৷ এর আগেও একাধিকবার চাঁচাছোলা ভাষায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে সুর চড়িয়েছেন বাবুল সুপ্রিয়৷

রাজনৈতিক মহলের মতে, এই আক্রমণের অবশ্য গুরুত্ব একটু অন্যরকম৷ কারণ, ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই সমাবেশের আলাদা গুরুত্ব রয়েছে৷ সেই তাৎপর্যপূর্ণ সমাবেশের আগে তৃণমূল নেতাকর্মীদের মানসিকভাবে আঘাত করার কাজ এভাবে শুরু করল গেরুয়া শিবির৷

[ আরও পড়ুন: একুশের সমাবেশে যাওয়ার পথে তৃণমূল কর্মীদের উপর হামলা, কাঠগড়ায় বিজেপি]

তবে বিজেপির তরফ থেকে যাই দাবি করা হোক না কেন, তা যে সত্যি নয়, সেকথাই কথাবার্তায় প্রমাণ করে দিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মঞ্চ থেকে বারবার গেরুয়া শিবিরের বিরুদ্ধে সুর চড়ান তৃণমূল সুপ্রিমো৷ তাঁর বক্তৃতায় সোনভদ্রে দলিতদের মৃত্যুর প্রসঙ্গ যেমন উঠে এসেছে, তেমনই আবার তদন্তকারী সংস্থাকে কাজে লাগিয়ে তারকাদের বিজেপি নিজেদের দলে যোগদান করানোর চেষ্টা করছে বলেও অভিযোগ করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ এছাড়াও কাটমানি নিয়ে যখন তোলপাড় রাজ্য রাজনীতি তখন পালটা ব্ল্যাকমানির অভিযোগে সুর চড়িয়েছেন দলনেত্রী৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং